BREAKING NEWS

৭ আষাঢ়  ১৪২৮  মঙ্গলবার ২২ জুন ২০২১ 

READ IN APP

Advertisement

এবার খড়দহ কেন্দ্রের উপনির্বাচনে প্রার্থী শোভনদেব? পদত্যাগের পরই শুরু জল্পনা

Published by: Subhajit Mandal |    Posted: May 21, 2021 4:44 pm|    Updated: May 21, 2021 5:33 pm

Sovandeb Chattopadhyay to fight by election from Khardah seat | Sangbad Pratidin

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ভবানীপুর কেন্দ্রের বিধায়ক পদ থেকে পদত্যাগ করেছেন শোভনদেব চট্টোপাধ্যায় (Sovandeb Chattopadhyay)। কিন্তু, রাজ্যের কৃষিমন্ত্রীর পদ তিনি ছাড়েননি। যার অর্থ আগামী ছমাসের মধ্যে বিধায়ক হয়ে আসতে হবে তাঁকেও। কিন্তু নিজের জেতা আসন ভবানীপুর ছেড়ে কোন আসনে প্রার্থী হবেন রাজ্যের কৃষিমন্ত্রী। আপাতত সেটা নিয়েই জল্পনা রাজ্য রাজনীতিতে। রাজনৈতিক মহলে জল্পনা, ভবানীপুরের বিদায়ী বিধায়ককে খড়দহ থেকে দাঁড় করিয়ে জিতিয়ে আনতে পারে তৃণমূল। সব ঠিক থাকলে প্রয়াত বিধায়ক কাজল সিনহার ছেড়ে আসা আসন থেকেই প্রার্থী হবেন প্রবীণ তৃণমূল নেতা। 

শুক্রবার খানিকটা চমকপ্রদভাবেই ভবানীপুর কেন্দ্রের বিধায়ক পদ থেকে ইস্তফা দিয়েছেন শোভনদেব। এদিন দুপুর দুটো নাগাদ বিধানসভায় গিয়ে স্পিকার বিমান বন্দ্যোপাধ্যায়ের হাতে নিজের ইস্তফাপত্র তুলে দিয়েছেন রাজ্যের কৃষিমন্ত্রী। উপস্থিত ছিলেন পার্থ চট্টোপাধ্যায়ও (Partha Chatterjee)। তবে বিধায়কপদ ছাড়লেও রাজ্যের কৃষিমন্ত্রী হিসেবে ইস্তফা দেননি শোভনবাবু। আর তাতেই জল্পনা শুরু হয় মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় তাঁকে উপনির্বাচনে জিতিয়ে এনে নিজের মন্ত্রিসভাতেই রাখতে চান। এ প্রসঙ্গে প্রবীণ তৃণমূল (TMC) নেতা নিজে জানিয়েছেন, তিনি চান এই কেন্দ্র থেকেই বিধায়ক হওয়ার জন্য প্রার্থী হোন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। বলেন, “আপাতত রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রীই আছেন উনি। আমার ইচ্ছা এখান থেকেই লড়ে মুখ্যমন্ত্রী পদে থাকুন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। এই মুহূর্তে তাঁর সহজে জিতে আসা ভীষণ জরুরি। আর এরপর দল আমার জন্য যা সিদ্ধান্ত নেবে, সেটাই বিশ্বস্ত সৈনিকের মতো মাথা পেতে নেব। তবে বাংলাতেই থাকতে চাই।” 

[আরও পড়ুন: বিপাকে মিঠুন! ভোটপ্রচারে উসকানিমূলক মন্তব্যের মামলায় রিপোর্ট তলব আদালতের]

তৃণমূল সূত্রের খবর, মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় (Mamata Banerjee) ফের নিজের কেন্দ্র ভবানীপুর থেকেই প্রার্থী হচ্ছেন। সেক্ষেত্রে কাজল সিনহার ছেড়ে যাওয়া খড়দহ আসন থেকে প্রার্থী করা হতে পারে রাজ্যের কৃষিমন্ত্রীকে। খড়দহে এবার তৃণমূলের টিকিটে ভাল ব্যবধানেই জিতেছেন কাজল সিনহা। কিন্তু ভোটের ফলপ্রকাশের আগেই করোনায় মৃত্যু হয় তাঁর।  সেই কেন্দ্রটি ফাঁকা পড়ে রয়েছে। খড়দহ কেন্দ্রটিকে ‘সেফ সিট’ বলেই মনে করছে তৃণমূল। যদিও, সরকারিভাবে তৃণমূলের তরফে এখনও শোভনদেবের প্রার্থীপদ নিয়ে চূড়ান্ত কিছু জানানো হয়নি। তৃণমূল মহাসচিব পার্থ চট্টোপাধ্যায় বরং বলছেন, কে কোন কেন্দ্র থেকে লড়বেন, তা এখনও ঠিক হয়নি।  

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement