BREAKING NEWS

৯ আশ্বিন  ১৪২৭  রবিবার ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

শিক্ষাব্যবস্থা নিয়ে ফের উপাচার্যদের সঙ্গে বৈঠক চান রাজ্যপাল, চিঠি দিলেন সুরঞ্জন দাসকে

Published by: Sucheta Sengupta |    Posted: August 18, 2020 1:09 pm|    Updated: August 18, 2020 1:36 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: আগেরবার তাঁর আহ্বানে সাড়া দেননি প্রায় কেউই। রাজ্যের বিশ্ববিদ্যালয়গুলির আচার্য  হিসেবে আগেরবার তাঁর আহ্বানে সাড়া দেননি প্রায় কেউই। রাজ্যের বিশ্ববিদ্যালয়গুলির আচার্য হিসেবে উপাচার্যদের থেকে এমন অসম্মান তিনি প্রত্যাশা করেননি। নতুন করে উপাচার্যদের সঙ্গে বৈঠকে বসতে চেয়ে উপাচার্য সংগঠনকে লেখা চিঠিতে সেই অপমানের কথা উল্লেখ করতে ভুললেন না আচার্য তথা রাজ্যপাল জগদীপ ধনকড় (Jagdeep Dhankhar)। ফের তাঁদের আলোচনার টেবিলে ডেকে চিঠি পাঠালেন যাদবপুর বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য তথা সংগঠনের সভাপতি সুরঞ্জন দাশকে।

রাজ্যের শিক্ষাক্ষেত্রে অব্যবস্থা এবং শাসকদল নিয়ন্ত্রিত, অভিযোগ তুলে মাস কয়েক আগে একবার বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্যদের আলোচনার টেবিলে ডেকেছিলেন আচার্য জগদীপ ধনকড়। কিন্তু সাড়া পাননি। প্রায় কোনও বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্যই রাজভবনমুখী হননি। তাতে বেশ অপমানিত বোধ করেছিলেন রাজ্যপাল।

[আরও পড়ুন: ‘ভয়কে জয় করুন’, কোভিড যুদ্ধে সাহস জোগাতে কাজে নেমে বার্তা করোনাজয়ীদের]

তবে এবার তাঁর অভিযোগ একটু অন্য। পশ্চিমবঙ্গ উপাচার্য সংগঠনের (WBVCC)সাম্প্রতিক কাজকর্ম তাঁর মোটেই সন্তোষজনক মনে হচ্ছে না। রাজ্যপালের পদকে অসম্মান করার মতো অজস্র ছোটখাটো কারণ তৈরি হচ্ছে। সেই অসন্তোষের কথা তিনি টুইট করে জানিয়েছেন। টুইটারে তুলে দিয়েছেন উপাচার্য সংগঠনের সভাপতি সুরঞ্জন দাশকে লেখা তাঁর চিঠিও। সেই চিঠিতে নিজের মনোভাবও স্পষ্ট করে প্রকাশ করেছেন ধনকড়।

[আরও পড়ুন: হাতে সিরিঞ্জ-কম্বল নিয়ে SSKM থেকে উধাও করোনা রোগী, ধরা পড়ল সিসিটিভি ফুটেজে]

আগামী ১৪ দিনের মধ্যে বৈঠকে সব উপাচার্যের উপস্থিতি তিনি প্রত্যাশা করেন বলে জানিয়েছেন। তবে এ বিষয়ে যাদবপুরের উপাচার্য তথা উপাচার্য সংগঠনের সভাপতি সুরঞ্জন দাশের কোনও প্রতিক্রিয়া পাওয়া যায়নি।

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement