BREAKING NEWS

১২ ফাল্গুন  ১৪২৭  বৃহস্পতিবার ২৫ ফেব্রুয়ারি ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

সাতসকালে বিধ্বংসী অগ্নিকাণ্ড কলকাতায়, পুড়ে ছাই গ্যারাজ ও সংলগ্ন বেশ কয়েকটি ঘর

Published by: Tiyasha Sarkar |    Posted: January 26, 2021 8:47 am|    Updated: January 26, 2021 8:48 am

An Images

অর্ণব আইচ: সাধারণতন্দ্র দিবসের ভোরে বিধ্বংসী অগ্নিকাণ্ড কলকাতায় (Kolkata)। এবার আগুনের গ্রাসে কড়েয়া থানা এলাকার একটি গ্যারাজ। ব্যাপক ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে গ্যারাজ সংলগ্ন আট-দশটি ঘর। দমকলের ৪টি ইঞ্জিনের দীর্ঘক্ষণের চেষ্টায় আয়ত্তে এসেছে পরিস্থিতি।

জানা গিয়েছে, মঙ্গলবার ভোর সাড়ে পাঁচটা নাগাদ কালো ধোঁয়ায় ঢেকে যায় কড়েয়ার গুরুসদয় রোডের একাংশ। বিষয়টি স্থানীয়দের নজরে পড়তেই তাঁরা দেখেন দাউদাউ করে জ্বলছে সেখানকার একটি গ্যারাজ। তড়িঘড়ি স্থানীয়রা খবর দেয় দমকলে। তবে দমকলের ইঞ্জিন ঘটনাস্থলে পৌঁছনোর আগেই পুড়ে ছাই হয়ে যায় গ্যারাজ। আগুন ছড়িয়ে পড়ে সংলগ্ন বেশ কয়েকটি ঘরেও। এরপর দমকলের ৪ টি ইঞ্জিন ঘটনাস্থলে গেলে ক্ষোভে ফেটে পড়েন স্থানীয়রা। উত্তেজিত জনতাকে শান্ত করে আগুন নিয়ন্ত্রণের কাজ শুরু করেন দমকলের আধিকারিকরা। দীর্ঘক্ষণের চেষ্টায় নিয়ন্ত্রণে আসে পরিস্থিতি। জানা গিয়েছে, ব্যাপক ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে ঘরগুলি। ফলে সাধারণতন্দ্র দিবসের সকালে গৃহহীন বেশ কয়েকটি পরিবার। তবে এখনও পর্যন্ত হতাহতের কোনও খবর মেলেনি। দমকলের আধিকারিকরা জানিয়েছেন, কী থেকে অগ্নিকাণ্ড তা আগুন পুরোপুরি নেভার পরই বলা যাবে। সেইসঙ্গে খতিয়ে দেখা হবে ওই গ্যারাজে অগ্নিনির্বাপন ব্যবস্থা ছিল কি না।

[আরও পড়ুন: মুম্বই, দিল্লি, রাজস্থানে ধারাবাহিক বিস্ফোরণের ছক কষেছিল লস্কর জঙ্গিরা, আদালতে দাবি NIA’র]

উল্লেখ্য, সোমবার সকালে নারকেলডাঙার ছাগলপট্টির ঝুপড়িতে আগুন (Fire) লেগেছিল। ঘিঞ্জি এলাকা হওয়ায় আগুন দ্রুত ছড়িয়ে পড়তে থাকে। একেবারে থানার উলটোদিকে ঘটনাটি ঘটায়, দ্রুত ঘটনাস্থলে যান পুলিশ আধিকারিকরা। এরপরই খবর দেওয়া হয় দমকলে। ঘটনাস্থলে যায় দমকলের পাঁচটি ইঞ্জিন। শুরু করে আগুণ নিয়ন্ত্রণে আনার কাজ। দীর্ঘক্ষণের চেষ্টায় আয়ত্তে আসে পরিস্থিতি। সেই ঘটনার ২৪ ঘণ্টার মধ্যেই ফের আগুনের গ্রাসে কলকাতার আরও এক বসতি।

[আরও পড়ুন: রিকশা চালককে জেরা করে মিলল তথ্য, ২৪ ঘণ্টার মধ্যেই কালীঘাটে পোড়া নোট কাণ্ডের রহস্যভেদ]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement