২ অগ্রহায়ণ  ১৪২৬  মঙ্গলবার ১৯ নভেম্বর ২০১৯ 

Menu Logo মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও বাঁকা কথা ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

রূপায়ণ গঙ্গোপাধ্যায়: কাশ্মীরে ৩৭০ ধারা বাতিল হওয়া নিয়ে মোদি সরকারকে কম সমালোচনা শুনতে হয়নি। বিরোধীরা, বিশেষ করে বামপন্থীরা প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির সরকারের এই সিদ্ধান্তের তীব্র বিরোধিতা করেছে। আন্তর্জাতিক মহলেও পাকিস্তান ভারত সরকারকে চাপে ফেলার সাধ্যমতো চেষ্টা করেছে। যদিও, পাকিস্তানের সেই উদ্দেশ্য সফল হয়নি। আন্তর্জাতিক মহলে পাকিস্তানকে হারাতেও কম কাঠখড় পোড়াতে হয়নি ভারতকে। মোট কথা কাশ্মীরের বিশেষ মর্যাদা ছিনিয়ে নেওয়ার সিদ্ধান্তের পর থেকে বেশ কঠিন পরিস্থিতির সম্মুখীন হতে হয়েছে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে। তাই, এবার রাজ্য বিজেপি প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে পাশে থাকার বার্তা দিতে অভিনব সিদ্ধান্ত নিল।

BJP-letter-V

কাশ্মীরে ৩৭০ ধারা বিলোপের জন্য প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে অভিনন্দন ও ধন্যবাদ জানিয়ে পঞ্চাশ হাজার চিঠি পাঠাচ্ছে বঙ্গ বিজেপি। উদ্যোগ নিয়েছেন কলকাতা পুরসভার ২৩ নম্বর ওয়ার্ডের কাউন্সিলর বিজয় ওঁঝা। উত্তর কলকাতার কালাকার স্ট্রিটে একটি ক্যাম্প তৈরি করা হয়েছে। বানানো হয়েছে একটি প্রতীকি ডাকঘরও। ওয়ার্ডের বাসিন্দারা সেখানে এসে সই করে চিঠি ফেলছেন ডাকবাক্সে। সোমবার থেকে এই চিঠিতে সই সংগ্রহ করার কাজ শুরু হয়েছে। এরপর বাড়ি বাড়ি চিঠিতে সই সংগ্রহ করতে যাবেন বিজেপি কর্মীরা। কাশ্মীরে ৩৭০ ধারা বিলোপের সমর্থন জানিয়ে প্রধানমন্ত্রীর পাশে যে কলকাতার নাগরিকরা রয়েছে এই বার্তা দেওয়াই অন্যতম উদ্দেশ্য।

[আরও পড়ুন: কী বলছে মহারাষ্ট্র-হরিয়ানার বুথ ফেরত সমীক্ষা? দেখে নিন একনজরে ]

তবে, একই সঙ্গে এর নেপথ্যে অন্য উদ্দেশ্য থাকতে পারে বলেও মনে করছে ওয়াকিবহাল মহলের একাংশ। প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির এই সিদ্ধান্তের মূল রাজনৈতিক উদ্দেশ্য ছিল দেশপ্রেমের জিগির তোলা। বঙ্গ বিজেপি চাইছে পুর নির্বাচনের আগে কলকাতাবাসীর মধ্যেও সেই জাতীয়তাবাদ জাগিয়ে তুলতে। তাছাড়া ৩৭০ ইস্যুতে এখনও তৃণমূল কংগ্রেসের অবস্থান স্পষ্ট নয়। তাঁরা একদিকে যেমন এই সিদ্ধান্তের স্পষ্ট বিরোধিতাও করেনি। অন্যদিকে তেমনই প্রধানমন্ত্রীর সিদ্ধান্তের সমর্থনেও রাজ্যের শাসকদলের কোনও নেতাকে মুখ খুলতে দেখা যায়নি। এই পরিস্থিতিতে আগামী পুরনির্বাচনে বঙ্গ বিজেপি কাশ্মীরের ৩৭০ ধারা বাতিলকে হাতিয়ার করলে অবাক হওয়ার কিছু থাকবে না বলেই মত রাজনৈতিক মহলের।  

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং