১৪  আশ্বিন  ১৪২৯  সোমবার ৩ অক্টোবর ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

মেয়ের বান্ধবীকে ধর্ষণ করে অ্যাসিড, সিপিএম নেতার যাবজ্জীবন

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: September 29, 2016 10:13 am|    Updated: September 29, 2016 10:13 am

CPM leader gets life term for rape and acid attack

ছবিটি প্রতীকী

স্টাফ রিপোর্টার, বারাসত: মেয়ের বান্ধবীকে অ্যাসিড হামলা ও ধর্ষণে এক সিপিএম নেতাকে যাবজ্জীবন কারাদণ্ডের নির্দেশ দিল আদালত৷ অভিযুক্ত জামালুদ্দিন মল্লিক উত্তর ২৪ পরগনার বীরামল্লিকপাড়ার ডাকসাইটে সিপিএম নেতা৷ বারাসতের প্রথম ফার্স্ট ট্র্যাক কোর্টের বিচারক শ্রীময়ী কুন্ডু মঙ্গলবার অভিযুক্তকে দোষী সাব্যস্ত করেন৷ বুধবার শাস্তি ঘোষণা করেন৷ আদালতের সরকারি আইনজীবী বিপ্লব রায় এদিন জানান, অন্তত ২১ জন সাক্ষীর বয়ান ও সমস্ত তথ্য-প্রমাণ খতিয়ে দেখে আদালত এই শাস্তি ঘোষণা করেছে৷

২০১০ সালের ৩০ নভেম্বর জামালুদ্দিন মল্লিকের নামে ওই সিপিএম নেতা মছলন্দপুর স্টেশনের কাছে এক কলেজ ছাত্রীর উপর অ্যাসিড দিয়ে হামলা চালায়৷ অ্যাসিডে ওই ছাত্রীর মুখের ডান দিক ও ডান কাঁধ গলা ও মুখ জখম হয়৷ তবে ওই সিপিএম নেতার এতটাই প্রভাব যে, এই নিয়ে থানায় অভিযোগ জানানো তো দূরে থাক, এলাকাতেও কোনও কথা বলতে পারেননি ওই নির্যাতিতার পরিবার৷

তবে এরমধ্যেই ২০১১ সালের ২৪ ডিসেম্বর চিকিৎসার টোপ দিয়ে ওই নির্যাতিতা তাঁর মা ও বোনকে গাড়িতে করে দিঘায় নিয়ে যায় ওই সিপিএম নেতা৷ দিঘায় দু’দিন থাকার পর ফেরার পথে আমডাঙা কাছারি মোডের কাছে নির্যাতিতা ও তাঁর বোনকে গাড়ি থেকে ধাক্কা দিয়ে ফেলে দেয় ওই সিপিএম নেতা৷ এরপরই শুরু হয় নতুন অত্যাচার৷ উত্তর ২৪ পরগনার ঘোলায়  ‘রীতা অ্যার্পাটমেন্ট’ নামে একটি ফ্ল্যাটে ওই নির্যাতিতাকে বন্দি করে রেখে টানা এক বছর ধরে পাশবিক অত্যাচার ও ধর্ষণ  করা হয়৷

সূত্রের খবর, ওই ফ্ল্যাটেই থাকত সেই সিপিএম নেতা৷ স্থানীয় সূত্রে খবর পেয়ে পরে পুলিশ মেয়েটিকে উদ্ধার করে গ্রেফতার করে ওই ব্যক্তিকে৷ আদালতে ওই নির্যাতিতার মা জানিয়েছেন, আইসিডিএস প্রকল্পে কাজ পাইয়ে দেওয়ার সুবাদে ওই মহিলাকেও ধর্ষণ করেছিল জামালুদ্দিন৷ মেয়েটির বিয়ে ঠিক হয়ে গিয়েছিল৷ তা জানতে পেরেই এমন পাশবিক অত্যাচার চালায় ওই ব্যক্তি৷

সরকারি আইনজীবী বিপ্লব রায় জানিয়েছেন, ভারতীয় দণ্ডবিধির একাধিক ধারায় যাবজ্জীবন কারাদণ্ড ও  ৫০ হাজার টাকা জরিমানা আনাদায়ে অতিরিক্ত দশ বছরের জেল হয়েছে জামালুদ্দিনের৷ স্থানীয় প্রাক্তন সিপিএম বিধায়ক সত্যসেবী করের কথায়, স্থানীয় লোকাল কমিটির সদস্য ছিলেন ওই ব্যক্তি৷ তবে জামালুদ্দিন যে ধর্ষণ ও অ্যাসিড হামলার সঙ্গে যুক্ত সে সম্পর্কে তিনি কোনও মন্তব্য করতে চাননি৷

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে