BREAKING NEWS

৮ মাঘ  ১৪২৮  শনিবার ২২ জানুয়ারি ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

ওয়াইফাই পেলে যৌনতাও ছাড়ছে সবাই, বলছে সমীক্ষা

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: November 21, 2016 7:04 pm|    Updated: November 21, 2016 7:04 pm

People prefer getting WiFi over sex, booze: study

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: প্রয়োজন আর বিলাসিতা- এই দুইয়ের মধ্যে পার্থক্যটা বড় সূক্ষ্ম। প্রয়োজন নিজের ঘরে চুপচাপ বসে থাকলেও বিলাসিতা মাঝে মাঝেই সীমা পেরিয়ে ফেলে। ঢুকে পড়ে প্রয়োজনের ঘরে। যেমন, নেশা! যেমন, ইন্টারনেট! যেমন, চকোলেট! সেক্সও কি আর নয়? সে তো এক হাতে ধরে থাকে প্রয়োজনকে, অন্য হাতে বিলাসিতার শর্তটাও পূরণ করে।
কিন্তু এমন দুইয়ের গতেই থাকা সেক্সকেও সম্প্রতি টেক্কা দিয়েছে ইন্টারনেট। একটু স্পষ্ট করে বললে ওয়াইফাই। অনেকেই বলে থাকেন, যৌনতাই মানুষের সবচেয়ে বড় দুর্বলতা। বিশ্বজোড়া এক সাম্প্রতিক সমীক্ষার ফলাফল যদিও সেই ধারণাকে জীর্ণ প্রমাণিত করে ছেড়েছে। ‘হিউম্যান লাক্সারিজ অ্যান্ড নেসেসিটিজ’ নামের সেই সমীক্ষার এ বছরের ফলাফল বলছে- সেক্সের চেয়েও এখন ওয়াইফাইয়ের চাহিদা বেশি মানুষের জগতে। ওয়াইফাই পেলে সবাই যৌনতাও ভোলেন!
এ বছরে এই সমীক্ষা হয়েছে মার্কিন মুলুকে আর ব্রিটিশ মুলুকে। ১৭০০ মানুষের মধ্যে চলেছে এই সমীক্ষা। এবং দেখা গিয়েছে বেশ কিছু বছর আগেও যেখানে যৌনতা, নেশা আর চকোলেট ছিল প্রথম সারিতে, এখন তারা সেই জায়গা হারিয়েছে। সবাইকে পিছনে ফেলে সবার একইসঙ্গে প্রয়োজন এবং বিলাসিতা হয়ে উঠেছে ওয়াইফাই!
সমীক্ষা বলছে, ওয়াইফাই রয়েছে ৪০.২ শতাংশ মানুষের পছন্দের তালিকায়। এর ঠিক পরেই রয়েছে যৌনতা, তার চাহিদা ৩৬.৬ শতাংশ। একে একে আসছে চকোলেট আর নেশার চাহিদা। চকোলেটকে বেছে নিয়েছেন ১৪.৩ শতাংশ এবং নেশার জন্য হাত তুলেছেন ৮.৯ শতাংশ মানুষ। না বললেও চলে, এভাবে প্রথম জায়গাটা দখল করেছে ওয়াইফাই।
অবশ্য, যৌনতা নিয়ে আগ্রহ হারানোটা বিশ্বের প্রথম সারির দেশে নতুন কিছু নয়। বছরখানেক আগেই এক সমীক্ষা প্রমাণ করে দিয়েছিল, উইক-এন্ড সেক্সের চেয়ে মার্কিন মুলুকের মহিলারা বেশি পছন্দ করছেন অর্থ উপার্জন। আরও নানা সমীক্ষা বলছে, সারা দিন কাজের চাপে ক্লান্ত হয়ে থেকে, দিনের শেষে বাড়ি ফিরে সবাই নিশ্চিন্তে ঘুমিয়ে পড়াটাই উপভোগ করছেন, সেক্স নয়। এভাবেই যৌনজীবন লাটে উঠছে বিশ্বে।
পাশাপাশি রয়েছে আরও একটা কথা। সেটা ওই বিলাসিতার প্রয়োজন হয়ে ওঠার ব্যাপার। ফোনের কথাই ধরুন না! একটা সময়ে তা ছিল আমাদের কাছে বিলাসিতা। এখন কি আর কেউ মোবাইল ফোনকেও বিলাসিতা বলবেন? সে তো এখন আমাদের প্রয়োজন। ঠিক সেভাবেই ওয়াইফাই-ও পরিণত হয়েছে মানুষের প্রয়োজনে। যার টানে সব কিছুকেই উপেক্ষা করতে তৈরি বিশ্ব!
ফলাফলটা তার ভাল কী মন্দ, তা যদিও বলা মুশকিল!

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে