BREAKING NEWS

৮ মাঘ  ১৪২৮  শনিবার ২২ জানুয়ারি ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

কাশ্মীরে অব্যাহত সেনা-জঙ্গি গুলির লড়াই, খতম দুই সন্ত্রাসবাদী

Published by: Tanujit Das |    Posted: August 3, 2019 3:12 pm|    Updated: August 3, 2019 3:42 pm

Two Hizbul terrorist killed in exchange of fire with security forces

ফাইল ফটো

মাসুদ আহমেদ, শ্রীনগর: সেনার সঙ্গে গুলির লড়াইয়ে জম্মু-কাশ্মীরের সোপিয়ানে খতম দুই হিজবুল জঙ্গি৷ মানজুর ভাট নামে এক জঙ্গিকে শনাক্ত করা হয়েছে বলে সেনাসূত্রে খবর৷ সেনার উপর একাধিক হামলার ঘটনায় অভিযুক্ত এই জঙ্গি৷ উপত্যকায় হিজবুল মুজাহিদিনের সদস্যদের কাছে অস্ত্র পাচারের কাজের সঙ্গেও যুক্ত ছিল সে৷ সেনা সূত্রে খবর, এখনও জম্মু-কাশ্মীরের একাধিক এলাকায় তল্লাশি অভিযান চলছে৷ কোথাও কোথাও চলছে সেনা-জঙ্গি গুলির লড়াই৷

[ আরও পড়ুন: রাতভর বৃষ্টিতে ভাসছে মুম্বই, ব্যাহত রেল-বিমান পরিষেবা]

শুক্রবারই জম্মু-কাশ্মীরে আত্মগোপন করে থাকা জঙ্গিদের বিরুদ্ধে বড়সড় সাফল্য পেয়েছে সেনা৷ অমরনাথের যাত্রা পথে গজিয়ে ওঠা জঙ্গি ডেরায় তল্লাশি চালিয়ে বিপুল অস্ত্রশস্ত্র উদ্ধার করেছে সেনা৷ উদ্ধার হয়েছে বিপুল ল্যান্ডমাইন, আইইডি ও এম-২৪ স্নাইপার রাইফেল৷ অস্ত্রগুলিতে মিলেছে পাকিস্তান অর্ডিন্যান্স ফ্যাক্টরির চিহ্ন৷ ফলে আবারও সন্ত্রাসবাদ ইস্যুতে ফাঁস হয়েছে পাক দ্বিচারিতা৷ আবারও প্রমাণ হয়েছে সীমান্তের ওপার থেকে কাশ্মীরে সন্ত্রাসবাদের বীজবপন করছে পাক সেনা ও তাদের গুপ্তচর সংস্থা আইএসআই৷ 

পাক অনুপ্রবেশ ও জঙ্গি নাশকতার আশঙ্কার ইতিমধ্যেই জম্মু-কাশ্মীরে ৩৮ হাজার সেনা পাঠিয়েছে কেন্দ্র৷ হামলার আশঙ্কার বন্ধ করা হয়েছে অমরনাথ যাত্রা৷ পূণ্যার্থীদের ফিরে আসার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে৷ এরপরই দ্রুত ভূস্বর্গ ছাড়ছেন পর্যটকরা। শনিবার সকাল থেকে শ্রীনগর বিমানবন্দরে পর্যটক ও পুণ্যার্থীরা ভিড় করেছেন বিমানের টিকিট কাটার লাইনে। জঙ্গিহানার আশঙ্কায় সবাই নির্ধারিত দিনের আগেই ফিরে আসতে চাইছেন তাই নতুন করে টিকিট বিক্রির ব্যস্ততা এয়ার ইন্ডিয়া, ইন্ডিগো, ভিস্তারার মতো বিমানসংস্থাগুলির কাউন্টারে। পর্যটকদের আতঙ্ক আরও বেড়েছে শনিবার সকাল থেকে জম্মু-কাশ্মীরের সোপোরেতে সেনা-জঙ্গির গুলির লড়াইয়ের ঘটনায়।

[ আরও পড়ুন: হোটেলে ‘অশ্লীল’ আচরণ, সমকামী যুগলকে হেনস্তা কর্তৃপক্ষের]

কাশ্মীরকে তিন টুকরো করা হবে বলে শুক্রবার গুজব ছড়ানোর পরই,রাজনীতিবিদদের উদ্দেশে আতঙ্ক না ছড়ানোর বার্তা দিয়েছেন রাজ্যপাল সত্যপাল মালিক। পাশাপাশি কেন্দ্র অকারণে কাশ্মীরের পরিস্থিতি উত্তেজিত করছে বলে উদ্বেগ প্রকাশ করেন পিডিপি নেত্রী মেহবুবা মুফতি ও ন্যাশনাল কনফারেন্সের নেতা ওমর আবদুল্লা। এই প্রেক্ষিতেই সাধারণ মানুষকে শান্ত থাকার জন্য অনুরোধ করে রাজ্যপাল৷ বলেন, “একটা ইস্যুর সঙ্গে অন্যকে মিলিয়ে দিয়ে অযথা আতঙ্ক ছড়ানো হচ্ছে। নিরাপত্তার কারণে একটা পদক্ষেপ করা হয়েছে, তার সঙ্গে অন্য কোনও কিছুর সম্পর্ক নেই।” উপত্যকায় ছড়িয়ে পড়া আতঙ্ক নিয়ে কথা বলতে জম্মু-কাশ্মীরের রাজ্যপাল সত্যপাল মালিকের দ্বারস্থ হন প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী মেহবুবা মুফতি, শাহ ফয়জল, সাজ্জাদ লোন এবং ইমরান আনসারি। এবং এনসি নেতা ওমর আবদুল্লা৷

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে