BREAKING NEWS

১৭  আষাঢ়  ১৪২৯  শনিবার ২ জুলাই ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

সব জল্পনার অবসান, বিধাননগরের নয়া মেয়র হচ্ছেন কৃষ্ণা চক্রবর্তী

Published by: Soumya Mukherjee |    Posted: July 30, 2019 7:34 pm|    Updated: July 30, 2019 7:35 pm

Krishna Chakraborty name announced for saltlake corporation mayor post

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: অবশেষে অবসান হল সব জল্পনার। বিধাননগরের পরবর্তী মেয়র হিসেবে দীর্ঘদিনের ছায়াসঙ্গী কৃষ্ণা চক্রবর্তীর নাম চূড়ান্ত করলেন তৃণমূল সুপ্রিমো। মঙ্গলবার বিকেলে পুরমন্ত্রী ফিরহাদ হাকিম, বিধাননগর পুরসভার চেয়ারপার্সন কৃষ্ণা চক্রবর্তী, ডেপুটি মেয়র তাপস চট্টোপাধ্যায় ও মেয়র পারিষদ দেবাশিষ জানাকে ডেকে বৈঠক করেন তিনি। সেখানেই কৃষ্ণা চক্রবর্তীকে মেয়র করার বিষয়ে সিলমোহর দেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। অনিতা মণ্ডলকে পরবর্তী চেয়ারপার্সন হিসেবে বেছে নেওয়া হয়েছে।

[আরও পড়ুন: ‘বর্ণপরিচয়’-এর জনককে হিন্দিতে শ্রদ্ধাজ্ঞাপন!বিদ্যাসাগরের মৃত্যুদিবসে বিতর্কে ডিএসও]

লোকসভার ফলাফলের পর থেকেই অচলাবস্থা চলছিল বিধাননগর পুরসভায়। সব্যসাচী দত্ত মেয়র পদ থেকে ইস্তফা দেওয়ার পর সমস্যা আরও বাড়ে। এর মাঝে গত ৮ জুলাই বিধাননগর পুরসভায় আচমকা হাজির হন মেয়র সব্যসাচী দত্ত। তারপর সোজা ঢুকে পড়েন চেয়ারপার্সন কৃষ্ণা চক্রবর্তীর দপ্তরে ঢুকে। এসময় তাঁর পাশে বসে কৃষ্ণা চক্রবর্তী মন্তব্য করেছিলেন, তাঁর মেয়র হওয়া ইচ্ছা ছিল। দল চাইলে এখনও তিনি মেয়র হতে রাজি আছেন। এই মন্তব্যের পর ফের জল্পনা সৃষ্টি হয়।

এরপর গত ১১ জুলাই তৃণমূল ভবনে দলের রণকৌশল ঠিক করতে সব বিধায়কদের নিয়ে বৈঠকে বসেন তৃণমূল সুপ্রিমো মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। সমস্ত বিধায়কের পাশাপাশি ছিলেন দলের সর্বভারতীয় যুব সভাপতি অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায় ও প্রশান্ত কিশোর। বিধাননগরের চেয়ারপার্সন কৃষ্ণা চক্রবর্তীকেও বৈঠকের আগে থেকেই উপস্থিত থাকতে দেখা যায় দলের প্রধান কার্যালয়ে। সেখান থেকে বেরিয়ে আসার সময় মেয়র কে হচ্ছেন প্রশ্ন করেন সাংবাদিকরা। এর জবাবে নিজের পুরনো অবস্থান থেকে সরে এসে তিনি বলেন, “আমার মেয়র হওয়ার কোনও ইচ্ছা নেই।”

[আরও পড়ুন: চালুর একদিনের মধ্যেই ‘দিদিকে বলো’ নম্বরে গোলযোগ, অস্বস্তিতে তৃণমূল]

যদিও তৃণমূল সূত্রে জানা যায়, সব্যসাচীর পদত্যাগের পর ডেপুটি মেয়র তাপস চট্টোপাধ্যায়ের নাম পরবর্তী মেয়র হিসেবে প্রস্তাব করেন কেউ কেউ। কিন্তু, দলের বেশিরভাগ কাউন্সিলর বিষয়টি নিয়ে তাঁদের আপত্তির কথা জানান। তাপস মেয়র পদপ্রার্থী হলে তাঁদের কেউ আস্থা ভোটে প্রার্থী হয়ে যাবেন বলে উল্লেখ করেন। এই অবস্থাতে নাম ভেসে ওঠে অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায় ঘনিষ্ঠ সুজিত বসুর। তাতেও রাজি হয়নি অনেক কাউন্সিলর। দেবাশিস জানা-সহ কাউন্সিলরদের বড় অংশ জানিয়ে দেন, একমাত্র কৃষ্ণা চক্রবর্তী মেয়র হলে তাঁদের আপত্তি নেই। তাঁদের সেই ইচ্ছাকে মান্যতা দিলেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে