২৪ চৈত্র  ১৪২৬  মঙ্গলবার ৭ এপ্রিল ২০২০ 

Advertisement

CAA সম্পর্কে কথা বলতে না চাওয়ার জের, তৃণমূল কর্মীর উপর ‘হামলা’ বিজেপির

Published by: Sayani Sen |    Posted: January 24, 2020 11:57 am|    Updated: January 24, 2020 8:46 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: সংশোধিত নাগরিকত্ব আইন সম্পর্কে কথা বলতে না চাওয়ায় এক তৃণমূল কর্মীকে বেধড়ক মারধরের অভিযোগ উঠল বিজেপির বিরুদ্ধে। গেরুয়া শিবিরের কর্মী-সমর্থকরা তাঁর উপর ধারালো অস্ত্র নিয়ে হামলা চালায় বলেও অভিযোগ। গুরুতর আহত অবস্থায় এম আর বাঙ্গুর হাসপাতালে ভরতি আক্রান্ত। বৃহস্পতিবার রাতের এই ঘটনায় থমথমে যোধপুর পার্ক এলাকা। এই ঘটনাকে কেন্দ্র করেই তৃণমূল এবং বিজেপি দু’পক্ষের মধ্যে চলছে অভিযোগ-পালটা অভিযোগের পালা।

নেতাজি সুভাষচন্দ্র বসুর জন্মদিন উপলক্ষে যোধপুর পার্কে বৃহস্পতিবার রাতে অনুষ্ঠান চলছিল। স্ত্রী, সন্তানকে নিয়ে ওই অনুষ্ঠান দেখছিলেন এক তৃণমূল কর্মী। সেই সময় বিজেপি নেতাকর্মীরা বাড়ি বাড়ি ঘুরে সংশোধিত নাগরিকত্ব আইনের সমর্থনে প্রচার করছিল। অনুষ্ঠান দেখতে ব্যস্ত থাকা তৃণমূল কর্মীকেও গেরুয়া শিবিরের নেতাকর্মীরা CAA সম্পর্কে বোঝাতে যান। তবে তৃণমূল কর্মী সাফ জানিয়ে দেন, তিনি এ বিষয়ে তাঁদের কাছ থেকে কিছু শুনতে চান না। পালটা বিজেপি নেতাকর্মীরা তাঁর থেকে পুরো কথায় CAA’কে কী বলে তা জানতে চান। তবে উত্তর দিতে রাজি হননি তৃণমূল কর্মী। তা নিয়ে দু’পক্ষের বাকবিতণ্ডা শুরু হয়। অভিযোগ, বিজেপি নেতাকর্মীরা আচমকাই ওই তৃণমূল কর্মীর উপর হামলা চালায়। ক্ষুর দিয়ে শরীরের একাধিক জায়গায় কোপানো হয় তাঁকে। এরপর এলাকা ছেড়ে বিজেপি নেতাকর্মীরা পালিয়ে যায়। রক্তাক্ত অবস্থায় ওই তৃণমূল কর্মীকে উদ্ধার করে এম আর বাঙ্গুর হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। সেখানেই চিকিৎসা হয় তাঁর।

[আরও পড়ুন: চুলের তেলের বিজ্ঞাপনে ‘জনপ্রতিনিধি’ পরিচয় ব্যবহার, বিতর্কে মিমি]

লেক থানায় ঘটনার অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে। এখনও পর্যন্ত মোট চারজনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। যদিও তৃণমূল কর্মীদের অভিযোগ অস্বীকার করেছে বিজেপি। এই ঘটনা তৃণমূলের গোষ্ঠীসংঘর্ষের ফল বলেই পালটা দাবি গেরুয়া শিবিরের।

Advertisement

Advertisement

Advertisement