১৩ অগ্রহায়ণ  ১৪২৮  মঙ্গলবার ৩০ নভেম্বর ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

NRS-এর হোমগার্ডকে চড় বিজেপি নেতার, ‘বেশ করেছেন’, পাশে দাঁড়িয়ে বললেন Dilip Ghosh

Published by: Tiyasha Sarkar |    Posted: September 9, 2021 3:03 pm|    Updated: September 9, 2021 3:56 pm

Dilip Ghosh stands by BJP worker who assaulted cop at NRS Hospital

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: বিজেপি কর্মী অভিজিৎ সরকারের (Abhijit Sarkar) দেহ হস্তান্তরকে কেন্দ্র করে বৃহস্পতিবার সকালে উত্তপ্ত হয়ে উঠেছিল এনআরএস হাসপাতাল। হোমগার্ডকে চড় মেরেছিলেন বিজেপি নেতা দেবদত্ত মাজি। সেই প্রসঙ্গেই এবার মুখ খুললেন রাজ্য বিজেপির সভাপতি (Dilip Ghosh)। পাশে দাঁড়ালেন বিজেপি নেতার। পালটা দিলেন তৃণমূলের মুখপাত্র কুণাল ঘোষ (Kunal Ghosh)।

রাজ্য বিজেপির সভাপতি তথা মেদিনীপুরের সাংসদের কথায়, “যদি চড় মেরে থাকেন, ঠিক করেছেন। একজন হোমগার্ড কীভাবে এরকম আচরণ করতে পারেন। বিজেপি নেতা ঠিক কাজ করেছেন। সরকারের গালে চড় মারা উচিত।” বিজেপি নেতা দেবদত্ত মাজির আচরণের তীব্র নিন্দা করেছেন তৃণমূল নেতা কুণাল ঘোষ। তিনি বলেন, “একজন হোমগার্ড তাঁর দায়িত্ব পালন করেছেন। কেন তাঁকে মার খেতে হবে। অকারণ অশান্তি করছে বিজেপি। অভিযুক্তের শাস্তি হওয়া প্রয়োজন।” যদিও উত্তেজনার বশে কী করেছেন, তা মনে নেই বলেই দাবি করেছেন অভিযুক্ত বিজেপি নেতা।

[আরও পড়ুন: WB Primary TET: ২০১৪ সালের প্রাথমিক টেট নিয়ে অসন্তোষ, নিয়োগের তথ্য তলব কলকাতা হাই কোর্টের]

গত ২ মে বিধানসভা নির্বাচনের ফলপ্রকাশ হয়। ঠিক তারপরই কাঁকুড়গাছির বিজেপি কর্মীকে নৃশংস অত্যাচার করে খুন করা হয় বলে অভিযোগ। সেই ঘটনার জল গড়ায় কলকাতা হাই কোর্টে (Calcutta High Court)। হাই কোর্টের নির্দেশ অনুযায়ী বৃহস্পতিবার বিজেপি কর্মীর দেহ পরিবারের হাতে হস্তান্তরের কথা ছিল। সকালে এনআরএস হাসপাতালের (NRS Medical College & Hospital) সামনে ভিড় জমান বিজেপি নেতা-কর্মীরা। অভিযোগ, দেহ হস্তান্তরে দেরি করা হয়। তার ফলে মেজাজ হারান বিজেপি নেতা দেবদত্ত মাজি। চড় মারেন হোম গার্ডকে। ঘটনাকে কেন্দ্র করে তীব্র উত্তেজনা ছড়ায় হাসপাতাল চত্বরে। দীর্ঘক্ষণ পর নিয়ন্ত্রণে আসে পরিস্থিতি। সেই ঘটনা নিয়ে মন্তব্য করেই ফের বিতর্কে জড়ালেন দিলীপ ঘোষ (Dilip Ghosh)।

[আরও পড়ুন: রাজ্যের ৬১ জন BJP বিধায়কের নিরাপত্তা প্রত্যাহার করছে কেন্দ্র! নবান্নকে চিঠি স্বরাষ্ট্রমন্ত্রকের]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে