৫ কার্তিক  ১৪২৬  বুধবার ২৩ অক্টোবর ২০১৯ 

Menu Logo পুজো ২০১৯ মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও বাঁকা কথা ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

শ্রীমন্ত চৌধুরি: রাতবিরেতে তাঁরাই ভরসা৷ দিনদুপুরে তাঁরাই ত্রাতা৷ ঈশ্বরের প্রতিদ্বন্দ্বী হয়ে তাঁরাই মৃতপ্রায়কে ফিরিয়ে দিতে পারেন প্রাণ৷ আবার অভিযোগের কাঠগড়াতেও তাঁরা৷ কখনও অর্থলোভী বদনাম তো কখনও স্বার্থপরের দুর্নাম৷ চিকিৎসকদের নিয়ে দ্বিধাবিভক্ত সমাজ৷ তবু তাঁরা না থাকলে আমরা অসহায়৷ তাঁদের পরিশ্রম, ডেডিকেশনের উপর দ্বিধাহীন ভরসা করা ছাড়া আমাদের উপায় নেই৷ আস্থার সাঁকো তাই কখনও-সখনও নড়লেও ডাক্তার-রোগীর সম্পর্কের ভিত আজও মজবুত৷ সেই চিকিৎসকদেরই সম্মান দিতে গতবারের মতো এবছরও এগিয়ে এল ‘সংবাদ প্রতিদিন’৷ ‘চিকিৎসাজ্যোতি সম্মান’ তাই ডাক্তারবাবুদের কুর্নিশ জানানোর প্ল্যাটফর্ম৷ শুক্রবার আইসিসিআর-এ বর্ণাঢ্য অনুষ্ঠানের মধ্যে দিয়ে সম্মাননা জানানো হল চিকিৎসা জগতের উজ্জ্বল নক্ষত্রদের।

এদিন প্রদীপ প্রজ্জ্বলনের মাধ্যমে শুরু হয় অনুষ্ঠান। এরপর বিচারকদের সঙ্গে পরিচয়ের পর থিম সংয়ের উদ্বোধন ও ভিডিও প্রদর্শন করা হয়। তারপর বিশিষ্ট অভিভাবক চিকিৎসক ডা. আর পি সেনগুপ্ত, ডা. সুকুমার মুখোপাধ্যায়, ডা. আই এস রায়দের সংবর্ধনা দেওয়া হয়।

এরপর শুরু হয় চিকিৎসকদের সম্মাননা পর্ব। জীবনকৃতি সম্মানে ভূষিত করা হয় ডা. সুবীর দত্তকে। গবেষণা সম্মান দেওয়া হয় প্রবীণ ডা. বৈদ্যনাথ চক্রবর্তীকে। তারপরই প্রকাশিত হয় ‘সংবাদ প্রতিদিন হেলথ গাইড’ পুস্তিকা। চিকিৎসা সংক্রান্ত গাইডবুকের এটি ১৫তম সংস্করণ। স্বাস্থ্য সংক্রান্ত যাবতীয় খুটিনাটি, হালহদিশ রয়েছে এই পুস্তিকায়। আগামী ১ জুলাই যা হাতে পাবেন পাঠকরা। বিশিষ্ট ডাক্তাররা আনুষ্ঠানিক প্রকাশ করেন পুস্তিকাটির। ‘চিকিৎসাজ্যোতি সম্মান’ প্রদান করা হয় ডা. সুকুমার চন্দ্রকে। এরপর গান গেয়ে শোনান ডা. অনির্বাণ দত্ত।

 

সম্মাননা পর্বের তৃতীয়ভাগে কাদম্বিনী পুরস্কার প্রদান করা হয় ডা. শিপ্রা রায়চৌধুরিকে। ডা. সৌম্যকান্তি পাণ্ডাকে প্রতিশ্রুতি সম্মান দেওয়া হয়। এরপর সংগীত পরিবেশন করেন ডা. ক্ষেত্রমাধব দাস। অনুষ্ঠানে উপস্থিত বিখ্যাত পরিচালক কৌশকি গঙ্গোপাধ্যায় সমাজে চিকিৎসকদের গুরুত্ব ও তাঁদের অবদান নিয়ে বক্তব্য রাখেন। সম্মাননা পর্বের চতুর্থভাগে সীমান ছাড়িয়ে পুরস্কারে ভূষিত করা হয় ডা. কমলেশ্বর মুখোপাধ্যায়কে। জনস্বাস্থ্য সম্মান পান ডা. স্বরূপ সরকার। নীলকণ্ঠ আলো সম্মানে ভূষিত করা হয় ডা. মায়াঙ্ক সিংকে। মরণোত্তর নীলকণ্ঠ আলো সম্মান প্রদান করা হয় প্রয়াত ডা. বিভাস খুট্যার পরিজনকে। অনুষ্ঠানের শেষভাগে গান গেয়ে আলাদা মাত্রা যোগ করেন শিল্পী জয়তী চক্রবর্তী।

এই অনুষ্ঠানের নিবেদক ‘জেআইএস গ্রুপ’৷ ‘চিকিৎসাজ্যোতি সম্মান’-এর প্রধান সহযোগিতায় রয়েছে ‘ক্রেডেল’৷ যাঁদের সম্মান জানানো হয় তাঁদের বাছাই করেছে বিশিষ্ট চিকিৎসকের প্যানেল। প্রচার সহযোগী ‘কলকাতা টিভি’, ‘অরুণ সাইন’ ও ‘ফিভার ১০৪’৷

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং