BREAKING NEWS

৯ আশ্বিন  ১৪২৭  সোমবার ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

মমতাই ভরসা! শাহরুখের সিনেমার নামে তৃণমূলের নয়া প্রচার অভিযান ‘ম্যায় হুঁ না’

Published by: Sandipta Bhanja |    Posted: August 28, 2020 9:20 am|    Updated: September 1, 2020 5:35 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: দিদিই মুশকিল আসান! তরী পার করবেন তিনিই। জনসাধারণকে এমনই ভরসা জুগিয়ে শাহরুখ খানের (Shah Rukh Khan) জনপ্রিয় সিনেমা ‘ম্যায় হুঁ না’র (Main Hoon Nah) নামে নতুন ক্যাম্পেইন চালু করল তৃণমূল। বৃহস্পতিবার রাতে সকলকে চমকে দিয়ে নয়া প্রচার অভিযানের এক ঝাঁ চকচকে ফিল্মি পোস্টার প্রকাশ্যে আনল তৃণমূল। স্বভাবসিদ্ধ ভঙ্গিতে জনসমক্ষে আঙুল তুলে দাঁড়িয়ে রয়েছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় (Mamata Banerjee), যেন তিনিই একমাত্র ভরসা। আর সেই পোস্টারের মাথায় লেখা- ‘ম্যায় হুঁ না’।

উল্লেখ্য, একুশে জুলাইয়ের মঞ্চ থেকেই দলীয় কর্মীদের আত্মবিশ্বাস জোগাতে ‘হাম হ্যায় না’ বলে সুর চড়িয়েছিলেন তৃণমূল সুপ্রিমো। তবে ওটা মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সহজাত মন্তব্য হলেও দলের এই নয়া ক্যাম্পেইন ‘ম্যায় হুঁ না’ যে আদতে একুশের নির্বাচনী লড়াইয়ের প্রস্তুতির অন্য এক ইঙ্গিত, তা টুইটেই স্পষ্ট। বাংলার ব্র্যান্ড অ্যাম্বাসাডর শাহরুখ খানের জনপ্রিয় সিনেমার নামেই ক্যাম্পেইনের নামকরণের ক্ষেত্রে ভরসা রেখেছেন তাঁর প্রিয় ‘দিদি’।

এর আগে ফিল্মি সংলাপকে হাতিয়ার করে করোনা মোকাবিলায় কলকাতা পুলিশের সতর্কতামূলক প্রচার অভিযান দেখা গিয়েছিল বটে! মুম্বইতেও জনসচেতনা প্রচারের কাজে ফিল্মি কায়দা অবলম্বন করা হলেও রাজনৈতিক দলের ক্যাম্পেইনে সিনেমার নাম কিংবা সংলাপের প্রভাব খুব একটা দেখা যায় না! বিশেষত বাংলায়। বিগত কয়েক দশকে সম্ভবত বাংলার কোনও রাজনৈতিক দলই তাদের ক্যাম্পেইনের ক্ষেত্রে সিনেমার নামের আশ্রয় নিয়েছে বলে মনে পড়ে না।

তা কেন এই অভিনব পোস্টার? তা বলাই বাহুল্য। বাংলার মানুষ কেন বিপদে-আপদে দিদির উপর ভরসা করবেন তৃণমূলের অফিশিয়াল টুইটার হ্যান্ডেলে এই নয়া পোস্টার পোস্ট করে তা সাফ জানিয়ে দেওয়া হয়েছে।
টুইটে উল্লেখ, “এই সময়ে দেশের মানুষ এক অনিশ্চয়তা এবং উদ্বেগের মধ্যে দিয়ে যাচ্ছে। কেন্দ্রের বিজেপি সরকার এই পরিস্থিতিতে দেশের পড়ুয়াদের এক বিপদের মুখে ফেলে দিয়েছে। আর তার রেশ ধরেই ছাত্রছাত্রীদের নিরাপদ পরিবেশ নিশ্চিত করার জন্য এই জ্বলন্ত সমস্যা নিয়ে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় এগিয়ে এসেছেন। তিনিই প্রকৃতপক্ষে প্রত্যেকের নেত্রী!”

[আরও পড়ুন: ৪৯ দিন ভেন্টিলেশনে নিউমোনিয়ার সঙ্গে লড়াই করে সুস্থ বাহাত্তরের বৃদ্ধা, AMRI-এ নজির]

জয়েন্ট-নিট নিয়ে কেন্দ্রের বিরুদ্ধে প্রথম থেকেই রণংদেহি মেজাজে ময়দানে নেমেছেন মমতা। বুধবারই সোনিয়া গান্ধীর ডাকা বৈঠকে সাত অবিজেপি মুখ্যমন্ত্রীর ভিডিও কনফারেন্সে মমতাই ছিলেন মধ্যমণি। হুঁশিয়ারি দিয়ে বলেওছেন, পরীক্ষা স্থগিত না করলে সুপ্রিম কোর্টে যাবেন। প্রয়োজনে গণআন্দোলনও গড়ে তুলবেন! এবার এই নয়া পোস্টার প্রকাশ্যে এনে ছাত্রছাত্রীদের ভরসা জোগালেন যে তিনি রয়েছেন, তাদের জন্য লড়ে যাবেন।

রাজনৈতিক মহলের অন্দরের জল্পনা অনুযায়ী এই স্লোগান আর পোস্টার হয়তো টিম পিকের মস্তিষ্কপ্রসূত। উল্লেখ্য, তৃণমূলের প্রচার ও কৌশল নির্ধারণের দায়িত্ব প্রশান্ত কিশোরের হাতে যাওয়ার পরই প্রথম ক্যাম্পেইন ছিল, ‘দিদিকে বলো’। এবার বাংলার মানুষকে ভরসা জোড়াতে টিম পিকের আরও এক অস্ত্র যে ‘ম্যায় হুঁ না’, তা বোধহয় আর আলাদা করে বলার প্রয়োজন রাখে না!

[আরও পড়ুন: চিকিৎসা পরিষেবায় নয়া নজির, ব্রেস্ট এন্ডোক্রাইন সার্জারি বিভাগ খুলতে চলেছে মেডিক্যালে]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement