BREAKING NEWS

১৬ চৈত্র  ১৪২৬  সোমবার ৩০ মার্চ ২০২০ 

Advertisement

গন্ধ শুঁকেই ব্রেস্ট ক্যানসার শনাক্ত করবে সারমেয়রা!

Published by: Sangbad Pratidin |    Posted: March 26, 2017 9:18 am|    Updated: December 27, 2019 4:43 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: স্তন ক্যানসারে আক্রান্তের সংখ্যা বাড়ছে দিন দিন। অধিকাংশ ক্ষেত্রেই দেখা যায় সঠিক সময়ে শনাক্ত না হওয়ার কারণেই বিপাকে পড়ছেন মহিলারা। সচেতনতার অভাবও এর একটা বড় কারণ। অনেকেই আবার লজ্জার কারণে পরীক্ষা করাতে চান না। এবার এ থেকে মুক্তি মিলতে পারে। কেননা স্রেফ গন্ধ শুঁকেই স্তন ক্যানসার শনাক্ত করতে পারবে সারমেয়রা।

মহিলাদের প্রশংসা করতে গিয়ে যে কথা একেবারেই বলবেন না ]

ইউএসজির মাধ্যমেই এতদিন এ পরীক্ষা করা হতে। তবে সম্প্রতি পোশাক না খুলেও স্রেফ রক্ত পরীক্ষার মাধ্যমেই ক্যানসার শনাক্তকরণের পদ্ধতিও আবিষ্কৃত হয়েছে। কিন্তু প্রত্যন্ত গ্রামাঞ্চলে এখনও এ ধরনের সুযোগ সুবিধা পৌঁছয়নি। ফলে অবস্থা যে তিমিরে ছিল সে তিমিরেই। সে পরিস্থিতি মাথায় রেখেই এবার এই নয়া প্রকল্প নেওয়া হয়েছিল। প্যারিসে দুটি জার্মান শেফার্ডকে এ ব্যাপারে প্রশিক্ষণ দেওয়া হয়। টিউমারের সংস্পর্শে থাকা কাপড়ের গন্ধ শুঁকেই এ দুটি সারমেয় বলে দিতে পারে, স্তনে ক্যানসার আছে না নেই। প্রশিক্ষণের পর প্রথম দফায় নব্বই শতাংশ সঠিকভাবে শনাক্ত করতে পেরেছিল সারমেয় দুটি। পরের বার একেবারে নিখুঁত ছিল তাদের শনাক্তকরণ। পুরো প্রকল্পের নেতৃত্ব দিয়েছেন ইসাবেলা ফ্রোম্যান্টিন। তিনি জানাচ্ছেন, ক্যানসার বিশেষজ্ঞ, প্যাথলজিক্যাল সেন্টার এ সব তো আছেই। কিন্তু এখনও প্রত্যন্ত অঞ্চলে এ সুযোগ সুবিধা মেলে না। সেক্ষেত্রে এই প্রকল্প কার্যকরী হবে। এক্ষেত্রে শুধু পোশাকই পরীক্ষার উপকরণ।

[ বিয়ের আগে পার্টনারের থেকে এ সব প্রশ্নের উত্তর অবশ্যই জেনে নিন ]

ক্যানাইন গোত্রের প্রাণীদের এই ক্ষমতা আছে। গন্ধ শুঁকেই তারা বিভিন্ন জিনিস শনাক্ত করতে পারে। এই দক্ষতা কাজে লাগানো হয় সামরিক বা নিরাপত্তা ক্ষেত্রেও। চিকিৎসা ক্ষেত্রেও তার প্রয়োগ ঘটাতেই এই নয়া প্রকল্প। পরীক্ষামূলক পর্যায় থেকে এই প্রকল্প যদি বাস্তবে ব্যাপক হারে প্রয়োগ করা হয়, তবে স্তন ক্যানসার শনাক্তকরণের পথ আরও অনেক সহজ হবেই বলে বিশ্বাস বিশেষজ্ঞদের।

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement