BREAKING NEWS

৪ আশ্বিন  ১৪২৭  মঙ্গলবার ২২ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

রক্ষকই ভক্ষক! এবার মেট্রোকর্মীর হাতে হেনস্তার শিকার মহিলা সাংবাদিক

Published by: Paramita Paul |    Posted: March 12, 2020 8:14 pm|    Updated: March 13, 2020 9:54 am

An Images

শুভময় মণ্ডল: ফের মেট্রোয় হেনস্তার শিকার এক তরুণী। এবার রক্ষকই ভক্ষক। মেট্রো স্টেশনের এক কর্মীর হাতেই হেনস্তার হলেন এক মহিলা সাংবাদিক। অভিযোগ, টালিগঞ্জ মেট্রো স্টেশনের টিকিট কাউন্টারের এক কর্মী ওই তরুণীর সঙ্গে নিয়মিত দুর্ব্যবহার করতেন। এমনকী তাকে অশালীন আকার ইঙ্গিত করতেন বলেও অভিযোগ করা হয়েছে। তবে বৃহস্পতিবার তিনি আরও এক কীর্তি ঘটান। মহিলা সংবাদিক পিংকি অধিকারিকে ভুল টিকিট দেন বলে অভিযোগ। ফলে ময়দান স্টেশনে আটকে যান ওই তরুণী। এরপরই তিনি স্টেশন মাস্টারকে গোটা ঘটনার কথা জানান এবং লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন। সোশ্যাল মিডিয়াতেও ক্ষোভ উগড়ে দেন ওই তরুণী। তাঁর কথায়, মেট্রো কর্তৃপক্ষের গাছাড়া মনোভাবের জন্যই এ ধরণের ঘটনা ঘটছে। তাই মেট্রে কর্তৃপক্ষকে আরও দায়িত্বশীল হওয়ার জানিয়েছেন তিনি।

তরুণী সাংবাদিক পিংকি অধিকারি সোশ্যাল মিডিয়ায় অভিযোগ করে লেখেন, “মেট্রোকর্মীর হাতেই চূড়ান্ত হেনস্তা, এমনকি প্রায়ই অসভ্য ইঙ্গিত পাওয়ার পরও চুপ করে থাকতাম। অনেকদিন আগেই ওঁকে শায়েস্তা করা উচিত ছিল। তাহলে আজ এই বাঁদরামোটা করার সাহস পেতেন না।” অভিযুক্ত মেট্রো কর্মী টালিগঞ্জ স্টেশনে কর্মরত। পিংকি জানান, “টালিগঞ্জ স্টেশনের এই কর্মী টিকিট কাটার সময় অনেক আকারে ইঙ্গিতে এমনকি হাত ধরেও এমন কিছু ব্যবহার করেছেন যেগুলো ঠিক স্বাভাবিক নয়। এর আগেও যদিও মুখে সাবধান করেছিলাম ওনাকে। কিন্তু কাজ হয়নি। আজও একই ব্যাপার উনি ঘটান।” এরপরই ওই কর্মী পিংকিকে আরও বিপদে ফেলেন বলে অভিযোগ। এ নিয়ে সোশ্যাল মিডিয়ায় পিংকি লেখেন, “আমি টালিগঞ্জ থেকে ময়দান স্টেশন অবধি যাই। ভাড়া ১৫ টাকা। কিন্তু যে টোকেন উনি দেন, ওটা ছিল ৫ টাকার। ফলে আমি  ময়দানে আটকে যাই। সেখানে আমাকে জরিমানা দিতে বলা হয়। আমি সাফ জানাই, জরিমানা দেব না, আপনারা তদন্ত করুন আগে৷ এরপর ময়দানের স্টেশন মাষ্টার টালিগঞ্জে মেট্রো স্টেশন মাস্টাররকে ফোন করে জানতে পারেন ওখানে টোকেনের চেয়ে ১০ টাকা নগদ বেশি রয়েছে।”

[আরও পড়ুন : ইস্টবেঙ্গল নিয়ে বিতর্কিত পোস্ট বিজেপির? দিলীপ বললেন,’ওটা পিকের ষড়যন্ত্র’]

এরপর পিংকি টালিগঞ্জ স্টেশনে ফিরে আসেন। সেই তরুণীর দাবি, “সেখানকার স্টেশন মাস্টার আমাকে জানান ওর ব্যাপারে আগেও অভিযোগ তাঁরা পেয়েছেন। এমনকি স্টেশনে এসে যখন আমি ওর সাথে তর্কাতর্কি চলছে সেই সময়ে আরও অনেকে এগিয়ে এসে জানান, এরকম আগেও অনেক মহিলাকে হেনস্থা করেছে।” যদিও স্টেশন মাস্টার এবং সেই কর্মীর অনুরোধে পুলিশ স্টেশনে এবং আরপিএফের কাছে লিখিত অভিযোগে যৌন হেনস্থার ব্যাপারে লেখেননি পিংকি।

[আরও পড়ুন :কুপ্রস্তাবে সাড়া না দেওয়ায় ছাত্রীর ভুয়ে প্রোফাইল খুলে তোলাবাজি, গ্রেপ্তার মাধ্যমিক পরীক্ষার্থী]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement