BREAKING NEWS

১৫  আষাঢ়  ১৪২৯  শুক্রবার ১ জুলাই ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

পরকীয়ার প্রমাণ লোপাট করতে শিশুপুত্রকে শ্বাসরোধ করে খুন, দেহ খালের জলে ভাসাল মা!

Published by: Soumya Mukherjee |    Posted: July 29, 2019 9:05 pm|    Updated: July 30, 2019 8:56 am

Woman Strangles Infant Son, Throws Body Into Canal To Hide Affair: Cops

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: পরকীয়ার প্রমাণ লোপাট নিজের দেড় মাসের শিশুপুত্রকে শ্বাসরোধ করে খুন করল এক যুবতী। শুধু তাই নয়, খুনের পর তার দেহটি একটি খালের জলে ভাসিয়ে দেওয়া হয় বলেও অভিযোগ। এর জেরে সোমবার ৩০ বছরের ওই যুবতীকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। ঘটনাটি ঘটেছে গুজরাতের ভাদোদরা সংলগ্ন কাইরা জেলার কাথলাল থানা এলাকায়। বর্তমানে ওই যুবতীর নামে খুনের মামলা দায়ের করে তদন্ত চালাচ্ছে পুলিশ।

[আরও পড়ুন: কংগ্রেস নেতার বাড়িতে আয়কর হানা, মিলল ২০০ কোটি টাকার সম্পত্তির হদিশ]

পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, গত ২৩ মে লোকসভা নির্বাচনের ফলাফলের দিন কাইরা জেলার একটি খাল থেকে ওই শিশুর মৃতদেহ উদ্ধার হয়। তদন্তে নেমে পুলিশ জানতে পারে, স্থানীয় এক যুবতী আশা রাঠোর সম্প্রতি নাদিয়াদ সিভিক হাসপাতালে একটি শিশুপুত্রের জন্ম দিয়েছেন। পরে ওই এলাকার প্রশাসনিক দপ্তরে গিয়ে বার্থ রেজিস্ট্রার দেখে তার প্রমাণ সংগ্রহ করেন তদন্তকারীরা। পরে তাকে গ্রেপ্তার করা হয়।

 কাথলাল থানার পুলিশ আধিকারিক ডিকে রাওল জানান, ২০০৯ সালে বিয়ে হয়েছিল ওই যুবতীটির। বর্তমানে তাঁর দুটি সন্তানও আছে। কিন্তু, বিয়ের কিছুদিন পরে স্বামীর সঙ্গে অশান্তির জেরে বিবাহ বিচ্ছেদের মামলা দায়ের হয় আদালতে। এর জেরে ২০১৫ সাল থেকে স্বামীর থেকে আলাদা থাকছিলেন তিনি। তাই তাঁর সন্তান হওয়ার খবর শুনে পুলিশের সন্দেহ হয়। বিষয়টি জানতে তাঁর বাড়িতে যান পুলিশকর্মীরা। তখন ওই যুবতী জানান, একটি হাসপাতালে তাঁর সন্তানের চিকিৎসা চলছে। কিন্তু, সেকথা বিশ্বাস হয়নি পুলিশকর্মীদের। এরপরই সত্যি কথা জানার জন্য চাপ দেওয়া তাঁকে। পুলিশের চাপের মুখে ভেঙে পড়েন ওই মহিলা। স্বীকার করেন স্বামীর অবর্তমানে এক ব্যক্তির সঙ্গে শারীরিক সম্পর্ক তৈরি হয়েছিল তাঁর। এর ফলে তিনি গর্ভবতী হয়ে পড়েন। কিন্তু, সন্তান জন্মানোর পর সমাজে নিন্দা হবে ভেবে তাকে খুন করে খালে ভাসিয়ে দেন।

 

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে