BREAKING NEWS

২  ভাদ্র  ১৪২৯  বুধবার ১৭ আগস্ট ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

‘মমতার নির্দেশে বিজেপি কর্মীর দেহ নিয়ে পালিয়েছে পুলিশ’, বিস্ফোরক মুকুল রায়

Published by: Subhamay Mandal |    Posted: September 10, 2019 2:22 pm|    Updated: September 10, 2019 2:22 pm

Mukul Roy Slams CM Mamata Banerjee over cadre death

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: এনআরএস হাসপাতালের মর্গ থেকে বিজেপি কর্মীর দেহ লোপাটের অভিযোগ তুলে মুখ্যমন্ত্রীকে আক্রমণ মুকুল রায়ের। মর্গ থেকে ময়নাতদন্তের পর নিহত স্বরূপ গড়াইয়ের দেহ চুর করার অভিযোগ তুলেছে বিজেপি। দলীয় কর্মীর দেহ নিয়ে চাপানউতোরের মধ্যে বিস্ফোরক দাবি করলেন বিজেপি নেতা। বললেন, মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের নির্দেশেই দেহ নিয়ে পালিয়েছে পুলিশ। দেহ চুরির অভিযোগে কলকাতা হাই কোর্টে মামলা করতে চলেছে বিজেপি। তার আগে মঙ্গলবার দিল্লি যাওয়ার সময় কলকাতা বিমানবন্দরে দাঁড়িয়ে বিস্ফোরক অভিযোগ তুললেন মুকুল রায়।

[আরও পড়ুন: এনআরএসের মর্গ থেকে নানুরের বিজেপি কর্মীর দেহ ‘চুরি’, এন্টালি থানায় FIR স্ত্রীর]

এদিন তিনি তোপ দেগে বলেন, ‘বাংলায় এখন পুলিশরাজ চলছে। রাজ্যে কোনও গণতন্ত্র নেই। গণতন্ত্রকে হত্যা করা হচ্ছে। আইন অনুযায়ী, কারও মৃত্যু হলে দেহ পরিবারের হাতে দেওয়ার নিয়ম। কিন্তু দেখলাম, পুলিশ দেহ নিয়ে পালিয়ে গেল মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের নির্দেশে।’ এরপর তিনি আরও বলেন, ‘গত ২৪ ঘণ্টার মধ্যে বাংলার তিন জায়গায় গুলি চলল। বাংলাজুড়ে অরাজকতা চলছে। মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় পুলিশমন্ত্রী হিসাবে ব্যর্থ। অবিলম্বে তাঁর পদত্যাগ করা উচিত।’

প্রসঙ্গত, ঘটনার সূত্রপাত শুক্রবার রাতে। ওইদিন রাতে বীরভূমের নানুরের রামকৃষ্ণপুর গ্রামে একটি চায়ের দোকানে বসেছিলেন স্বরূপ গড়াই নামে ওই বিজেপি কর্মী। আরও বেশ কয়েকজন ছিলেন তাঁর সঙ্গে। অভিযোগ, সেই সময় আচমকাই চায়ের দোকানে বোমাবাজি করা হয়। এরপরই স্বরূপকে লক্ষ্য করে গুলি চালায় দুষ্কৃতীরা। গুলি লাগে ওই বিজেপি কর্মীর বুকে। অবস্থার অবনতি হওয়ায় তাঁকে পার্ক সার্কাসের কাছে একটি বেসরকারি হাসপাতালে ভরতি করা হয়। সেখানেই রবিবার রাতে তাঁর মৃত্যু হয়। এনআরএসের মর্গে সোমবার তাঁর দেহ ময়নাতদন্তের জন্য নিয়ে যাওয়া হয়।

নিহতের স্ত্রী চায়নার দাবি বিজেপির রাজ্য দপ্তরে নিয়ে যাওয়া হবে দেহ। তাতেই আপত্তি জানায় পুলিশ। এনআরএসে এই নিয়ে অশান্তির পরিবেশ তৈরি হয়। তবে সোমবার গভীর রাতে ২২টি গাড়ির কনভয় করে স্বরূপ গড়াইয়ের দেহ নিয়ে যাওয়া হয় নানুরে। নোটিস দিয়ে স্বরূপের পরিবারকে জানিয়ে দেওয়া হয় সিয়ান হাসপাতালের মর্গে রাখা রয়েছে দেহ। তবে মঙ্গলবার সকালে দেহ ফেরত নিতে এনআরএস হাসপাতালে চলে আসেন নিহতের স্ত্রী। সঙ্গে ছিলেন বিজেপি নেতা অনুপম হাজরা। তাঁর অভিযোগ, পুলিশ স্বরূপ গড়াইয়ের দেহ চুরি করেছে। অনুপম আরও বলেন, “স্বরূপ গড়াইয়ের দেহ শ্যালকের হাতে দেওয়ার কথা ছিল। পুলিশ তা না করে কার অনুমতিতে দেহ নানুরে নিয়ে গেল? মৃতের পরিবারকে অন্ধকারে রেখে কেন পুলিশ দেহ নিয়ে চলে গেল?”

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে