১২ জ্যৈষ্ঠ  ১৪২৯  শনিবার ২৮ মে ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

Abhishek Banerjee: সদ্যোজাতকে বাঁচাতে পাশে দাঁড়ানোর আর্তি টলিপাড়ার শিল্পীর, এগিয়ে এল অভিষেকের টিম

Published by: Paramita Paul |    Posted: January 16, 2022 11:46 am|    Updated: January 16, 2022 1:23 pm

TMC MP Abhishek Banerjee's team help newborn baby to survive | Sangbad Pratidin

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: বয়স মাত্র তিনদিন। জন্ম মুহূর্ত থেকে হৃদযন্ত্রে মারাত্মক সমস্যা। যার চিকিৎসা শুধুমাত্র বাইপাসের ধারে বেসরকারি হাসপাতাল কিংবা এসএসকেএম হাসপাতালে হতে পারে। কিন্তু চিকিৎসার সাধ্য পরিবারের নেই। টলিউডের কলাকুশলীর মাধ্যমে সেই খবর পেয়েছিলেন ডায়মন্ড হারবারের সাংসদ অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের (Abhishek Banerjee) টিম। খবর পাওয়া মাত্র ঝাঁপিয়ে পড়ে তাঁর দল। তাঁদের মানবিক চেষ্টায় বাঁচল একরত্তির প্রাণ। জানা গিয়েছে, একরত্তির অস্ত্রোপচারের সমস্ত খরচ দেবেন খোদ সাংসদ।  

টলিউডের ফিল্ম এডিটর অনির্বাণ মাইতি। বিভিন্ন সময় মানুষের পাশে দাঁড়ান। ফেসবুকে তাঁকে এক মহিলা জানান শিশুটির শারীরিক সমস্যার কথা। অনির্বাণ জানতে পারেন, নদিয়া জেলার হরিণঘাটার নগরউখড়ার মহাদেবপুরের বাসিন্দা পুজা দেবনাথ দমদমের এক নার্সিংহোমে সন্তানের জন্ম দিয়েছেন। জন্মের পরই সদ্যোজাতর হৃদযন্ত্রে সমস্যা ধরা পড়ে। যার চিকিৎসা খুব ব্যয় সাপেক্ষ। পরিবারের সেই চিকিৎসা করারনোর ক্ষমতা নেই। আর সরকারি হাসপাতাল এসএসকেএমে ভরতি করার মতো চেনাজানা নেই তাঁদের।

[আরও পড়ুন: পার্কিং নিয়ে বচসার জের, মহিলা সবজি বিক্রেতাকে বেধড়ক মার চিকিৎসকের]

গোটা বিষয়টি সোশ্যাল মিডিয়ায় পোস্ট করেন ঘোষিত বামপন্থী অনির্বাণ। অন্য কেউ এগিয়ে আসারা আগেই সহায়তার হাত বাড়িয়ে দেন তৃণমূলের সর্বভারতীয় সাধারণ সম্পাদক অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের টিম। পোস্টের কয়েক ঘণ্টার মধ্যে দমদমের নার্সিংহোমে ছুটে যান তাঁরা। শেষ পাওয়া খবর অনুযায়ী, সদ্যোজাতকে এক বেসরকারি হাসপাতালে ভরতি করার ব্যবস্থা করেছেন তিনি। আরটি পিসিআর পরীক্ষার পর জরুরি বিভাগে ভরতি করা হয়েছে তাকে। দ্রুত চিকিৎসা শুরু হবে।

 

[আরও পড়ুন: Tsunami: জেগে উঠেছে সমুদ্রগর্ভের ‘ঘুমন্ত দানব’, সুনামির আশঙ্কায় কাঁটা আমেরিকা-রাশিয়া-সহ একাধিক দেশ]

সাংসদের টিমের এহেন আচরণে মুগ্ধ টলিউডের কুশলী। ফেসবুকে তিনি লিখেছেন, “দলমত নির্বিশেষে সবাই যেভাবে একটি বাচ্চার জন্য করলেন তা অকল্পনীয়। আসলে একটা বাচ্চা তো শুধু বাচ্চা নয়, আসলে ভবিষ্যৎ। আমরা আমাদের ভবিষ্যতকে বাঁচানোর চেষ্টা করলাম শুধু। আবার আমরা ঝগড়া করবো, মারামারি করব, খুনোখুনিও করব। কিন্তু কোন শিশুর জন্য সবাই মিলে লড়ার এই রাতটাকে কেউ মুছে ফেলতে পারবে না আমাদের মন থেকে।” রাজনৈতিক মহল বলছে, যেভাবে দলমতের বেড়া ভেঙে শিশুটিকে বাঁচাতে অভিষেকের টিম ঝাঁপিয়ে পড়ল তা নজিরবিহীন।

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে