BREAKING NEWS

৯ আশ্বিন  ১৪২৭  শনিবার ২৬ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

এবার নীল-সাদা টাই কলকাতা পুরসভার স্কুলে

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: June 24, 2016 9:18 am|    Updated: June 24, 2016 9:18 am

An Images

সন্দীপ চক্রবর্তী: এবার নীল-সাদা টাই পরবে কলকাতা পুরসভার স্কুলপড়ুয়ারা৷
ব্যাগ, ইউনিফর্ম, খাতা, পেনসিল এবং জুতো-মোজার সাফল্যের হাত ধরে পুরসভার স্কুলগুলিতে বেড়েছে ছাত্রছাত্রীর সংখ্যা৷ এখন সবমিলিয়ে কলকাতা পুরসভার অধীনে স্কুল রয়েছে ২৮০টি৷ সেখানে বর্তমানে ছাত্রছাত্রীর সংখ্যা প্রায় ২৫ হাজার৷ গতবছরের তুলনায় ছাত্রছাত্রীর সংখ্যা বেড়েছে৷ তাছাড়া প্রতিদিনের উপস্থিতির হারও আগের নিরিখে অত্যন্ত ভাল৷ পুরসভার সমীক্ষা অনুযায়ী, স্কুলছুটের সংখ্যা কমেছে অনেকটাই৷ শতাংশের হিসাবে অন্তত চার-পাঁচ শতাংশ৷
ছাত্রছাত্রীদের উপস্থিতির হার বাড়ার পিছনে মিড-ডে মিলের পাশাপাশি সবরকম সামগ্রী প্রদান বড় ফ্যাক্টর বলে মনে করছেন পুরসভার আধিকারিকরা৷ তিনটি কমিউনিটি কিচেন বা গুচ্ছ পাকশালায় খাবারের গুণমানে নজরদারি রাখা হচ্ছে৷ সেরা স্কুল বা সেরা শিক্ষক, সেরা ছাত্রদের পুরস্কৃত করার ফলেও প্রতিযোগিতা তৈরি হয়েছে৷ অন্তত একশো স্কুলে কম্পিউটার দেওয়া হচ্ছে৷ কম্পিউটার প্রশিক্ষণের জন্য প্রশিক্ষকরা বিভিন্ন স্কুলে গিয়ে পড়াবেন৷
পুরসভা সূত্রে খবর, ইংরেজি মাধ্যম স্কুলে উপস্থিতির হার সবথেকে বেশি৷ বৃন্দাবন বসাক লেনে একটি স্কুলে একটি নতুন ইংরেজি মাধ্যম স্কুল তৈরি হওয়ার পর ৩০০ ছাত্রছাত্রীর মধ্যে ৮০ শতাংশের বেশি উপস্থিতিতে অবাক হয়েছেন আধিকারিকরা৷ এক আধিকারিক জানালেন, “আগে পরিদর্শকরা গিয়ে অনেককেই খুঁজে পেতেন না৷ সেখানে এখন উপস্থিতি নিয়ে আমরা আশাবাদী৷ ‘লুক’টা বদলে দেওয়া গিয়েছে কয়েক বছরে৷”
গার্ডেনরিচের কৈলাস মেমোরিয়াল স্কুলে ৩০০ ছাত্রছাত্রী ও তপসিয়ার কাজি নজরুল স্কুলে ৮০০ পড়ুয়া৷ এই দুই স্কুলেও উপস্থিতির হার খুব ভাল৷ আসলে, এখন পুরসভার স্কুল পড়ুয়াদের কোনও সামগ্রীই কিনতে হচ্ছে না৷ গতবার ব্যাগ, ইউনিফর্ম, জুতো-মোজা দেওয়ার সময়ই উৎসাহ চোখে পড়েছিল৷ এবার তাই ইউনিফর্মের সঙ্গে মানানসই টাই দেওয়ার প্রস্তুতি নেওয়া হয়েছে৷
শিক্ষা বিভাগের মেয়র পারিষদ অভিজিৎ মুখোপাধ্যায় জানিয়েছেন, পোশাকের সঙ্গে মানানসই টাই দেওয়া হবে৷ দরপত্র দেওয়া হবে৷ আগামী শিক্ষাবর্ষ থেকেই যাতে ছেলেমেয়েরা টাই পড়ে স্কুলে আসতে পারে, সে ব্যাপারে চূড়ান্ত প্রস্তুতি নিয়েছে পুরসভা৷
গত বছরেই পুজোর আগে দেওয়া হয়েছিল কালো জুতো, সাদা রঙের মোজা৷ পুরসভার ছাত্র-ছাত্রীদেরই ধূসর রঙের ব্যাগ রয়েছে৷ ইউনিফর্ম রয়েছে সবুজ প্যান্ট ও সাদা শার্ট৷ সবই দেওয়া হচ্ছে৷ বাদ থাকছে না টিফিন বক্স, পেন্সিল, ইরেজার, শার্পনারও৷ ব্যাগ, ইউনিফর্মের সঙ্গেই রং মিলিয়ে হবে মানানসই টাই৷ টাইয়ের প্রাথমিকভাবে রং ধরা হয়েছে, সাদার মাঝে নীল ও সবুজ স্ট্রাইপ৷ তবে এটা চূড়ান্ত টাইতে নীল রং থাকবেই৷

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement