BREAKING NEWS

২৮ আশ্বিন  ১৪২৭  শুক্রবার ২৩ অক্টোবর ২০২০ 

Advertisement

উৎসবের মরশুমে নিজেকে রাঙিয়ে তুলুন এই জিভে জল আনা খাবারে

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: February 25, 2018 7:32 pm|    Updated: July 11, 2018 1:58 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: দোল মানেই রং খেলা আর জমিয়ে খাওয়াদাওয়া।তাই এমন দিনে ভুলে যান ডায়েটের কথা। মন খুলে পালন করুন উৎসব। আর প্রাণ খুলে চেটেপুটে খান খাবার। তবে রসনা তৃপ্তির জন্য যে সবসময় নামী রেস্তরাঁতেই যেতে হবে এমন তো কোনও কথা নেই। ইচ্ছে থাকলে বাড়িতেও তো উপায় হয়। বানিয়ে নেওয়াই যায় ঠান্ডাই, শিকারি মাটন, মাটন ইয়াখনি পোলাও বা কেশর ভোগ-এর মতো সুস্বাদু খাবার। ভাবছেন কীভাবে বানাবেন? এই রইল আপানর জন্য রেসিপি –

ঠান্ডাই

উপকরণ:  ফুল ক্রিম দুধ ১ লিটার, চিনি স্বাদমতো, আমন্ড ৫০ গ্রাম, কাজু ২০-২৫ টা, চারমগজ ২ বড় চামচ, মৌরি বাটা ১ বড় চামচ, পোস্ত ১ বড় চামচ, কর্পূর সামান্য।

কীভাবে বানাবেন: দুধ-চিনি দিয়ে জ্বাল দিয়ে ঠান্ডা করে রাখুন। আমন্ড সারা রাত জলে ভিজিয়ে পরের দিন খোসা ছাড়িয়ে নিন। কাজু, চারমগজ, পোস্ত সারা রাত ভিজিয়ে পরের দিন মিহি করে বেটে নিন। খোসা ছাড়ানো আমন্ড বেটে নেবেন। সামান্য কর্পূর দুধে ভিজিয়ে রাখুন। মিক্সিতে কর্পূর ছাড়া সব দিয়ে ভাল করে মিশিয়ে নিন। শেষে কর্পূর ও বরফ দিয়ে পরিবেশন করুন।

Thandai_Web

শিকারি মাটন

উপকরণ: মাংস ১ কেজি, ঘি ৬/৭ বড় চামচ, শুকনো লঙ্কা ৬/৭ টা (বেটে নেওয়া), রসুন ৮/১০ টুকরো, নুন পরিমাণ মতো, হলুদ সামান্য।

কীভাবে বানাবেন: প্রেশার কুকারের গায়ে ঘি গরম করে মাংস দিয়ে কষাতে থাকুন। ১০ মিনিট কষানোর পর নুন দিন। সামান্য জলের ছিটে দিয়ে নাড়াচাড়া করুন। এর মধে্য লঙ্কা বাটা, রসুন থেঁতো করে দিয়ে দিন। আবার খানিকটা জল দিয়ে কষাতে থাকুন। এই প্রক্রিয়াটা ১৫-২০ মিনিট করুন। তারপর জল দিয়ে দিন পরিমাণ মতো। লিড দিয়ে প্রেশার উঠতে দিন। ১৫ মিনিট রাখুন। প্রেশার চলে গেলে খুলে পরিবেশন করুন।

এটা আগে মাটির হাঁড়িতে তৈরি করা হত। সময় লাগত ২ থেকে ৩ ঘণ্টা।

Sikari Mutton_Web

[পুরুষদের কোন আচরণগুলি বাধা যৌনতায়, মহিলাদের মনের কথা জানেন?]

মাটন ইয়াখনি পোলাও

উপকরণ:  মাংস ৭৫০ গ্রাম(বড় টুকরো করে কাটা), বাসমতী চাল ৫০০ গ্রাম, নুন স্বাদমতো।

কীভাবে বানাবেন: বড় পেঁয়াজ ১ টা, আদা ১ ইঞ্চি (বড় টুকরো করে কাটা), রসুন ১০/১২ কোয়া, বড় এলাচ ৩/৪ টে, ছোট এলাচ ৩/৪ টে দারুচিনি ১ স্টিক, লবঙ্গ ১৫/২০ টা, জিরে ১ বড় চামচ, ধনে (আস্ত) ১ বড় চামচ, জাফরান ১/২ টুকরো, জয়িত্রি কয়েক টুকরো, কাবাব চিনি ১ বড় চামচ, গোলমরিচ ১ বড় চামচ, শাহ্‌ জিরে ১ বড় চামচ (এগুলো একটি কাপড়ের পুঁটলিতে বেঁধে ফেলুন), শুকনো লঙ্কা ও তেজপাতা ৩/৪ টে।

ভাতের জন্য উপকরণ: পেঁয়াজ কুচি ২ টো, গরম মশলা ১ বড় চামচ (থেঁতো করা), ঘি পরিমাণ মতো।

কীভাবে বানাবেন: বাসমতী চাল কাপে মেপে নিন। তিন কাপ চাল হলে ৬ কাপ জল নিন। এবার প্রেশার কুকারের গায়ে মাংস ও জল দিয়ে মশলার পুঁটলিটা ডুবিয়ে দিন। ওপর থেকে নুন, লঙ্কা ও তেজপাতা দিয়ে ৪/৫ টি সিটি দিন।

চাল ধুয়ে আধঘণ্টা ভিজিয়ে রাখুন। এবার কড়াইতে ঘি গরম করে তেজপাতা-গরম মশলা ফোড়ন দিন। সুগন্ধ বের হলে পেঁয়াজটা ভেজে নিন।

প্রেশারের চাপ খুলে মাংস ও জল আলাদা করে রাখুন। মশলার পুঁটলিটা সরিয়ে দিন।

পেঁয়াজ ভাজা হলে চাল ও মাংস দিয়ে সামান্য ভেজে মাংস সেদ্ধর জল দিয়ে দিন। এবার চাল সেদ্ধ হতে দিন। ভাল করে চাপ দিন। আঁচ কম করে নিন। তলা পুরু পাত্রে এটি করবেন যাতে পুড়ে না যায়। চাল সেদ্ধ হলে তেজপাতা ও শুকনো লঙ্কা সরিয়ে পরিবেশন করুন।

Polao_Web

কেশর ভোগ

উপকরণ:  সুজি ১০০ গ্রাম, চিনি ৭৫ গ্রাম, কেশর ১/২ চা চামচ, উষ্ণ গরম দুধ ২ বড় চামচ, ঘি ১০০ গ্রাম, কাজু ও কিশমিশ পরিমাণ মতো, জল ১ কাপ, বড় এলাচ গুঁড়ো ১ চা চামচ।

Kesar Bhog

কীভাবে বানাবেন: সুজির মাপে জল নিয়ে নিন। ১ কাপ সুজি হলে ১ কাপ জল নেবেন। কড়াইতে ঘি গরম করে সুজিটা ভেজে নিন। পাশের ফ্লেমে ১ কাপ জল দিয়ে চিনি দিয়ে রস করে নিন। সুজিটা ভাজা হলে রসের মধ্যে ঢেলে দিন। আঁচ কম করে নাড়তে থাকুন। গরম দুধে জাফরান ভিজিয়ে রাখুন ১০ মিনিট। সুজির মধ্যে এলাচ গুঁড়ো, কাজু, কিশমিশ ও জাফরান মিশিয়ে দিন। ইচ্ছে হলে ওপর থেকে আরও ঘি  ছড়াতে পারেন। ছোট ছোট বাটির মধ্যে রাখুন। পরিবেশনের সময় প্লেটে বাটি উলটে পরিবেশন করুন।

[বাড়তি মেদ ঝরাতে টমেটোর জুড়ি মেলা ভার, দাবি বিশেষজ্ঞদের]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement