BREAKING NEWS

৯ আশ্বিন  ১৪২৭  শনিবার ২৬ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

মাওবাদীদের অস্ত্র জোগান দেওয়ার অভিযোগ, সুকমায় ধৃত ২ পুলিশকর্মী

Published by: Bishakha Pal |    Posted: June 9, 2020 11:52 am|    Updated: June 9, 2020 11:52 am

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: মাওবাদীদের গোলাবারুদ ও অস্ত্র সরবরাহ করার অভিযোগে এক অ্যাসিট্যান্ট সাব-ইনসপেক্টর ও একজন হেড কনস্টেবলকে গ্রেপ্তার করল ছত্তিশগড় পুলিশ। পুলিশের মধ্যে থেকেই যে কেউ মাওবাদীদের সহায়তা করছে, এমন খবর কিছুদিন আগে পুলিশের কাছে এসে পৌঁছয়। এরপর তদন্তের জন্য একটি বিশেষ তদন্তকারী দল গঠিত হয়। সুকমার অতিরিক্ত পুলিশ সুপারের (এসপি) নেতৃত্বে সেই দল তদন্ত শুরু করে। সোমবার সুকমা জেলায় থেকে এই দুই পুলিশকর্মীকে গ্রেপ্তার করা হয়।

৪ জুন গোপন সূত্রে জানতে পেরে সুকমা থেকে প্রায় ৪০০ রাউন্ড এসএলআর ও গোলাবারুদ নিয়ে আসা দু’জনকে বাধা দেয় পুলিশ। এরপর তাদের জিজ্ঞাসাবাদ করে পরবর্তী তদন্তের সময় কাঙ্কের থেকে আরও দু’জনকে গ্রেপ্তার করা হয়। বস্তারের আইজি পি সুন্দররাজ জানিয়েছেন, “কাঙ্কেরের এই দুই ব্যক্তির সঙ্গে ওই অঞ্চলে মাওবাদীদের যোগাযোগের কথা আমরা জানতে পারি। এরপর তাদের কল রেকর্ড পাওয়ার পর জানান যায়, এলাকার মাওবাদী নেতা দর্শন পেড্ডার সঙ্গে তাদের যোগাযোগ রয়েছে। এরপরই শুরু হয় জিজ্ঞাসাবাদ। তখনই জানা যায় ও দুই ব্যক্তি পুলিশকর্মী।”

[ আরও পড়ুন: হটস্পট এলাকার ৩০ শতাংশ বাসিন্দাই করোনা সংক্রমিত! দাবি ICMR-এর সমীক্ষায় ]

ওই দুই পুলিশকর্মী মধ্যে একজন হেড ​​কনস্টেবল সুভাষ সিংহ এবং অন্যজন এএসআই আনন্দ জাটভ। দু’জনেরই পোস্টিং ছিল সুকমায়। মজুত করা গোলাবারুদ রক্ষণাবেক্ষণের দায়িত্বে নিযুক্ত ছিল তারা। সেখান থেকেই মাওবাদীদের সেগুলি সরবরাহ করত। তারা পুলিশ রেকর্ডেও কিছু গোলমাল ঘটাতে পারেন বলে মনে করছেন তদন্তকারী অফিসাররা। ধৃতদের কাছ থেকে প্রচুর গোলাবারুদ উদ্ধার করা হয়েছে। এই দুই ব্যক্তির বিরুদ্ধে আরও জোরদার তদন্ত শুরু হয়েছে। অতীতে তারা অস্ত্র, ইউনিফর্ম এবং ক্যাপ সরবরাহ করেছিল কিনা, তাও খতিয়ে দেখা হচ্ছে।

[ আরও পড়ুন: মুম্বইয়ের করোনা আতঙ্কে আশার আলো ধারাভি-ওরলিতে, বাড়ছে সুস্থতার হার ]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement