২২  শ্রাবণ  ১৪২৯  সোমবার ৮ আগস্ট ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

শুভেন্দুকে গ্রেপ্তার করা হোক, সুদীপ্ত সেনকে ‘ব্ল্যাকমেলে’র অভিযোগে সরব তৃণমূল

Published by: Sayani Sen |    Posted: June 24, 2022 6:39 pm|    Updated: June 24, 2022 6:54 pm

'Arrest Suvendu Adhikari', demands TMC leader Kunal Ghosh । Sangbad Pratidin

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ফের বিস্ফোরক সারদাকর্তা সুদীপ্ত সেন। তিনি জানান, ব্ল্যাকমেল করে একাধিকবার টাকা নিয়েছেন শুভেন্দু অধিকারী। সারদাকর্তার বিস্ফোরক মন্তব্যের পরিপ্রেক্ষিতে রাজ্যের বিরোধী দলনেতার গ্রেপ্তারির দাবি জানিয়েছেন তৃণমূলের রাজ্য সাধারণ সম্পাদক কুণাল ঘোষ।

জয়ন্ত বেরা নামে এক সারদা এজেন্ট সুদীপ্ত সেন-সহ পাঁচজনের বিরুদ্ধে হাওড়ার সাঁতরাগাছি থানায় অভিযোগ দায়ের করেন। ওই মামলার শুনানিতে বিধাননগরের এমপি-এমএলএ আদালতে হাজিরা দিতে আসেন সারদাকর্তা। সেই সময় সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে বোমা ফাটালেন সুদীপ্ত সেন (Sudipta Sen)। তিনি বলেন, “শুভেন্দু অধিকারীকে কবে, কোথায়, কত টাকা দিয়েছেন তা বিস্তারিতভাবে জানিয়েছি। কাঁথিতে শুভেন্দু অধিকারীর কথাতেই গিয়েছিলাম। ব্ল্যাকমেল করে অনেক টাকা নিয়েছেন শুভেন্দু।” শুধু আদালত চত্বরে দাঁড়িয়ে বিস্ফোরক দাবি নয়, এর আগে জেল থেকে চিফ মেট্রোপলিটান ম্যাজিস্ট্রেট এবং কলকাতা হাই কোর্টের প্রধান বিচারপতিকে দু’টি চিঠিও দিয়েছেন। রাজ্যের বিরোধী দলনেতা শুভেন্দু অধিকারী কীভাবে, কত টাকা আদায় করেছেন, তা বিস্তারিতভাবে দ্বিতীয় চিঠিতে উল্লেখ করেছেন সারদাকর্তা সুদীপ্ত সেন।

দেখুন ভিডিও:

[আরও পড়ুন: অঙ্কিতার চাকরি পাবেন ববিতাই, দিতে হবে ৪৩ মাসের বেতনও, নির্দেশ হাই কোর্টের]

সারদাকর্তার দাবির পরিপ্রেক্ষিতে শুক্রবার তৃণমূল ভবনে সাংবাদিক বৈঠক করেন রাজ্য সাধারণ সম্পাদক কুণাল ঘোষ এবং বিধায়ক তাপস রায়। শুভেন্দুকে (Suvendu Adhikari) গ্রেপ্তারির দাবি জানিয়ে কুণাল ঘোষ বলেন, “শুভেন্দু অধিকারীকে টাকা দিয়েছেন বলে স্বীকার করেছেন সুদীপ্ত সেন। কেন শুভেন্দুকে গ্রেপ্তার করা হবে না? কেন হেফাজতে নিয়ে তদন্ত করা হবে না?” বিজেপির বিরুদ্ধে আরও একবার সিবিআই ও ইডিকে তৃণমূলের বিরুদ্ধে ব্যবহার করার অভিযোগও তুলেছেন তাঁরা। কুণাল ঘোষের (Kunal Ghosh) দাবি, নিরপেক্ষ তদন্ত হচ্ছে না। তা হলে রাজ্যের বিরোধী দলনেতা শুভেন্দু অধিকারীকে জেরা করা হত। তাঁদের দাবির প্রমাণস্বরূপ সাংবাদিকদের সামনে সুদীপ্ত সেনের সার্টিফায়েড চিঠিও তুলে ধরেন তৃণমূলের রাজ্য সাধারণ সম্পাদক।

রাজ্যপালকেও তোপ দেগেছেন তৃণমূলের রাজ্য সাধারণ সম্পাদক। রাজ্যপাল শুভেন্দু অধিকারীকে বাঁচানোর চেষ্টা করছেন বলেও দাবি তাঁর। সারদাকর্তা সুদীপ্ত সেনের বিস্ফোরক দাবিতে রাজ্যের বিরোধী দলনেতা যে যথেষ্ট চাপে পড়েছেন, সে বিষয়ে কোনও সন্দেহ নেই। 

[আরও পড়ুন: ‘বাংলায় মাথা নিচু করে বাস করছি’, বিস্ফোরক রাজ্যপাল, পালটা জবাব কুণালের]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে