BREAKING NEWS

২৯ আশ্বিন  ১৪২৮  শনিবার ১৬ অক্টোবর ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

সময় দেননি স্পিকার, সাংসদ পদে ইস্তফা না দিয়েই কলকাতা ফিরছেন Babul Supriyo?

Published by: Subhajit Mandal |    Posted: September 26, 2021 3:21 pm|    Updated: September 26, 2021 5:40 pm

TMC leader Babul Supriyo set to return Kolkata before resigning | Sangbad Pratidin

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: দু’নৌকায় পা নয়। তৃণমূলে যোগ দেওয়ার পরই বাবুল সুপ্রিয় (Babul Supriyo) জানিয়ে দিয়েছিলেন শীঘ্রই সাংসদ পদ ছাড়বেন। সেই উদ্দেশ্যে দিল্লিও গিয়েছিলেন তিনি। কিন্তু প্রায় সপ্তাহখানেক অপেক্ষার পরও স্পিকার ওম বিড়লা তাঁকে সময় দিতে পারেননি। তাই সম্ভবত ইস্তফা না দিয়েই কলকাতা ফিরতে হতে পারে বাবুলকে। তবে, পরে স্পিকার সময় দিলে তাঁর সঙ্গে দেখা করে ইস্তফাপত্র দিয়ে আসতে চান আসানসোলের সাংসদ।

Babul Supriyo set to return Kolkata before resigning

আসলে, স্পিকার ওম বিড়লার (Om Birla) সঙ্গে দেখা করার জন্য গত ২৩ সেপ্টেম্বর সময় চেয়েছিলেন প্রাক্তন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী। কিন্তু সেসময় দিল্লিতে না থাকায় বাবুলকে সময় দিতে পারেননি ওম বিড়লা। রাজস্থানের কোটাতে ছিলেন তিনি। পরে বাবুলকে জানানো হয়, রবিবার তাঁর সঙ্গে দেখা করবেন স্পিকার। কিন্তু কোটা থেকে ফিরেই স্পিকার চলে যান কর্ণাটক। সূত্রের খবর, স্পিকার দিল্লি ফিরবেন রবিবার গভীর রাতে। তাই সোমবারের আগে বাবুলের সঙ্গে লোকসভার স্পিকারের দেখা হওয়ার সম্ভাবনা নেই। সোমবারও তিনি দেখা করবেন কিনা, সে বিষয়ে কোনও নিশ্চয়তা দেওয়া হয়নি।

[আরও পড়ুন: কোন আইনে মমতাকে রোম যেতে বাধা দেওয়া হল? কেন্দ্রের ভূমিকা নিয়ে প্রশ্ন বিজেপি সাংসদের]

সেকারণেই বাবুল সুপ্রিয়কে ফিরতে হচ্ছে ইস্তফা না দিয়েই। এক সংবাদমাধ্যমকে তিনি জানিয়েছেন, “লোকসভার স্পিকার এখনও সময় দেননি। তাই ইস্তফা দেওয়া হয়‌নি। আমাকে ফিরতে হবে কলকাতায়। কারণ, দুর্যোগ ধেয়ে আসছে রাজ্যের দিকে। আর অপেক্ষা করা যাবে না। আমি লোকসভার স্পিকারের কাছে সময় চেয়েছিলাম। নানা কারণে উনি ব্যস্ত। তাই সময় দিতে পারেননি। তাই এ বার ইস্তফা জমা দেওয়া হবে না।”

[আরও পড়ুন: ‘গান্ধীজির আদর্শই দেশকে পথ দেখাচ্ছে’, ‘মন কি বাত’-এ মহাত্মার শরণে মোদি]

তাহলে কবে ইস্তফা দেবেন বাবুল? তিনি জানিয়েছেন, কবে স্পিকার সময় দেবেন, তার এখনই কোনও নিশ্চয়তা নেই। সাত দিন অপেক্ষা করেছেন তিনি। বাবুলের আশা, ফাঁকা সময় পেলেই স্পিকার তাঁকে সময় দেবেন। পুরোটাই নির্ভর করছে লোকসভার 
(Lok Sabha) স্পিকারের সুবিধা, অসুবিধার উপর।

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে

Advertisement

Advertisement