Advertisement
Advertisement
Abhishek Banerjee

নির্বাচনী আবহে অভিষেকের হেলিকপ্টার থামিয়ে আয়কর তল্লাশি! কী মিলল?

এক্স হ্যান্ডলে পোস্ট করে ক্ষোভ উগরে দিলেন অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়। সোশাল মিডিয়ায় একে একে তোপ দেগেছেন তৃণমূল নেতারা।

2024 Lok Sabha Polls: IT raid in Abhishek Banerjee's helicopter during trial run at Behala Flying Club
Published by: Sucheta Sengupta
  • Posted:April 14, 2024 4:17 pm
  • Updated:April 14, 2024 5:35 pm

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ভোটের মুখে (2024 Lok Sabha Polls) ফের কেন্দ্রীয় সংস্থার অতি তৎপরতার অভিযোগ তৃণমূলের। ট্রায়াল রান চলাকালীন অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের (Abhishek Banerjee) কপ্টার থামিয়ে তল্লাশি চালালেন আয়কর দপ্তরের আধিকারিকরা। বেহালার ফ্লাইং ক্লাবে ট্রায়াল রানের (Trial run) সময় আচমকাই তা থামিয়ে আয়কর দপ্তরের  (Income Tax) আধিকারিকরা তল্লাশি চালান বলে অভিযোগ। অভিষেকের নিরাপত্তা রক্ষীদের সঙ্গেও বাকবিতন্ডা হয় কেন্দ্রীয় সংস্থার আধিকারিকদের। এনিয়ে সোশাল মিডিয়ায় (Social Media) ক্ষোভ উগরে দিলেন অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়। তাঁর দাবি, কপ্টারে কিছু পাওয়া যায়নি। পাশাপাশি তাঁর অভিযোগ, এনআইএ-র ডিজি ও এসপি-কে বদলের যে দাবি ছিল তৃণমূলের, তার পালটা হিসেবে তাঁর কপ্টার তল্লাশিতে কাজে লাগানো হচ্ছে কেন্দ্রীয় সংস্থাকে।

[আরও পড়ুন: একই বাড়িতে উদ্ধার তিন প্রজন্মের তিন দেহ! রহস্যমৃত্যু ঘিরে চাঞ্চল্য বরানগরে]

পয়লা বৈশাখের বিকেলে আয়কর দপ্তরের এহেন কাণ্ডে স্বভাবতই তোলপাড় পড়ে গিয়েছে রাজনৈতিক মহলে। দলের জাতীয় মুখপাত্র ডেরেক ও ব্রায়েন (Derek O Brien) থেকে রাজ্যসভার সাংসদ সাকেত গোখলে, তৃণমূল নেতা কুণাল ঘোষ সকলেই কেন্দ্রীয় এজেন্সির এহেন অতিসক্রিয়তার বিরুদ্ধে বিজেপি বিরোধী তোপ দেগেছেন। 

Advertisement

সোমবার নির্বাচনী প্রচারে পূর্ব মেদিনীপুর যাওয়ার কথা অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের। তমলুকে (Tomluk) দলীয় প্রার্থীর হয়ে তাঁর প্রচার করার কথা। সেই কারণেই রবিবার কপ্টারের ট্রায়াল রান চলছিল। তৃণমূল নেতা কুণাল ঘোষের (Kunal Ghosh) অভিযোগ, অভিষেকের সেই  কপ্টার থামিয়ে আয়কর দপ্তরের আধিকারিকরা কপ্টারে ওঠেন। প্রতি ব্যাগ খুলে খুলে তন্নতন্ন করে তল্লাশি চালান। কিন্তু কিছুই পাওয়া যায়নি। এই সময়ে অভিষেকের নিরাপত্তারক্ষীদের সঙ্গে বাকবিতন্ডা হয়। তাঁরা কোনও প্রশ্ন করলে বলা হয়েছে, কপ্টার আটকে রাখা হবে, দেরি করানো হবে। দীর্ঘক্ষণ ধরে কপ্টারটি উড়তে দেওয়া হয়নি।  কিন্তু কিছু না পেয়ে অবশেষে কপ্টার ছাড়া হয়। আয়কর আধিকারিকদের ‘হাল্লা রাজার সেনা’র সঙ্গে তুলনা কুণাল ঘোষ। তাঁর আরও দাবি, বিজেপি হারছে এবং তার জন্য কেন্দ্রীয় সংস্থাগুলোকে দিয়ে হেনস্তা করা হচ্ছে।

[আরও পড়ুন: দুজন নয়, কলকাতায় এসেছিল আরও এক IS জঙ্গি! যত রহস্য তৃতীয়জনকে ঘিরেই]

এনিয়ে ডেরেক ও ব্রায়েন, সাকেত গোখলেরা এক্স হ্যান্ডলে ক্ষোভ উগরে দিয়েছেন। তৃণমূল সূত্রে খবর, এনিয়ে পুলিশ এবং নির্বাচন কমিশনে অভিযোগ জানানো হবে।

Sangbad Pratidin News App

খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ