২৯ ভাদ্র  ১৪২৬  সোমবার ১৬ সেপ্টেম্বর ২০১৯ 

Menu Logo পুজো ২০১৯ মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও বাঁকা কথা ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক:  হাতে মিষ্টির প্যাকেট ঝুলিয়ে শ্বশুরবাড়ি যাচ্ছেন? রসে-বশে কতই না আয়োজন করে রেখেছেন শ্বাশুড়ি ঠাকুরণ৷ কিন্তু, আপনার মনটা কেমন যেন আনচান করছে৷ বারবার রুমাল দিয়ে কপালের ঘাম মুছছেন৷ নতুন পাঞ্জাবিটা ভিজে জবজব করছে৷ শ্বশুরবাড়ি ঢুকলেই কেমন যেন একটা টেনশন কাজ করে? হামেশা চিন্তা লেগে থাকে? শ্বাশুড়ির সঙ্গে কথা বলতে গিয়ে তোতলাতে থাকেন?  আপনার ‘পেন্থেরাফোবিয়া’ নেই তো?

গ্রিক শব্দ ‘পেন্থেরা’র অর্থ শ্বাশুড়ি এবং ‘ফোবিয়া’র অর্থ ভয়৷ অর্থাৎ সর্বসাকুল্যে অর্থ যা দাঁড়াল, ‘পেন্থেরাফোবিয়া’ শব্দের অর্থ শ্বাশুড়িভীতি৷ বছরের একটা দিন জামাইরা যতই আম, লিচু, কলা সহযোগে শ্বাশুড়ি মায়ের আদর খান, কম-বেশি সবাই স্ত্রীয়ের মা-ঠাকুরণকে একটু সমঝেই চলেন৷ মনের কোণে একটু ভয় তো লেগেই থাকে৷ এই বুঝি কিছু একটা ভুল হয়ে গেল৷

তবে, একটু ভুলে ভয় পাওয়ার কিছু নেই৷ খুব বেশি ভয় কাজ করলে তবেই চিন্তার বিষয়৷ যেমন শ্বাশুড়ির সামনে টেনশনে ঘামতে থাকা, ভয়ে গলা শুকিয়ে যাওয়া, তোতলাতে থাকা ইত্যাদি৷ এই সব বৈশিষ্ট্য যদি আপনার মধ্যে থাকে, তাহলেই বুঝবেন আপনি ‘পেন্থেরাফোবিয়া’র শিকার৷ এই ফোবিয়াকে একেবারেই হাল্কাভাবে নেবেন না৷ কারণ এর প্রভাব আপনার বিবাহিত জীবনে পড়তে পারে৷ তাই এই বৈশিষ্ট্যগুলি আপনার মধ্যে থাকলে অবিলম্বে যোগাযোগ করুন মনোবিদের সঙ্গে৷ তবে তার আগে জামাইষষ্ঠীর ভূরিভোজটা সেরে নিতেই পারেন নিশ্চিন্তে৷

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং