৮ মাঘ  ১৪২৬  বুধবার ২২ জানুয়ারি ২০২০ 

BREAKING NEWS

Menu Logo মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও বাঁকা কথা ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

৮ মাঘ  ১৪২৬  বুধবার ২২ জানুয়ারি ২০২০ 

BREAKING NEWS

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ফের কুকুরছানা নিধনের ঘটনা ঘটল শহরে। এবার পাঁচটি সারমেয় শাবককে বিষ খাইয়ে মেরে ফেলার অভিযোগে উত্তপ্ত হয়ে উঠল যাদবপুর এলাকা। স্থানীয়দের নজরে পড়তেই খবর দেওয়া হয় যাদবপুর থানায়। শুরু হয়েছে তদন্ত।

জানা গিয়েছে, মঙ্গলবার সন্ধেবেলা যাদবপুরের ঘোষপাড়ার বাসিন্দা পার্থ ঘোষ নামে এক ব্যক্তির নজরে পড়ে যে, একটি সারমেয় শাবক অসুস্থ অবস্থায় রাস্তায় পড়ে রয়েছে। সেটিকে দেখতে পেয়ে তার কাছে যেতেই তিনি দেখেন যে আরও চারটি কুকুর ছানা অসুস্থ অবস্থায় সেখানে পড়ে রয়েছে। এরপরই গোটা বিষয়টি তিনি এলাকার বাসিন্দাদের জানান। খবর দেওয়া হয় যাদবপুর থানায়। ততক্ষণে মৃত্যু হয়েছে সারমেয় শাবকগুলির। এরপর যাদবপুর থানার পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে মৃত কুকুরছানাগুলিকে উদ্ধার করে বেলগাছিয়া পশু হাসপাতালে নিয়ে যায়। সেখানেই ময়নাতদন্ত করা হবে।

[আরও পড়ুন: ফাঁকা কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয়ে রাজ্যপাল, অভ্যর্থনা তো দূর মিলল না বসার চেয়ারও]

এলাকার বাসিন্দাদের কথায়, যে জায়গা থেকে কুকুর শাবকগুলিকে উদ্ধার করা হয়েছিল, সেখান থেকে মিলেছে ভাত। সেই কারণেই তাঁদের অনুমান, পরিকল্পনামাফিক কুকুরছানাগুলিকে হত্যা করার উদ্দেশ্যেই খাবারের সঙ্গে বিষ মিশিয়ে দেওয়া হয়েছিল। সেই খাবার খাওয়ার ফলেই এই পরিণতি। ঘটনা পরের দিন অর্থাৎ বুধবার ফের একই জায়গা থেকে আরও একটি মৃত কুকুরছানা উদ্ধার হয়েছে। যাদবপুর থানা সূত্রে খবর, ইতিমধ্যেই এই ঘটনায় ৪২৮ ধারায় অজ্ঞাত পরিচয় ব্যক্তির বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করা হয়েছে। শুরু হয়েছে তদন্তও। তবে আদৌ বিষক্রিয়ার ফলেই এই ঘটনা কি না স্পষ্ট হবে ময়নাতদন্তে রিপোর্ট হাতে আসার পরই, জানিয়েছেন তদন্তকারীরা। প্রসঙ্গত, চলতি বছরের শুরুতেই এনআরএস হাসপাতালে কুকুরছানা পিটিয়ে খুনের ঘটনায় উত্তপ্ত হয়েছে উঠেছিল গোটা রাজ্য। সেই ঘটনার পরও রাজ্যের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে এহেন ঘটনার ছবি প্রকাশ্যে এসেছে। কিছুদিন আগে বাঁশদ্রোণী এলাকায় ইলেকট্রিক শক দিয়ে ছটি কুকুরছানা হত্যার ঘটনা ঘটে। তারপর ফের একই ঘটনার পুনরাবৃত্তি যাদবপুরে।

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং