১২ জ্যৈষ্ঠ  ১৪২৯  শনিবার ২৮ মে ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

ট্যাবলো বিতর্কের মাঝে কেন্দ্রকে ‘জবাব’ দিতে নেতাজি স্মরণে বিশেষ ট্রামের উদ্বোধন মদন মিত্রর

Published by: Sayani Sen |    Posted: January 22, 2022 3:00 pm|    Updated: January 22, 2022 3:09 pm

Madan Mitra inaugurates a special tram before Netaji Subhash Chandra Basu's birth anniversary । Sangbad Pratidin

নব্যেন্দু হাজরা: ট্যাবলো বিতর্কের মাঝেই নেতাজি সুভাষচন্দ্র বসুকে শ্রদ্ধা জানাতে বিশেষ উদ্যোগ রাজ্য সরকারের। গড়িয়াহাটে বিশেষ ট্রামের উদ্বোধন করলেন রাজ্য পরিবহণ নিগমের চেয়ারম্যান মদন মিত্র (Madan Mitra)। শনিবার উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে কেন্দ্রকে তোপও দাগলেন তিনি। কেন্দ্রকে ‘জবাব’ দিতেই রাজ্যের এই উদ্যোগ বলেই দাবি তাঁর।

শনিবার গড়িয়াহাটে ‘বলাকা’ নামের ওই ট্রামের উদ্বোধন করেন মদন মিত্র। দেশকে স্বাধীন করার ক্ষেত্রে নেতাজি সুভাষচন্দ্র বসুর অবদান ঠিক কতখানি, তা ট্রামের সাজসজ্জার মাধ্যমেই তুলে ধরা হয়। ট্রামে রয়েছে নেতাজি সম্পর্কিত নানা ধরনের বই ও ছবি। আগামিকাল অর্থাৎ রবিবার থেকে আগামী ২৬ জানুয়ারি পর্যন্ত শ্যামবাজারের পাঁচ মাথা মোড়ে রাখা থাকবে ট্রামটি। এরপর ২৭ থেকে ৩১ জানুয়ারি পর্যন্ত ট্রামটি থাকবে এসপ্ল্যানেডে। নিখরচেই ট্রামটি ঘুরে দেখতে পারবেন সকলেই। 

[আরও পড়ুন: সামান্য নিম্নমুখী দেশের কোভিড গ্রাফ, ওমিক্রন আক্রান্তের সংখ্যা পেরল ১০ হাজার]

উল্লেখ্য, এবার সাধারণতন্ত্র দিবসের থিম, “আজাদি কা অমৃত মহোৎসব।” স্বাধীনতার ৭৫ বছর উপলক্ষে এই থিম কেন্দ্রের। আর এদিকে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় সরকারের ফোকাস ছিল নেতাজি। কারণ, এবার সুভাষচন্দ্র বসুর ১২৫ তম জন্মবার্ষিকী। নেতাজি সুভাষচন্দ্র বসুর জীবন ও স্বাধীনতা সংগ্রাম নিয়ে তৈরি পশ্চিমবঙ্গের ট্যাবলো বাতিল করেছে কেন্দ্রীয় সরকার। এরপরই দেশজুড়ে তৈরি হয়েছে বিতর্ক। এই প্রসঙ্গেও এদিন মুখ খোলেন মদন মিত্র। তিনি বলেন, কেন্দ্রের এহেন আচরণের পালটা ‘জবাব’ দিতেই ট্রামের উদ্বোধন। নেতাজির আদর্শকে পাথেয় করে চলা বাংলা যে কোনওভাবেই মাথানত করবে না, তা-ও এদিন জানান মদন মিত্র। 

তবে এদিন ট্রাম উদ্বোধনে মদন মিত্র ছিলেন স্বমেজাজেই। ট্রামের ভিতরে ঘোরাফেরা করেন তিনি। উপস্থিত প্রায় সকলের হাতে তুলে দেন লজেন্স। তাঁর একটাই আরজি, “সকলে বলাকা ট্রাম ঘুরে আসুন। কোভিডবিধি মেনে স্কুলপড়ুয়ারা অবশ্যই একবার বলাকা ট্রাম ঘুরে দেখুক।” স্কুলপড়ুয়াদের ট্রাম দেখতে আসার জন্য প্রয়োজনে গাড়ির বন্দোবস্ত করার ক্ষেত্রে পরিবহণ দপ্তর উদ্যোগ নিতে পারে বলেও জানান তিনি।

[আরও পড়ুন: রাজ্যের দ্বিতীয় বৃহত্তম বিমানবন্দর তৈরিতে উদ্যোগী নবান্ন, কলকাতার আশপাশে শুরু জমির খোঁজ]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে