BREAKING NEWS

৭ কার্তিক  ১৪২৮  সোমবার ২৫ অক্টোবর ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

এবার করোনায় মৃত্যু উত্তরপ্রদেশের মন্ত্রীর, আক্রান্ত তেলেঙ্গানার মুখ্যমন্ত্রী

Published by: Arupkanti Bera |    Posted: April 20, 2021 5:10 pm|    Updated: April 20, 2021 6:19 pm

UP Minister of State Hanuman Mishra passes away at a hospital in Lucknow and KCR infected । sangbad Pratidin

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: উত্তরপ্রদেশের (Uttar Pradesh)  মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথের (CM Yogi Adityanath) মন্ত্রিসভার এক সদস্যের মৃত্যু হল করোনায় (corona Virus)। লখনউয়ের এক হাসপাতালে মঙ্গলবার তিনি মারা যান। মৃত মন্ত্রীর নাম হনুমান মিশ্র। করোনা টেস্ট পজিটিভ হওয়ার পর তাঁকে হাসপাতালে ভরতি করা হয়েছিল।কিন্তু শেষরক্ষা হয়নি। এদিকে করোনা আক্রান্ত হয়েছেন তেলেঙ্গানার মুখ্যমন্ত্রী কে চন্দ্রশেখর রাও। সম্প্রতি তিনি একটি বড় মিছিল করেন।সেখান থেকেই আক্রান্ত হতে পারেন বলে মনে  করা হচ্ছে। 

করোনা আক্রান্ত হওয়ার পর হনুমান মিশ্রকে লখনউয়ের সঞ্জয় গান্ধী পোস্টগ্র্যাজুয়েট ইনস্টিটিউট অফ মেডিক্যাল সায়েন্সে ভরতি করা হয়। মঙ্গলবার তাঁর মৃত্যুর খবর সামনে এল। এর আগে যোগী আদিত্যনাথের করোনা ধরা পড়ে। তিনি এখন কোয়ারেন্টাইনে আছে।

[আরও পড়ুন: করোনা টিকার হাহাকারের মধ্যেই দুঃসংবাদ, নষ্ট হয়েছে ২৩ শতাংশ ডোজ]

করোনার দ্বিতীয় ঢেউয়ে সব থেকে বেশি প্রভাব পড়েছে মহারাষ্ট্রে। তার পরই আক্রান্তের সংখ্যার নিরিখে দ্বিতীয় স্থানে রয়েছে উত্তরপ্রদেশ। উত্তরপ্রদেশের পরেই রয়েছে দিল্লি।  সোমবার মহারাষ্ট্রে  ৫৮ হাজার ৯২৪ জন নতুন করে করোনা আক্রান্ত হয়েছেন। উত্তরপ্রদেশের সংখ্যাটা ২৮ হাজার ২১১। দিল্লিতে সোমবার ২৩ হাজার ৬৮৬ জন নতুন করে করোনা আক্রান্ত হয়েছেন।

এদিকে সোমবার উত্তরপ্রদেশের পাঁচটি শহর– প্রয়াগরাজ, লখনউ, কানপুর, বারাণসী ও গোরক্ষপুরে ২৬ এপ্রিল পর্যন্ত লকডাউন জারির নির্দেশ দেয় এলাহাবাদ হাই কোর্ট। তবে ওই পাঁচ রাজ্যে মানুষের জীবিকার তাগিদে লকডাউন করা সম্ভব নয় বলে জানায় যোগীর প্রশাসন। এবার হাই কোর্টের সেই রায়ের বিরুদ্ধে শীর্ষ আদালতের দ্বারস্থ হল উত্তরপ্রদেশ সরকার।

মঙ্গলবার সেই মামলার শুনানি হয় সুপ্রিম কোর্টের প্রধান বিচারপতি এস এ বোবদের এজলাসে। উত্তরপ্রদেশ সরকারের হয়ে সওয়াল করেন সলিসিটর জেনারেল তুষার মেহতা। শীর্ষ আদালতে মেহতা যুক্তি দেন যে হাই কোর্টের নির্দেশে পাঁচটি শহরে লকডাউন জারি করলে প্রশাসনিক স্তরে বিস্তর সমস্যা দেখা দেবে। করোনা সংক্রমণ রুখতে সরকার যথাসাধ্য চেষ্টা করছে। এবং হাই কোর্টের অন্য নির্দেশিকা পালন করবে। সেই যুক্তি শোনার পর আপাতত যোগী সরকারের পক্ষেই রায় দেয় শীর্ষ আদালত।

[আরও পড়ুন: জুলাই থেকে ২৮ শতাংশ ডিএ পেতে পারেন কেন্দ্রীয় সরকারি কর্মীরা]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে

Advertisement

Advertisement