BREAKING NEWS

২১ জ্যৈষ্ঠ  ১৪২৭  বৃহস্পতিবার ৪ জুন ২০২০ 

Advertisement

OMG! যৌনতায় নতুনত্ব আনার চাহিদায় ভয়ঙ্কর অবস্থা দম্পতির!

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: September 17, 2017 10:26 am|    Updated: September 28, 2019 3:46 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: যৌনতায় নতুনত্ব থাকা বাঞ্ছনীয়। কিন্তু এই নতুনত্বের চাহিদায় অতিসক্রিয়তা আবার বিপজ্জনক। না জেনেই পরীক্ষা-নিরীক্ষায় শামিল হওয়ার ফল যে কী হতে পারে তা ভালভাবেই বুঝে গিয়েছেন মার্কিন টম ও তাঁর স্ত্রী জ্যানিস মরিসন। কেমন করে? সঙ্গমে নতুনত্ব আনার চেষ্টা করতে গিয়ে মারাত্মক অবস্থা হল দম্পতির। স্ত্রীর যৌনাঙ্গে সম্পূর্ণ মাথাটিই আটকে গেল মার্কিন যুবকের।

[এক হাতে ১৫টি কাঁচি নিয়ে তাক লাগানো কীর্তি এই নাপিতের, দেখুন ভিডিও]

শুনতে অবাক লাগলেও এ খবর সত্যি। রাত দশটা নাগাদ যখন আলাবামার ফোন অপারেটর সামান্থা ইরভিংয়ের কাছে জ্যানিসের ফোনটি আসে প্রথমে তিনিও বিশ্বাস করেননি। ভেবেছিলেন কোনও বকাটে তরুণী মজা করছে হয়তো। তাও নিজের কর্তব্য পালন করেন সামান্থা। ঘটনাস্থলে একটি অ্যাম্বুল্যান্স পাঠিয়ে দেন তিনি। স্বাস্থ্যকর্মী বিল অস্টিন যখন ঘটনাস্থলে অ্যাম্বুল্যান্স নিয়ে পৌঁছন, পরিস্থিতি দেখে হতবাক হয়ে যান তিনিও। জ্যানিস বিছানায় শুয়ে যন্ত্রণায় কাতরাচ্ছিলেন। আর তাঁর যৌনাঙ্গে ফেঁসে ছিল টমের মাথা। রক্তে ভেসে যাচ্ছিল গোটা বিছানাটা। ওই ভাবেই তাঁদের হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়।

[হলিউড সিনেমায় অভিনয় করতে চলেছেন বিশ্বের সবচেয়ে লম্বা মডেল]

হাসপাতালে চিকিৎসকরা আলাদা করেন দু’জনকে। জ্যানিসের যৌনাঙ্গ বেশ ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। তবে তাঁর শারীরিক অবস্থা এখন স্থিতিশীল বলে জানা গিয়েছে। টমের আঘাত সামান্যই। কিছু আঁচড় লেগেছে মাত্র। তবে চিকিৎসকদের আশঙ্কা, এই ঘটনার আতঙ্ক অনেকদিন দম্পতির মনে রয়ে যাবে। এমন ঘটনা আমেরিকায় নতুন নয়। অস্বাভাবিকভাবে যৌন সম্পর্ক স্থাপন করতে গিয়ে এভাবেই বিপদে পড়েন মার্কিন মুলুকের হাজার হাজার বাসিন্দা। ২০১৬ সালে সংখ্যাটা ছিল প্রায় ৩,৭৮৯। তবে এভাবে যোনিতে মাথা আটকে যাওয়ার ঘটনা ২০০৭ সালের পর এই প্রথম ঘটল বলে জানিয়েছেন পুলিশ আধিকারিকরা।

[হাক্কানি নেটওয়ার্ক গুঁড়িয়ে দিতে পাকিস্তানে মার্কিন ড্রোন হামলা ]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement