BREAKING NEWS

২৬ শ্রাবণ  ১৪২৭  মঙ্গলবার ১১ আগস্ট ২০২০ 

Advertisement

সমাজকর্মীর উপর হামলা তৃণমূল কাউন্সিলরের অনুগামীদের, মেটিয়াবুরুজে ধুন্ধুমার

Published by: Sucheta Chakrabarty |    Posted: July 7, 2020 11:31 am|    Updated: July 7, 2020 3:50 pm

An Images

অর্ণব আইচ: মেটিয়াবুরুজের এক তৃণমূল কাউন্সিলরের (TMC Councilor) অনুগামীদের বিরুদ্ধে সশস্ত্র হামলার অভিযোগ করলেন একজন জনৈক সমাজকর্মীর ঘনিষ্ঠরা। ঘটনার জেরে উত্তপ্ত মেটিয়াবুরুজ (Metiabruz) থানা এলাকার মসজিদ তালাওলে। সোমবার রাতে এই হামলা চলে বলে থানায় অভিযোগ জানান সমাজকর্মীর ঘনিষ্ঠরাও। তবে তাদের সকল অভিযোগ অস্বীকার করেন স্থানীয় তৃণমূল কাউন্সিলর।

জানা যায়, কলকাতা পুরসভার ১৩৭ নম্বর ওয়ার্ডের তৃণমূল কাউন্সিলরের অনুগামীরা সোমবার গভীর রাতে হঠাৎই বাইক ও অস্ত্র নিয়ে চড়াও হয় এলাকার এক সমাজকর্মীর উপর। সেই সময় দুপক্ষের মধ্যের প্রথমে বচসা পরে তা হাতাহাতিতে পৌঁছয়।  এক স্থানীয়দের কথায়, “গভীর রাতে স্থানীয় তৃণমূল কাউন্সিলরের অনুগামীরা এসে সমাজকর্মীর উপরে হামলা চালায়। পরে সমাজকর্মীর ঘনিষ্ঠরাও কাউন্সিলরের অনুগামীদের মারধর করে। এরপর দু’পক্ষই গুলি চালাতে শুরু করে এলাকায়।” স্থানীয়দের আরও অভিযোগ, দুপক্ষই নিজেদের মধ্যে বচসার সময় এলাকার কয়েকটি বাড়ি ও বাইকে ভাঙচুর চালায়। তবে কীসের জন্য এত রাতে তৃণমূল কাউন্সিলরের অনুগামীরা এলাকায় যায় তা জানা যায়নি। ঘটনার জেরে গুরুতর আহত কয়েকজন স্থানীয়কে হাসপাতালে ভরতি করা হয়। এরপরই স্থানীয়রা ফোন করে মেটিয়াবুরুজ থানায় খবর দেন। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে পরে ঘটনাস্থলে বিশাল পুলিশ বাহিনী মোতায়েন করা হয়।

[আরও পড়ুন: অপরাধের রাজনীতি নিয়ে জেপি নাড্ডার মন্তব্যকে ‘আবোল তাবোল’ বললেন মমতা]

তবে কাউন্সিলরকে ফোন করে অভিযোগের কথা জানালে তিনি তা অস্বীকার করেন। অভিযোগ ভিত্তিহীন বলেও জানান তিনি। তবে কারওর মতে, স্থানীয় কাউন্সিলরের অনুগামীরা এই কাজ করেছেন এলাকা দখলের জন্য। আবার কেউ বলেন সমাজকর্মীর সঙ্গে বচসার জেরেই রাতের অন্ধকারে অতর্কিতে হামলা চালায় কাউন্সিলরের অনুগামীরা। তবে হামলার প্রকৃত কারণ এখনও অজানা।

[আরও পড়ুন: খোদ স্বাস্থ্যভবনেই ফের করোনা হানা, ভাইরাস আক্রান্ত আরও ৫ কর্মী]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement