BREAKING NEWS

৮ অগ্রহায়ণ  ১৪২৭  মঙ্গলবার ২৪ নভেম্বর ২০২০ 

Advertisement

অবশেষে মুক্তি পাচ্ছেন সাংবাদিক অর্ণব গোস্বামী, সুপ্রিম কোর্টে মঞ্জুর জামিনের আবেদন

Published by: Paramita Paul |    Posted: November 11, 2020 5:02 pm|    Updated: November 11, 2020 5:15 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: অবশেষে স্বস্তি। সুপ্রিম কোর্টে অন্তর্বর্তীকালীন জামিন পেলেন রিপাবলিক টিভির এডিটর-ইন-চিফ অর্ণব গোস্বামী (Arnab Goswami)। ২০১৮ সালের আত্মহত্যায় প্ররোচনা দেওয়া মামলায় ধৃত তিনজনের জামিনের আবেদব বুধবার মঞ্জুর করে শীর্ষ আদালত (Supreme Court)।  মুম্বই পুলিশ কমিশনারকে অবিলম্বে আদালতের নির্দেশ  কার্যকর করতে বলেছেন বিচারপতিরা। এদিন শুনানিতে মহারাষ্ট্র সরকারকে তিরস্কার করে শীর্ষ আদালত। 

দু’দিন আগে বম্বে হাই কোর্ট অর্ণব গোস্বামী অন্তর্বর্তীকালীন জামিনের আবেদন নাকচ করেছিল। নিম্ন আদালতে যেতে নির্দেশ দিয়েছিল হাই কোর্ট। সেই রায়কে চ্যালেঞ্জ করে  শীর্ষ আদালতের দ্বারস্থ হয়েছিলেন ওই সাংবাদিকের আইনজীবীরা। এদিন ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে বিচারপতি ডিওয়াই চন্দ্রচূড় ও বিচারপতি ইন্দিরা বন্দ্যোপাধ্যায়ের বেঞ্চে সেই আরজির শুনানি হয়। শুনানি শেষে ধৃত তিনজনের আরজি মঞ্জুর করে আদালত। ৫০ হাজার টাকার ব্যক্তিগত বন্ডে জামিন পেয়েছেন তিন অভিযুক্ত। 

[আরও পড়ুন : প্যাংগং থেকে শুরু হবে সেনা অপসারণ, সীমান্তে সংঘাত এড়াতে পদক্ষেপ ভারত-চিনের]

ইন্টিরিয়র ডিজাইনার অন্বয় মালিক এবং কুমুদ মালিকের আত্মহত্যায় প্ররোচনা দেওয়ার অভিযোগ উঠেছে অর্ণব গোস্বামীর বিরুদ্ধে। ২০১৮ সালের মামলায় তাঁকে গ্রেপ্তার করেছে মু্ম্বই পুলিশ। বম্বে হাই কোর্টে খারিজ হয়েছে জামিনের আবেদনও। এদিন অর্ণবের আইনজীবী হরিশ সালভে সওয়াল করেন, রাজনৈতিক প্রতিহিংসার জন্য অর্ণবকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।

শুনানিতে মহারাষ্ট্র সরকারকে কার্যত ভর্ৎসনা করেন বিচারপতিরা। তাঁদের কথায়, “সরকারের ভিন্ন মত থাকতেই পারে। তা বলে কাউকে ব্যক্তিগতভাবে নিশানা করা যায় না। রাজ্য সরকার যদি ব্যক্তিগতভাবে কাউকে নিশানা করে তাহলে তাদের মনে রাখা উচিৎ, ব্যক্তি স্বাধীনতা রক্ষা করতে শীর্ষ আদালত রয়েছে।” একই সঙ্গে হাই কোর্টের উদ্দেশ্যে তাঁদের কড়া বার্তা, ব্যক্তি স্বাধীনতা রক্ষার্থে নিজেদের ক্ষমতা প্রয়োগ করুন। এদিন বিচারপতি ডি ওয়াই চন্দ্রচূড় বলেন, “ভিন্ন মত থাকতেই পারে। কিন্তু তা বলে সাংবিধানিক আদালত যদি হস্তক্ষেপ না করে, তা হলে আমাদের ধ্বংস অবশ্যম্ভাবী।”

[আরও পড়ুন : ভিন্ন দিওয়ালির প্রস্তুতি, গোবর দিয়ে লক্ষ্মী-গণেশের মূর্তি ও প্রদীপ তৈরি করছেন পরিযায়ী শ্রমিকরা]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement