BREAKING NEWS

৯ আশ্বিন  ১৪২৭  রবিবার ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

‘বিজেপির জন্য আরও সুখবর অপেক্ষা করছে’, মুনমুন-রিয়াকে সঙ্গে নিয়ে পোস্ট অনুপমের

Published by: Tanujit Das |    Posted: May 29, 2019 11:48 am|    Updated: May 29, 2019 11:48 am

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: সদ্য সমাপ্ত লোকসভা নির্বাচনে যুযুধান দু’পক্ষের হয়ে নির্বাচনী রণক্ষেত্রে অবতরণ করেছিলেন তাঁরা৷ কিন্তু ভোট মিটতেই ধরা পড়ল অন্য ছবি৷ আসানসোলের তৃণমূল প্রার্থী মুনমুন সেন ও তাঁর মেয়ে রিয়া সেনের সঙ্গে সময় কাটালেন যাদবপুরের বিজেপি প্রার্থী অনুপম হাজরা৷ এই পর্যন্ত সব ঠিকই ছিল৷ কিন্তু গোল বাঁধল অনুপম হাজরার একটি ফেসবুক পোস্টকে কেন্দ্র করে৷ যেখানে মুনমুন সেন ও রিয়া সেনের সঙ্গে নিজের আড্ডার ছবি আপলোড করে অনুপম লিখলেন, ‘‘অনেক দিন পরে আমাদের টিপিক্যাল আড্ডা। সঙ্গে মুনমুন দি এবং রিয়া। বিজেপির জন্য আরও সুখবর অপেক্ষা করছে।’’ সম্পূর্ণ পোস্টের শেষ লাইনটাই রাজনৈতিক মহলে নয়া জল্পনার জন্ম দিয়েছে৷ গুঞ্জন শুরু হয়েছে, তবে কি এবার ঘাসফুল ছেড়ে পদ্মফুলে নাম লেখাতে চলেছেন মহানায়িকা সুচিত্রার কন্যা মুনমুন সেন?

[ আরও পড়ুন: রাজীব এড়িয়ে গেলেও সময়ের আগেই সিবিআই দপ্তরে অর্ণব ঘোষ]

যদিও ছবিটি আপলোডের কিছুক্ষণের মধ্যেই তা ডিলিট করে দেন অনুপম হাজরা৷ কিন্তু এরপর আরও চাঞ্চল্যকর একটি পোস্ট ফেসবুকে লেখেন তিনি৷ যাদবপুরের বিজেপি প্রার্থী ফেসবুকে জানান, “তৃণমূলের দু’জন প্রাক্তন সাংসদ, ৭ জন এমএলএ, ৩০ জন কাউন্সিলর এবং টলিউডের ছ’জন সেলেব আগামী এক মাসেই বিজেপিতে নাম লেখাতে চলেছে।” মঙ্গলবারই তৃণমূল ছেড়ে বিজেপিতে যোগ দিয়েছে রাজ্যের তিন বিধায়ক-সহ ৬৩ জন তৃণমূল কাউন্সিলর৷ যার ফলে হালিশহর, নৈহাটি ও কাঁচড়াপাড়া পুরসভার দখল পেয়েছে বিজেপি৷ যা স্বভাবতই ভীত নাড়িয়ে দিয়েছে শাসকদলরে৷ এবং ওই একদিনই বিজেপি নেতার এই দুই পোস্ট রাজনৈতিক মহলে প্রবল জল্পনা তৈরি করেছে৷

[আরও পড়ুন: শহরে অষ্টমবার সফল হৃদযন্ত্র প্রতিস্থাপন, নবজীবন পেলেন দমদমের অনুষা]

যদিও অনেকেই এই পোস্টকে গুরুত্ব দিচ্ছেন না৷ এটাকে অনুপমের পাবলিসিটি স্টান্ট বলেও উড়িয়ে দিয়েছেন তাঁরা৷ তাঁদের মতে, অতীতেও একাধিকবার ফেসবুকে নানান বিতর্কিত পোস্ট দিতে দেখা গিয়েছে প্রাক্তন এই তৃণমূল সাংসদকে৷ এমনকী, শাসকদল ও বীরভূমের তৃণমূল জেলা সভাপতি অনুব্রত মণ্ডলের বিরুদ্ধে ফেসবুকে সরবও হয়েছেন তিনি৷ যে কারণে তৃণমূল থেকে বহিষ্কারও করা হয় তাঁকে৷ কিন্তু নির্বাচন চলাকালীন সেই অনুব্রত মণ্ডলেরই বাড়িতে যান অনুপম হাজরা৷ এবং তাই নিয়েই তুঙ্গে ওঠে চর্চা৷

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement