৩১ শ্রাবণ  ১৪২৬  শনিবার ১৭ আগস্ট ২০১৯ 

BREAKING NEWS

Menu Logo মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও বাঁকা কথা ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

৩১ শ্রাবণ  ১৪২৬  শনিবার ১৭ আগস্ট ২০১৯ 

BREAKING NEWS

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: প্রশ্নফাঁস রুখতে এবার আরও তৎপর উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা সংসদ। বুধবার সংসদের তরফে জানানো হয়েছে, আগামী বছর অর্থাৎ ২০২০ সালের উচ্চমাধ্যমিকে প্রশ্নপত্রেই উত্তর লিখতে হবে পরীক্ষার্থীদের। এতে প্রশ্নফাঁস হওয়ার সম্ভবনা থাকবে না বলেই মনে করা হচ্ছে। 

[আরও পড়ুন: ছেলের অভিযোগ শুনে কলেজে গিয়ে ‘দাদাগিরি’ পঞ্চায়েত প্রধানের, ধুন্ধুমার পলাশীতে]

মাধ্যমিক, উচ্চমাধ্যমিকে প্রশ্নফাঁসের ঘটনায় বারবার কাঠগড়ায় তোলা হয়েছে মধ্যশিক্ষা পর্ষদ ও উচ্চমাধ্যমিক শিক্ষা সংসদকে। শেষ কয়েক বছরে পরীক্ষা শুরুর কিছুক্ষণের মধ্যেই প্রশ্নপত্র ছড়িয়ে পড়ার নজিরও মিলেছে। এবছর মাধ্যমিকে সব পরীক্ষার প্রশ্নপত্রই পরীক্ষা শুরুর কিছুক্ষণের মধ্যেই হোয়াটসঅ্যাপে ছড়িয়ে পড়েছিল। সেই কারণে ২০১৯ সালের উচ্চমাধ্যমিকের প্রশ্নফাঁস রুখতে একাধিক নির্দেশিকা জারি করেছিল উচ্চমাধ্যমিক শিক্ষা সংসদ। পরীক্ষাকেন্দ্রে মোবাইল নিয়ে প্রবেশ রুখতে পরীক্ষা কেন্দ্রগুলিতে মেটাল ডিটেক্টর পাঠানো হয়েছিল সংসদের তরফে। তা সত্ত্বেওও বেশ কিছু স্কুল থেকে অশান্তির খবর এসেছিল।

২০১৯-এর উচ্চমাধ্যমিকের ফল ঘোষণার দিনই পরীক্ষা পদ্ধতিতে বদল আনার ইঙ্গিত দিয়েছিলেন সংসদ সভাপতি মহুয়া দাস। বুধবার উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা সংসদের তরফে জানানো হয়, ২০২০ সালের উচ্চ মাধ্যমিকে প্রশ্নপত্রেই লিখতে হবে উত্তর। কিন্তু প্রশ্নপত্রে উত্তর লিখতে হলে নির্ধারিত জায়গা নিয়ে বিপাকে পড়তে পারে পড়ুয়ারা। সেক্ষেত্রে আলাদা পাতা নেওয়া যাবে বলে জানানো হয়েছে সংসদের তরফে।

[আরও পড়ুন: তিন বছর ধরে স্কুলে রয়েছে প্রধান শিক্ষক, সেই পদেই ফের নিয়োগ করল এসএসসি]

সংসদের এই সিদ্ধান্ত সম্পর্কে প্রশাসনের তরফে জানানো হয়েছে, পরীক্ষা শুরুর পর পরীক্ষাকেন্দ্রের জানলা দিয়ে ফাঁস হয়ে যাচ্ছে প্রশ্নপত্র। নয়া পদ্ধতিতে এই পদ্ধতিতে প্রশ্নফাঁস সম্ভব হবে না বলেও মনে করা হচ্ছে। প্রসঙ্গত, কয়েকদিন আগেই আরও একটি সিদ্ধান্ত নিয়েছে উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা সংসদ। জানানো হয়েছে, আগামী বছর থেকেই ফলপ্রকাশের পর অনলাইনে আবেদন করে উত্তরপত্র দেখার সুযোগ পাবে পড়ুয়ারা। বলা যেতেই পারে, ২০২০ এর উচ্চমাধ্যমিক পরীক্ষার্থীদের জন্য অনেকটাই অন্যরকম হবে গোটা প্রক্রিয়া।

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং