২৩  শ্রাবণ  ১৪২৯  বুধবার ১০ আগস্ট ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

বিজেপির ডাকা বন্‌ধে সরকারি কর্মীদের হাজিরা বাধ্যতামূলক, নবান্নে জরুরি বৈঠকে জারি বিজ্ঞপ্তি

Published by: Sucheta Sengupta |    Posted: February 27, 2022 9:16 pm|    Updated: February 27, 2022 9:26 pm

Nabanna issues notification for the Govt. employees bandh called by BJP, West Bengal

ফাইল ছবি।

মলয় কুণ্ডু: বিজেপির (BJP) ডাকা বন্‌ধ ব্যর্থ করতে সরকারি নির্দেশ জারি করল নবান্ন (Nabanna)। রাজ্য সচল রাখতে আগাম সবরকম ব্যবস্থা নেবে সরকার। রবিবার সন্ধেবেলা নবান্নের তরফে এই বিজ্ঞপ্তি জারি করা হয়েছে। খোলা থাকবে স্কুল, কলেজ, বাজার, শপিং কমপ্লেক্স এবং সবরকম জরুরি পরিষেবা। পরিবহণ আটকে কোনওভাবেই স্বাভাবিক জনজীবন ব্যাহত করা যাবে না, সাফ জানিয়ে দিল নবান্ন। এমনকী সরকারি কর্মীদের অফিসে উপস্থিতি নিয়েও নির্দিষ্ট নির্দেশিকা দেওয়া হয়েছে ওই বিজ্ঞপ্তিতে।

810-F(P2)

রাজ্যের ১০৮ পুরসভায় ভোট (WB Civic Polls 2022) শেষে রবিবার বিকেলেই বিজেপির তরফে সাংবাদিক বৈঠক করে সোমবার ১২ ঘণ্টা বন্‌ধের কথা জানানো হয়। তাদের অভিযোগ, পুরভোটে ব্যাপক সন্ত্রাস হয়েছে। তার প্রতিবাদেই বন্‌ধ ডাকা হল গেরুয়া শিবিরের তরফে। সোমবার সকাল ৬টা থেকে সন্ধে ৬টা পর্যন্ত রাজ্যজুড়ে বন্‌ধ সফল করতে জনগণকে আবেদন জানিয়েছেন। ঠিক তার পরপরই সাংবাদিক বৈঠক করে তৃণমূলের  (TMC) তরফে বনধের বিরোধিতা করেন পার্থ চট্টোপাধ্যায়, ফিরহাদ হাকিম। কোনওভাবেই বন্‌ধের প্রভাব পড়তে দেওয়া যাবে না রাজ্যে। তার জন্য শাসকদল ও সরকার, উভয়েই প্রস্তুত বলে জানান তাঁরা। 

[আরও পড়ুন: ওষুধ সংস্থার কর্মী সেজে কোটি টাকার প্রতারণা! কলকাতা পুলিশের জালে নাইজেরিয়ার যুবক]

বিজেপি যতই হিংসার অভিযোগ করুক, রাজ্য পুলিশের ডিজি এদিন সাংবাদিক বৈঠক করে ভোট শান্তিপূর্ণ বলেই জানান। ভবানীভবনে রাজ্য পুলিশের ডিজি মনোজ মালব্যের বক্তব্য, “কয়েকটি জায়গায় ছোটখাটো ঘটনা ঘটেছে। নির্বাচন কমিশনের সঙ্গে সারাদিনই পুলিশ সংযোগ রেখে চলছিল। কমিশন, সাধারণ মানুষ অথবা যে কোনও রাজনৈতিক দল যখনই কোনও অভিযোগ করেছে, সঙ্গে সঙ্গেই আমরা সেই জায়গায় গিয়েছি। ১০৮টি পুরসভার ভোট খুব শান্তিপূর্ণ ও সুষ্ঠুভাবে হয়েছে। কোনও বড় ঘটনা রাজ্যে ঘটেনি, যা চিন্তার বিষয় হয়ে উঠতে পারে। গুলি লাগা দূরের কথা, কোনও বড় ধরনের আঘাত কারও লাগেনি।”  

[আরও পড়ুন: যুদ্ধ শেষের পথে? পরমাণু হামলার আশঙ্কার মাঝেই রাশিয়ার সঙ্গে বৈঠকে রাজি ইউক্রেন]

বন্‌ধে রাজ্য সচল রাখতে এদিন রাতেই নবান্নে ডিজি, পুলিশ সুপার, পুলিশকমিশনার-সহ উচ্চপদস্থকর্তাদের সঙ্গে বৈঠক করেন মুখ্যসচিব এইচ কে দ্বিবেদী। নবান্নের তরফে জানানো হয়েছে, ডিউটিতে যোগ দিতেই হবে। এদিন কোনও কর্মীর ছুটি গ্রাহ্য হবে না। কেউ উপস্থিত না হলে ‘ডায়েস নন’ করা হবে। মিলবে না ওই দিনের বেতনও। কড়া ব্যবস্থা নেবে প্রশাসন। সোমবার সকাল ছ’টা থেকে সন্ধ্যা ছ’টা পর্যন্ত বনধ নিয়ে ডিজি জানান, “সরকারি, বেসরকারি প্রতিষ্ঠান, স্কুল, কলেজ খোলা থাকবে। পরিবহণ সম্পূর্ণ খোলা থাকবে। আমরা সেইমতো পুরোদমে ব্যবস্থা রাখব। কেউ যদি জোরজবরদস্তি করে বাধা দেয়, সেই ক্ষেত্রেও আমরা কড়া ব্যবস্থা নেব।”

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে