৩ মাঘ  ১৪২৮  সোমবার ১৭ জানুয়ারি ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

বাগরি মার্কেটে অগ্নিকাণ্ড: সোমবার নবান্নে মন্ত্রী-আমলাদের জরুরি বৈঠক

Published by: Kumaresh Halder |    Posted: September 16, 2018 9:11 pm|    Updated: September 16, 2018 9:11 pm

Emergency meetings in the absence of Chief Minister Mamata Banerjee

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: বাগরি মার্কেটে অগ্নিকাণ্ডের পরবর্তী পরিস্থিতি নিয়ে সোমবার নবান্নে জরুরি বৈঠকে বসছে ‘ক্রাইসিস ম্যানেজমেন্ট টিম’৷ সোমবার মুখ্যমন্ত্রীর অনুপস্থিতিতে নবান্নে শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায়ের নেতৃত্বে ‘ক্রাইসিস ম্যানেজমেন্ট টিমে’র দায়িত্বে থাকা রাজ্য মন্ত্রিসভার ১১ জন সদস্য এই বৈঠকে অংশ নেবেন৷ বৈঠকে থাকবেন কলকাতা পুরসভা ও দমকলের আধিকারিকরা৷ নবান্ন সূত্রে খবর, ওই বৈঠকেই আগুন লাগার কারণ জানতে পুরসভা ও দমকলের তরফে রিপোর্টও পেশ করা হবে৷ রিপোর্ট খতিয়ে দেখে গোটা ঘটনার তদন্ত শুরু করবে পুলিশ৷ বাগরি মার্কেটে অগ্নিকাণ্ডের পিছনে অন্য কোনও কারণ রয়েছে কি না তাও জানতে খতিয়ে দেখা হবে বলে নবান্ন সূত্রে খবর৷

[বাগরি মার্কেটে অগ্নিকাণ্ডে ষড়যন্ত্রের গন্ধ পাচ্ছেন দিলীপ ঘোষ]

নবান্নের তরফে জরুরি বৈঠক ডেকে পরিস্থিতি মোকাবিলা করার উদ্যোগ নেওয়া হলেও অগ্নিকাণ্ডের ঘোলা জলে মাছ ধরতে ইতিমধ্যেই মাঠে নেমে পড়েছে বিজেপি৷ ঘটনার পিছনে ষড়যন্ত্রের গন্ধও পেতে শুরু করেছে রাজ্য বিজেপির সভাপতি দিলীপ ঘোষ৷ রবিবার সংবাদমাধ্যমে দিলীপ ঘোষ দাবি করেন, শহরের পুরনো বাজারগুলিতে অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা নতুন নয়৷ বেশিভাগ ক্ষেত্রে ইচ্ছা করে আগুন লাগিয়ে দেওয়া হয়৷ বাজারগুলিভাবে সঠিক রক্ষণাবেক্ষণ হয় না৷ ফলে দ্রুত আগুন ছড়িয়ে পড়ে৷ মানুষ সর্বস্বান্ত হন৷ বাগরি মার্কেটের সংস্কার নিয়ে মূল মালিক ও প্রমোটারের সঙ্গে বিবাদ গড়িয়েছে সুপ্রিম কোর্টে৷ গত সপ্তাহেও মামলার শুনানি ছিল বলে জানিয়েছেন বাসিন্দারা৷ ব্যবসায়ীদের আশঙ্কা, মালিক-প্রমোটার বিবাদের জেরেই ঘটনা ঘটে থাকতে পারে৷

[তীব্র ধোঁয়ায় ঢেকেছে বাগরি মার্কেট এলাকা, শ্বাসকষ্টে ভুগছেন স্থানীয়রা]

তবে, গোটা ঘটনার পিছনে চক্রান্তের অভিযোগ এখনই উড়িয়ে দিতে পারছে না পুলিশ৷ মার্কেটের অগ্নিসুরক্ষা ব্যবস্থা কেমন ছিল, জ্বলনশীল বস্তু কেন বেশি মাত্রায় মজুত ছিল তা জানতে ইতিমধ্যেই তদন্ত শুরু করেছে পুলিশ৷ অগ্নিকাণ্ডের ১৮ ঘণ্টার পার হয়ে গেলেও পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে না আসায় ইতিমধ্যেই দমকলের পরিকাঠামোগত সমস্যাকেই দায়ী করতে শুরু করেছেন সব হারিয়ে পথে বসা ব্যবসায়ীরা৷ শেষ পাওয়া খবর অনুযায়ী, রবিবার রাত ন’টা পর্যন্ত আগুন নিয়ন্ত্রণে আসেনি৷ বরং বাগরি মার্কেটের ছ’তলায় ফের নতুন করে আগুন ছড়িয়ে পড়েছে৷ এমনকী, মাঝেমধ্যেই বিস্ফোরণের শব্দ শোনা যাচ্ছে বলে দাবি করেছেন স্থানীয় বাসিন্দারা৷ আতঙ্কে জিনিসপত্র নিয়ে অন্যত্র চলে যাচ্ছেন বাগরি মার্কেট লাগোয়া এলাকার ব্যবসায়ীরা৷ মূলত, পরিস্থিতি সামাল দিতে সোমবার মুখ্যমন্ত্রীর অনুপস্থিতিতে নবান্নে গুরুত্বপূর্ণ বৈঠকের দিকে তাকিয়ে রয়েছেন পুজোর মুখে সর্বস্বান্ত হওয়া শ’চারেক ব্যবসায়ী৷ তাঁদের আশা, সরকার নিশ্চয়ই তাঁদের পাশে দাঁড়াবে৷

বিধ্বংসী আগুন কলকাতার বাগরি মার্কেটে, বিপুল ক্ষয়ক্ষতি ব্যবসায়ীদের

 

ছবি: অরিজিৎ সাহা৷ 

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে