Advertisement
Advertisement
Uttar Pradesh

‘লিভ ইনে থাকতে না দিলে আত্মহত্যা করব’, হুমকি ১৬ বছরের কিশোরের প্রেমে পাগল যুবতীর

প্রেম যে বয়স মানে না তা আরও একবার প্রমাণ হল উত্তরপ্রদেশের এই ঘটনায়।

Uttar Pradesh Woman Obsesses Over 16-Year-Old Lover, Insists On Living-In Or Kill Self
Published by: Suchinta Pal Chowdhury
  • Posted:May 22, 2024 9:10 pm
  • Updated:May 22, 2024 9:11 pm

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: কথায় বলে প্রেম অন্ধ। বয়স মানে না। যা আরও একবার প্রমাণ হল উত্তরপ্রদেশের এই ঘটনায়। ১৬ বছরের এক কিশোরের প্রেমে পাগল বছর ২৫-এর যুবতী। শুধু তাই নয়, ওই নাবালকের সঙ্গে লিভ ইন করবেন বলে জেদ ধরে বসেন যুবতী। এমনকী হুমকি দেন, নাবালকের সঙ্গে থাকতে না দিলে আত্মহত্যা করবেন। ওই যুবতীর নাছোড়বান্দা আচরণে অস্বস্তিতে পড়েছে পুলিশও। 

জানা গিয়েছে, ওই যুবতী মিরুটের বাসিন্দা। সম্প্রতি সোশাল মিডিয়ায় তাঁর পরিচয় হয় ওই নাবালকের সঙ্গে। সেখান থেকেই প্রথমে বন্ধুত্ব, তার পর অসমবয়সী প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে দুজনের মধ্যে। সেই ভালোবাসার টানেই যুবতী সটান হাজির হন শামলিতে নাবালকের বাড়িতে। ওই কিশোরের পরিবারের দাবি, ওই যুবতী বেশ কয়েকদিন তাঁদের বাড়িতে থাকেন। তার পর তাঁকে চলে যেতে বললে বেঁকে বসেন। জেদ ধরেন তিনি এখানেই লিভ ইন করবেন ওই নাবালকের সঙ্গে। যদি তাঁকে জোর করে বাড়ি থেকে বের করে দেওয়া তাহলে তিনি আত্মহত্যা করবেন। এই হুমকি শোনার পরই পুলিশের দ্বারস্থ হয় নাবালকের পরিবার।

Advertisement

[আরও পড়ুন: ইন্ডিয়া জোটের স্বার্থেই বাংলায় কংগ্রেসের সঙ্গে সমঝোতা নয়, ব্যাখ্যা তৃণমূলের]

পুলিশ এসে ওই যুবতীকে তাঁর পরিবারের লোকজনের হাতে তুলে দেয়। কিন্তু যুবতীকে বাড়ি ফিরিয়ে নিয়ে যেতে নারাজ পরিবারের সদস্যরা। তাঁদের বক্তব্য, ওই যুবতী যা আচরণ করেছেন তাতে বাড়ির সম্মান নষ্ট হয়েছে। বুধবার পুলিশ জানিয়েছে, ওই যুবতীতে আবার শামলিতে ফিরে এসেছেন। যাতে প্রবল আপত্তি জানিয়েছে নাবালকের পরিবার। ওই নাবালকের বাবা জানিয়েছেন, “আমার ছেলে শিক্ষিত হয়। কোনও রোজগার করে না। সোশাল মিডিয়ায় ওঁদের বন্ধুত্ব হয়েছিল।”

Advertisement

গোটা ঘটনায় চরম অস্বস্তিতে পড়েছে পুলিশ। এনিয়ে এক পুলিশ আধিকারিক বীরেন্দ্র কুমার জানিয়েছেন, “আমাদের জন্য এই পরিস্থিতি ঠিক করা খুব কঠিন হয়ে দাঁড়াচ্ছে। ওই যুবতী নাবালকের সঙ্গে থাকবেন বলে জেদ ধরে বসে রয়েছেন। তাঁকে বাড়ি পাঠানো হলেও ফিরে এসেছেন। তাঁর বাড়ির লোকজনদের থানায় ডাকা হয়েছে। তাঁরা যদি ওই যুবতীকে বাড়ি নিয়ে না যান তাহলে তাঁকে হোমে পাঠিয়ে দেওয়া হবে।”

Sangbad Pratidin News App

খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ