১২ মাঘ  ১৪২৮  বুধবার ২৬ জানুয়ারি ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

নাকতলা উদয়ন সংঘে দুষ্কৃতী তাণ্ডব, ক্লাবঘর ভাঙচুর, বাধা দিতে গিয়ে জখম ২

Published by: Sayani Sen |    Posted: December 6, 2020 8:59 am|    Updated: December 6, 2020 9:19 am

Some miscreants attacks in Naktala Udayan Sangha Club ।Sangbad Pratidin

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: রাতের শহরে দুষ্কৃতী তাণ্ডব। আর এবার ভাঙচুর চলল খোদ শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায়ের (Partha Chatterjee) ক্লাবে। নাকতলা উদয়ন সংঘ ক্লাবে হামলা চালায় একদল দুষ্কৃতী। ক্লাবের দু’টি ঘরে চলে ব্যাপক ভাঙচুর। এই ঘটনায় বাধা দিতে যান ক্লাব সদস্যরা। দুষ্কৃতীদের হামলায় দু’জন জখম হয়েছে।

ঘটনার সূত্রপাত শনিবার সন্ধেয়। অভিযোগ, নাকতলা উদয়ন সংঘ ক্লাবের (Naktala Udayan Sangha Club) সামনে বাইক নিয়ে রেস করছিল কয়েকজন যুবক। এক ক্লাব সদস্যের বাইকে ধাক্কা মারে। তিনি প্রতিবাদ করেন। তা নিয়ে দুপক্ষের বাকবিতণ্ডা হয়। অভিযোগ, সেই সময় ওই যুবকরা হুমকি দিয়ে যায়। তারপর বেশ কয়েকঘণ্টা কেটে যায়। ঘড়ির কাঁটায় তখন রাত সাড়ে ১১টা হবে। স্থানীয়দের দাবি, আচমকাই ২০-২৫ জন দুষ্কৃতী বাইকে চড়ে নাকতলা উদয়ন সংঘ ক্লাবের সামনে পৌঁছয়। প্রত্যেকর হাতে ছিল বাঁশ, ইঁট। কিছু বুঝে ওঠার আগেই ক্লাবের একতলার ২টি ঘরে তারা ব্যাপক ভাঙচুর চালায়। বাধা দিতে যান ঘটনাস্থলে উপস্থিত ক্লাব সদস্যরা। তাঁদেরও মারধর করা হয়। দু’জন জখম হয়েছেন।

[আরও পড়ুন: কোটি কোটি টাকা নিয়েছেন ৫ জন প্রভাবশালী নেতা! মোদি-মমতাকে বিস্ফোরক চিঠি সুদীপ্ত সেনের]

নাকতলা উদয়ন সংঘ ক্লাবের চেয়ারম্যান শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায়। তাই সেই ক্লাবে কে বা কারা হামলা চালাল, তা নিয়ে যথেষ্ট শোরগোল পড়ে গিয়েছে। যদিও ক্লাব কর্তৃপক্ষের দাবি, শনিবার সন্ধেয় যাদের সঙ্গে কথা কাটাকাটি হয়েছিল তারাই রাতে ক্লাবঘরে ভাঙচুর চালিয়েছে। হামলাকারীদের কাউকেই চিনতে পারেননি স্থানীয়রা। মোবাইল ফোনে হামলার কিছু ছবি রয়েছে। ওই ছবির সূত্র ধরেই ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে নেতাজি নগর থানার পুলিশ (Netaji Nagar Police)। যাতে আর নতুন করে কোনও অশান্তি তৈরি না হয় তাই ক্লাব চত্বরে বিশাল পুলিশবাহিনীও মোতায়েন করা হয়েছে।

[আরও পড়ুন: রাজ্যপালের কাছে নালিশের পরদিনই বদলি, ‘শাস্তিমূলক রাজনৈতিক প্রতিহিংসা’ বলে দাবি বৈশাখীর]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে