BREAKING NEWS

১৪  আশ্বিন  ১৪২৯  বুধবার ৫ অক্টোবর ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

SSC Scam: সিবিআইয়ের হাতে গ্রেপ্তার উত্তরবঙ্গ বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য সুবীরেশ ভট্টাচার্য

Published by: Paramita Paul |    Posted: September 19, 2022 3:45 pm|    Updated: September 19, 2022 4:28 pm

SSC Scam: Former Chairman of SSC arrested by CBI | Sangbad Pratidin

অর্ণব আইচ: এবার শিক্ষক নিয়োগ দুর্নীতি (SSC Scam) মামলায় গ্রেপ্তার এসএসসির প্রাক্তন চেয়ারম্যান তথা উত্তরবঙ্গ বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য সুবীরেশ ভট্টাচার্য। নিয়োগ দুর্নীতি মামলায় শান্তিপ্রসাদ সিনহা, অশোক সাহা, কল্যাণময় বন্দ্যোপাধ্যায়ের পর সিবিআই হেফাজতে আরও এক। দফায় দফায় জিজ্ঞাসাবাদ এবং বাড়িতে তল্লাশির পর এবার উত্তরবঙ্গ বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্যকে হেফাজতে নিল কেন্দ্রীয় তদন্তকারী সংস্থা। ফলে এই দুর্নীতি মামলায় গ্রেপ্তারির সংখ্যা দাঁড়াল ৬।

নিয়োগ দুর্নীতির তদন্তে নেমে প্রাক্তন শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায় (Partha Chatterjee) এবং তাঁর ঘনিষ্ঠ মডেল-অভিনেত্রী অর্পিতা মুখোপাধ্যায়কে (Arpita Mukherjee) গ্রেপ্তার করে এনফোর্সমেন্ট ডিরেক্টরেট। তাঁদের বিপুল সম্পত্তির হদিশ মেলে। এরপর এসএসসির নিয়োগ উপদেষ্টা কমিটির সদস্য এসপি সিনহা এবং অশোক সাহাকে গ্রেপ্তার করে সিবিআই। পরে মধ্যশিক্ষা পর্ষদের চেয়ারম্যান কল্যাণময় গঙ্গোপাধ্যায়কেও গ্রেপ্তার করা হয়। আবার প্রাক্তন শিক্ষামন্ত্রীকে আপাতত হেফাজতে নিয়েছে সিবিআই। আপাতত তিনজনকে মুখোমুখি বসিয়ে জেরা করছে কেন্দ্রীয় তদন্তকারীরা।

[আরও পড়ুন: পার্থ-অর্পিতার বাজেয়াপ্ত সম্পত্তির পরিমাণ ১০৩ কোটি! SSC দুর্নীতি মামলায় ইডির চার্জশিটে উল্লেখ]

রবিবার সুবীরেশ ভট্টাচার্যকে নোটিস পাঠিয়েছিল সিবিআই। এদিন তিনি হাজিরা দেন। সূত্রের খবর, একাদশ-দ্বাদশ শ্রেণির শিক্ষক নিয়োগ মামলায় ধৃত এসপি সিনহার জেরায় একাধিক গুরুত্বপূর্ণ তথ্য মিলেছে। সেই তথ্য নিয়ে এদিন উত্তরবঙ্গ উপাচার্যকে জেরা করা হয়। কিন্তু  তাঁর বয়ানে একাধিক অসঙ্গতি মিলেছে। তারপরই তাঁকে গ্রেপ্তার করে সিবিআই। 

উল্লেখ্য, উত্তরবঙ্গ বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য সুবীরেশ ভট্টাচার্য ২০১৪-২০১৮ সাল পর্যন্ত ৪ বছর স্কুল সার্ভিস কমিশনের চেয়ারম্যান ছিলেন। শিক্ষক নিয়োগ দুর্নীতি কাণ্ডে বিচারপতি রঞ্জিত বাগ কমিটির রিপোর্টে নাম রয়েছে তাঁর। রিপোর্টে বলা হয়েছে, ৩৮১টি ভুয়ো নিয়োগ হয়েছে। তার মধ্যে ২২২ জন পরীক্ষাই দেয়নি। এনিয়ে বিচারবিভাগীয় তদন্ত চলছিল। তাঁর উপর নজর ছিল সিবিআইয়ের। গত ২৪ আগস্ট সরাসরি সুবীরেশের ফ্ল্যাটে হানা দেয় কেন্দ্রীয় তদন্তকারী সংস্থা। কোয়ার্টার এবং বিশ্ববিদ্যালয়ের দপ্তরে হানা দেয় সিবিআই আধিকারিকরা। পরে বাঁশদ্রোণীর ফ্ল্যাট সিল করে দেওয়া হয়। দফায় দফায় জেরা করা হয় সুবীরেশকে। এরপরই তাঁকে গ্রেপ্তার করল সিবিআই।

[আরও পড়ুন: ‘প্রতিহিংসাপরায়ণ’, ইডি-সিবিআইয়ের ‘অতিসক্রিয়তা’ নিয়ে বিধানসভায় নিন্দা প্রস্তাব TMC’র]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে