BREAKING NEWS

৭ আশ্বিন  ১৪২৭  বুধবার ২৩ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

লাইনে ফাটল, বিপর্যস্ত শিয়ালদহ-বনগাঁ শাখার ট্রেন চলাচল

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: January 18, 2018 3:28 am|    Updated: January 18, 2018 7:49 am

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: কাজের দিন সাত সকালে চূড়ান্ত ভোগান্তির শিকার হলেন রেল যাত্রীরা। দমদম মেন ও দমদম ক্যান্টনমেন্ট স্টেশনের মধ্যে রেল লাইনে ফাটলের কারণে ব্যাহত হয়ে পড়ে ট্রেন চলাচল। ওই লাইনের পরপর বেশ কয়েকটি লোকাল ট্রেন দাঁড়িয়ে পড়ে। ফলে প্রতিটি ট্রেনই গন্তব্যে পৌঁছয় সময়ের চেয়ে অনেকখানি দেরিতে। আটকে পড়ে কলকাতা খুলনা বন্ধন এক্সপ্রেসও। দুরপাল্লার যাত্রীদেরও সমস্যায় পড়তে হয় বেশ খানিকক্ষণের জন্য।

[অভিযুক্তর পাশে দাঁড়িয়ে ঐত্রীর পরিবারের বিরুদ্ধেই থানায় আমরি কর্তৃপক্ষ]

বৃহস্পতিবার কর্মব্যস্ত দিনের সকালে লাইনে ফাটল দেখা যাওয়ায় স্বাভাবিকভাবেই সমস্যায় পড়েন নিত্যযাত্রীরা। অফিসযাত্রী থেকে স্কুল-কলেজ পড়ুয়ারা, কেউই নির্দিষ্ট সময়ে নিজেদের গন্তব্যে পৌঁছতে পারেননি। এই ফাটলের কারণে শিয়ালদহ-বনগাঁ শাখাতেও ট্রেন চলাচল ব্যাহত হয়ে পড়ে। ফাটল সারাতে ২০ মিনিটেরও বেশি সময় লেগে যায়। তবে ট্রেন চলাচল আপাতত স্বাভাবিক হয়েছে বলেই জানা যাচ্ছে।

[খেলার মাঠ দখলকে কেন্দ্র করে মাদ্রাসায় তাণ্ডব দুষ্কৃতীদের, আহত ২ ছাত্রী]

শহরে জাঁকিয়ে শীত পড়েছে। তার উপর সকালে কুশায়ার চাদরও গায়ে জড়িয়েছে কলকাতা-সহ অন্যান্য জেলাগুলি। যার ফলে অনেক ট্রেনই দেরিতে ছাড়ছে। তাছাড়া সম্প্রতি ওভারহেডের তার ছিঁড়ে গিয়েও কাজের দিনে ট্রেন চলাচল ব্যাহত হয়েছিল। এসব সমস্যার মধ্যেই এদিন রেল লাইনে ফাটল বিপাকে ফেলল যাত্রীদের। যদিও এই ফাটলে কোনও দুর্ঘটনা ঘটেনি। ফাটল মেরামতির পর আপাতত স্বাভাবিকভাবেই ট্রেন চলছে বলে রেল সূত্রে খবর। তবে এমন ব্যস্ত রুটে কেন বারবার সমস্যায় পড়তে হবে, এ নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন নিত্যযাত্রীরা। রেল কর্তৃপক্ষর উপর ক্ষোভ উগরে দিয়েছেন তাঁরা।

[ডিভোর্স চেয়ে আদালতে, নিজের খরচে দম্পতিকে হোটেলে পাঠালেন বিচারক]

ছবি প্রতীকী।

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement