৪ শ্রাবণ  ১৪২৬  শনিবার ২০ জুলাই ২০১৯ 

Menu Logo বিলেতে বিশ্বযুদ্ধ মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক:  বিবাহবিচ্ছেদের মামলা চলছে আলিপুর আদালতে৷ এই সংক্রান্ত অন্য একটি মামলায় কিন্তু জিতে গেলেন মেয়রপত্নী রত্না চট্টোপাধ্যায়৷ কলকাতা হাই কোর্টের নির্দেশ, বিবাহবিচ্ছেদ নয়, আগে খোরপোশ মামলার নিষ্পত্তি করতে হবে আলিপুর আদালতকে৷ তারপর নিম্ম আদালতে শুরু হবে বিবাহবিচ্ছেদের মূল মামলার শুনানি৷

[বিদ্যুতের খরচ কমাতে ‘আলোশ্রী’ প্রকল্পের ঘোষণা মুখ্যমন্ত্রীর]

গত এপ্রিল মাস থেকে মেয়র শোভন চট্টোপাধ্যায়ের সঙ্গে বিবাদ চলছে স্ত্রী রত্নার৷ কখনও বাড়িতে ঢুকতে না দেওয়া, আবার কখনও নজরদারি চালানো৷ একে অপরের বিরুদ্ধে একাধিকবার থানায় অভিযোগ দায়ের করেছেন মেয়র ও তাঁর স্ত্রী৷ তাঁদের বিবাহবিচ্ছেদ মামলা চলছে আলিপুর আদালতে৷ বেহালায় মেয়রের পৈতৃকবাড়িতে ছেলে ও মেয়েকে নিয়ে থাকেন রত্না চট্টোপাধ্যায়৷ স্ত্রী ও সন্তানদের ছেড়ে শোভন চট্টোপাধ্যায় উঠেছেন গোলপার্কের একটি ফ্ল্যাটে৷ গত ২৬ জুন বিবাহবিচ্ছেদ মামলার শুনানিতে আলিপুর আদালতে হাজিরা দিয়েছিলেন মেয়র৷ তাঁর সঙ্গে ছিলেন বান্ধবী বৈশাখি বন্দ্যোপাধ্যায়ও৷ স্বামীর কাছ থেকে খোরপোশ বাবদ মাসে ১৫ লক্ষ চেয়ে আদালতে আবেদন জানিয়েছেন মেয়রপত্নী রত্না চট্টোপাধ্যায়৷ মেয়ের পড়াশোনার জন্য মাসে আরও দেড় লক্ষ টাকা দাবি করেছেন তিনি৷  স্ত্রীর কাছে আবার পালটা টাকার হিসেব  চেয়েছেন মেয়র৷ বিষয়টির এখনও নিস্পত্তি হয়নি৷ অথচ বিবাহবিচ্ছেদের শুনানি চলছে আলিপুর আদালতে৷ আগে বিবাহ বিচ্ছেদের শুনানিতে আপত্তি জানিয়েছিলেন রত্না চট্টোপাধ্যায়ের আইনজীবী৷ তাঁর দাবি ছিল, আগে খোরপোশ সংক্রান্ত মামলাটির আগে নিষ্পত্তি করা হোক৷ তারপর বিবাহবিচ্ছেদ মামলাটি শুনানি হবে৷ কিন্তু, সেই আবেদন খারিজ করে দিয়েছিলেন আলিপুর আদালতে বিচারক৷

আলিপুর আদালতের রায়কে চ্যালেঞ্জ করে কলকাতা হাই কোর্টে পালটা মামলা করেন মেয়রের স্ত্রী রত্না চট্টোপাধ্যায়৷ তাঁর আবেদন মঞ্জুর করেছে রাজ্যের সর্বোচ্চ আদালত৷ বিচারপতি সঞ্জীব বন্দ্যোপাধ্যায় নির্দেশ, আগামী ২ মাসের মধ্যে খোরপোশ সংক্রান্ত মামলাটির নিষ্পত্তি করতে হবে আলিপুর আদালতকে৷ তারপর শুরু হবে বিবাহবিচ্ছেদের মূল মামলাটির শুনানি৷

[ এবার লঞ্চে বসেই জানা যাবে ট্রেন-বাসের সময়, উদ্যোগ পরিবহণ দপ্তরের]

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং