BREAKING NEWS

২ বৈশাখ  ১৪২৮  শুক্রবার ১৬ এপ্রিল ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

OMG! থুতু ছিটিয়ে রুটি তৈরির ভিডিও ভাইরাল, কী পরিণতি হল হোটেল কর্মীর?

Published by: Sulaya Singha |    Posted: March 19, 2021 5:30 pm|    Updated: March 19, 2021 5:30 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: দোকান, ধাবা কিংবা রেস্তরাঁয় তৈরি রুটি খেতে কম-বেশি অনেকেই অভ্যস্ত। কিন্তু যে রুটি তৃপ্তির সঙ্গে মুখে তোলেন, তা আদৌও পরিষ্কার-পরিচ্ছন্ন তো? এ প্রশ্ন মনের কোণে থেকেই যায়। আর সেই সন্দেহ আরও বেশি প্রকট হয়ে উঠল নতুন একটি ভিডিও ভাইরাল হতে। যেখানে এক কর্মীকে থুতু ছিটিয়ে রুটি তৈরি করতে দেখা গেল! যা দেখে চক্ষু চড়কগাছ আমজনতার।

ঘটনাটি পশ্চিম দিল্লি (West Delhi) এলাকার একটি খাবারের দোকানের। ভাইরাল হওয়া ভিডিওতে দেখা যাচ্ছে, এক ব্যক্তি রুটি বেলার পর তাতে থুতু ছিটিয়ে দিচ্ছে। তারপর তা শেঁকছে উনোনে। আর তার সহকর্মী আটা মেখে সাহায্য করছে। ভিডিওটি ভাইরাল (Viral Video) হতেই শোরগোল পড়ে যায়। খবর কানে যায় দিল্লি পুলিশেরও। ভিডিওর দুই ব্যক্তিকে চিহ্নিত করে ইতিমধ্যেই তাদের গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। অভিযুক্তরা হল সাবি আনোয়ার ও ইব্রাহিম। পশ্চিম দিল্লির একটি হোটেলে এই ঘটনা ঘটেছে বলে জানা গিয়েছে।

[আরও পড়ুন: ভোটকেন্দ্রে কেন্দ্রীয় বাহিনীর সঙ্গে রাখতে হবে রাজ্য পুলিশকেও, কমিশনে দাবি তৃণমূলের]

দিল্লি পুলিশের তরফে এক সিনিয়র আধিকারিক জানান, “তদন্তে নেমে প্রাথমিকভাবে জানা গিয়েছে, খেয়ালা এলাকার খাবারের হোটেল ‘চাঁদ’-এ এই ঘটনাটি ঘটেছে। অভিযুক্ত সাবি আনোয়ার ও ইব্রাহিম দু’জনই বিহারের কৃষ্ণগঞ্জের বাসিন্দা। আটার মধ্যে থুতু দিচ্ছে ইব্রাহিম। তাদের বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের করে দু’জনকেই গ্রেপ্তার করা হয়েছে। পাশাপাশি হোটেলের মালিক আমিরের বিরুদ্ধেও লিখিত অভিযোগ দায়ের হয়েছে।” করোনা আবহে যেখানে পরিচ্ছন্নতার পাঠ দিচ্ছেন নেতা-মন্ত্রী, চিকিৎসক বিশেষজ্ঞরা, সেখানে এমন ঘটনায় উদ্বিগ্ন অনেকেই।

তবে এই প্রথমবার নয়। এর আগে মীরাটের এমনই একটি ঘটনা সামনে এসেছিল। বিয়ের অনুষ্ঠানে রুটি তৈরি হচ্ছিল থুতু ছিটিয়ে। আবার গত সপ্তাহে গাজিয়াবাদের একটি দোকানেও প্রায় একই দৃশ্য ধরা পড়েছিল।

[আরও পড়ুন: সম্পত্তির নিরিখে অন্য সব দলের থেকে বহু এগিয়ে বিজেপি! তুলনায় অনেক ‘গরিব’ তৃণমূল]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement