BREAKING NEWS

১৪ মাঘ  ১৪২৯  রবিবার ২৯ জানুয়ারি ২০২৩ 

READ IN APP

Advertisement

পঞ্চায়েতে দিকে দিকে সংঘর্ষ, ভোটকর্মীদের অভয় দিতে মাঠে নামল কমিশন

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: April 7, 2018 8:04 pm|    Updated: April 7, 2018 8:04 pm

West Bengal panchayat poll: SEC to give security to officials

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ভোটের উত্তাপে পুড়েছে রাজ্য। মনোনয়ন জমা দেওয়াকে কেন্দ্র করে চলছে জেলায় জেলায় তাণ্ডব। রক্তাক্ত বাংলা। বোমা-গুলি। জেলায় জেলায় অস্ত্র নিয়ে বিজেপির মিছিল আতঙ্ক আরও বাড়িয়েছে। রাজ্যজুড়ে তৈরি হয়েছে নৈরাজ্যের পরিস্থিতি। উত্তপ্ত এই পরিস্থিতিতে দাঁড়িয়ে এবার ভোটকর্মীদের অভয় দিতে মাঠে নামল নির্বাচন কমিশন। ভোট কর্মীদের নিরাপত্তা নিশ্চিত করার পাশাপাশি, যাঁরা নমিনেশন দিতে পারবেন না, তাঁদের জন্য এবার মহকুমা শাসকের দপ্তরে মনোনয়ন জমা দেওয়ার ব্যবস্থা রাখার সিদ্ধান্ত নিয়েছে রাজ্য নির্বাচন কমিশন।

[গ্রামের ১৩টি আসনেই মহিলা প্রার্থী, মানবাজারের বিশরীতে নজির তৃণমূলের]

আজ, শনিবার অবজারভারদের সঙ্গে বৈঠকে বসেন মুখ্য নির্বাচন কমিশনার অমরেন্দ্রকুমার সিং। দীর্ঘ বৈঠকে অবজারভারদের সুবিধা-অসুবিধার কথা গুরুত্ব দিয়ে শোনেন তিনি। কর্মীদের বুথে যেতে কী কী সমস্যার হতে পারে, তার জন্য কমিশন কী কী ব্যবস্থা নিতে পারে, তা নিয়ে এদিন বিস্তারিত আলোচনা হয়।

বৈঠক শেষে রাজ্য নির্বাচন কমিশনার সংবাদমাধ্যমের প্রতিনিধিদের বলেন, ‘‘সকাল থেকে খবর পাচ্ছি, জেলায় জেলায় নৈরাজ্য তৈরি হয়েছে। (অবজারভারদের লক্ষ্য করে) আপনারা সরকারি আধিকারিক। এখানে আপনাকে কমিশনের হয়ে কাজ করতে হবে। আপনারা কমিশনের চোখ ও কান।’’

[পঞ্চায়েত ভোটের উৎসবে রাজ্যের কোষাগার থেকে খসতে চলেছে বিপুল অর্থ]

ভোট কর্মীদের নিরাপত্তা প্রসঙ্গটিও এদিন গুরুত্ব দিয়ে দেখা হয়। রাজ্যের একের পর এক ঘটে চলা হিংসার ঘটনা দেখে আতঙ্কে গুটিয়ে না থেকে অবজারভারদের সরাসরি কমিশনের সঙ্গে যোগাযোগ করারও পরামর্শ দেন কমিশনার। প্রয়োজনে পুলিশ-প্রশাসন ভোটকর্মীদের নিরাপত্তা দেবে বলেও এদিন সাফ জানিয়ে দেন তিনি। ভয় না পেয়ে আগামী ৯ এপ্রিলের মধ্যে অবজারভারদের ব্লকে পৌঁছে যাওয়ারও নির্দেশ দেন তিনি।

কেননা, পঞ্চায়েত নির্বাচনকে কেন্দ্র করে বিজেপির বেপরোয়া তাণ্ডব ও সিপিএম-কংগ্রেসের লাগাতার গন্ডগোলের জেরে উত্তপ্ত বাংলা। এই পরিস্থিতি দাঁড়িয়ে সুষ্ঠুভাবে নির্বাচন পরিচালনা যে কঠিন হয়ে পড়েছে, তা নিয়ে বেশ উদ্বিগ্ন কমিশনের কর্তারা। চিন্তায় ভোটকর্মীরা। ভোট করা নিয়ে কর্মীরা যাতে নিরাপত্তার অভাব অনুভব না করেন, তা নিশ্চিত করাটাই কমিশনের কাছে বড় চ্যালেঞ্জ।

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে