৩ শ্রাবণ  ১৪২৬  শুক্রবার ১৯ জুলাই ২০১৯ 

BREAKING NEWS

Menu Logo বিলেতে বিশ্বযুদ্ধ মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার
বিলেতে বিশ্বযুদ্ধ

৩ শ্রাবণ  ১৪২৬  শুক্রবার ১৯ জুলাই ২০১৯ 

BREAKING NEWS

দীপঙ্কর মণ্ডল: কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয়ে স্নাতকোত্তরে ভরতির ক্ষেত্রে অনলাইনে হবে প্রবেশিকা পরীক্ষা৷ এই প্রথম রাজ্যের কোনও বিশ্ববিদ্যালয়ে এই পদ্ধতিতে প্রবেশিকা চালু হচ্ছে৷ চলতি শিক্ষাবর্ষ অর্থাৎ ২০১৯-২০ থেকেই শুরু হচ্ছে অনলাইনে প্রবেশিকায় ভরতির পদ্ধতি৷ এবছর অনলাইনে আবেদন করার শেষ তারিখ ২৯ জুন৷ আজ সাংবাদিক সম্মেলনে একথা ঘোষণা করেছেন উপাচার্য সোনালি চক্রবর্তী বন্দ্যোপাধ্যায়৷

[আরও পড়ুন: বিধানসভায় ‘কাটমানি’ বিক্ষোভ, অধিবেশন বয়কট করেও যোগদান বিরোধীদের]

রাজ্যের কলেজ বা বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়ুয়া ভরতিতে দুর্নীতির অভিযোগ নতুন কিছু নয়৷ বরাবরই এই অভিযোগের কালি লেগেছে একাধিক উচ্চশিক্ষা প্রতিষ্ঠানের ক্ষেত্রে৷ সেসব অপবাদ ঘোচাতে কলেজে কলেজে অনলাইনে ভরতি পদ্ধতি চালু করেছেন শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায়৷ এবার সেই পদ্ধতি চালু হচ্ছে কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয়েও৷ রাজ্যে এই প্রথম৷ কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয়ে মোট ৬৬টি বিষয়ে স্নাতকোত্তর পড়ানো হয়৷ এই বিশ্ববিদ্যালয়ের অন্তর্গত কলেজ থেকে স্নাতকদের জন্য ৬০ শতাংশ সংরক্ষণ থাকছে৷ বাকি ৪০ শতাংশ অন্যান্য বিশ্ববিদ্যালয়ের জন্য৷ এই ৬০ শতাংশ আসনে ভরতি হওয়ার ক্ষেত্রে আবেদনকারীদের নম্বরই মুখ্য বিচার্য বিষয় হবে৷ তাঁরা অনলাইনে প্রবেশিকা পরীক্ষা দেবেন নিজেদের ইচ্ছেমতো৷ অর্থাৎ চাইলে নাও দিতে পারেন৷ তবে স্ট্যাটিসটিক্স, কম্পিউটার সায়েন্স, বায়োটেক, মলিকিউলার বায়োলজি, হিউম্যান রাইটস- এই ৫টি বিষয়ে স্নাতকের নম্বরের সঙ্গে সঙ্গে অনলাইন প্রবেশিকা বাধ্যতামূলক৷

অন্যদিকে, বাইরের বিশ্ববিদ্যালয় থেকে যাঁরা কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয়ে স্নাতকোত্তর পড়ার আবেদন করবেন, তাঁদের সকলকেই এই অনলাইন প্রবেশিকার মাধ্যমে সুযোগ পেতে হবে৷ আবেদন থেকে শুরু করে একেবারে ভরতি পর্যন্ত – সবটাই হবে অনলাইনে৷ বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে না গিয়ে নির্বাচিত কোনও কেন্দ্রে গিয়ে পরীক্ষা দিতে হবে৷ মূলত মাল্টিপল টাইপ প্রশ্ন থাকবে প্রবেশিকাতে৷ পরীক্ষা শেষ হওয়া মাত্রই মূল্যায়ণ হবে, তবে ফলপ্রকাশ হবে গোটা পরীক্ষাপদ্ধতি শেষের পরই৷

[আরও পড়ুন: মাথায় জমেছে বরফ! বাংলাদেশের গৃহবধূকে সুস্থ করলেন কলকাতার চিকিৎসক]

কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয়ে মোট ৬৬ টি বিষয়ে পড়ার জন্য, কলা বিভাগে বিশ্ববিদ্যালয়ের আসন সংখ্যা ৪৩৭৩ এবং অন্তর্গত কলেজগুলিতে এই সংখ্যা ১৪৯৯৷  বিজ্ঞান বিভাগে বিশ্ববিদ্যালয়ের আসন সংখ্যা ৩০৭৪, কলেজে ১২৬৬টি আসন আছে৷ এমকম পড়ার জন্য বিশ্ববিদ্যালয়ে রয়েছে ১২৪৮টি আসন এবং কলেজে মাত্র ৪১০টি৷ এই আসনগুলি এবার ভরতি করা হবে অনলাইন প্রবেশিকার মাধ্যমে৷

 

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং