Advertisement
Advertisement

‘কর্নাটকে থাকতে গেলে শিখতে হবে কন্নড় ভাষা’

হিন্দি বর্জনের দাবিতে অনড় কর্নাটকের মুখ্যমন্ত্রী।

Whoever lives in Karnataka must learn Kannad, says CM Siddaramaiah
Published by: Sangbad Pratidin Digital
  • Posted:November 1, 2017 10:08 am
  • Updated:November 1, 2017 10:08 am

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: মাস চারেক আগে হিন্দি বর্জনের দাবিতে আন্দোলনে উত্তাল হয়েছিল দক্ষিণের এই রাজ্যটি। বেশ কয়েকটি মেট্রো স্টেশনে সাইনবোর্ড থেকে হিন্দি লেখাও মুছে দেওয়া হয়েছিল। আর সেই আন্দোলনকে মান্যতা দিয়ে রাজ্যে হিন্দি ব্যবহার না করার আরজি জানিয়ে কেন্দ্রকে চিঠিও দিয়েছিলেন তিনি। আর এবার মুখ্যমন্ত্রী সিদ্দারামাইয়া জানিয়ে দিলেন, যাঁরাই কর্নাটকে থাকুন না কেন, তাঁদের কন্নড় ভাষা শিখতে হবে। সন্তানদেরও শেখাতে হবে।

[রাজ্যে হিন্দি বর্জনে অনড় সিদ্দারামাইয়া, কেন্দ্রকে চিঠি কর্নাটকের মুখ্যমন্ত্রীর]

Advertisement

বহু ভাষার দেশ ভারতবর্ষ। তবে গো-বলয় সহ বেশিরভাগ রাজ্যে হিন্দিতেই কথা বলেন স্থানীয় বাসিন্দারা। এই ভাষাটিকে রাষ্ট্রীয় ভাষার মর্যাদাও দেওয়া হয়। কিন্তু, হিন্দির প্রতি প্রবল অনীহা রয়েছে দক্ষিণ ভারতীয়দের। হিন্দিতে নয়, ভিনরাজ্যের বাসিন্দাদের সঙ্গে ইংরেজিতে কথা বলতে পছন্দ করেন তাঁরা। গত জুলাই মাসে কর্নাটকের বিভিন্ন মেট্রো স্টেশনের সাইন বোর্ডে হিন্দিতে স্টেশনের নাম লেখার প্রতিবাদে আন্দোলনে নেমেছিলেন কন্নড়পন্থীরা। কোথাও সাইনবোর্ডে হিন্দি লেখা মুখে দেওয়া হয়েছিল, কোথাও আবার সেলোটেপ লাগিয়ে হিন্দি লেখা আড়াল করে দেওয়া হয়েছিল। আন্দোলনকারীদের বক্তব্য ছিল, অ-হিন্দিভাষী রাজ্য কর্নাটকে কেন হিন্দি ভাষা ব্যবহার করা হবে?  সেই সময়ে রাজ্যে হিন্দির ব্যবহার বন্ধ করার আরজি জানিয়ে কেন্দ্রকে চিঠি দিয়েছিলেন মুখ্যমন্ত্রী সিদ্দারামাইয়া। বুধবার ফের হিন্দি বর্জনের দাবিকে সমর্থন করলেন তিনি। এদিন বেঙ্গালুরুতে কর্নাটক রাজোৎসব অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখতে গিয়ে মুখ্যমন্ত্রী বলেন, ‘এখানে যাঁরা থাকে্ন, তাঁরা প্রত্যেকেই কান্নডিগা। তাই যিনি কর্নাটকে থাকুন না কেন, তাঁকে কন্নড় ভাষা শিখতে হবে। নিজেদের সন্তানদেরও শেখাতে হবে।’ সিদ্দারামাইয়ার বক্তব্য, ‘আপনি যদি কন্নড় ভাষা না শেখেন, তার মানে আপনি এই ভাষাকে অশ্রদ্ধা করছেন।’ বস্তুত, রাজ্যে সমস্ত স্কুলেও কন্নড় ভাষা শেখানোর কথা বলেন কর্নাটকের মুখ্যমন্ত্রী।

Advertisement

[ফের হিন্দির বিরুদ্ধে সরব কর্নাটক, মেট্রো স্টেশন থেকে মোছা হল নাম]

প্রসঙ্গত, এ রাজ্যেও দার্জিলিং ও লাগোয়া এলাকায় পড়ুয়াদের তৃতীয় ভাষা হিসেবে বাংলা শিখতে হবে বলে ঘোষণা করেছিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। মুখ্যমন্ত্রীর ঘোষণায় শোরগোল পড়েছিলে দার্জিলিংয়ে। ফের নতুন করে অশান্তি ছড়িয়েছিল পাহাড়ে।

[পুরোহিতের প্রশিক্ষণ নিতে হবে শিক্ষকদের, নইলে কড়া সাজার হুমকি]

Sangbad Pratidin News App

খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ