২০ অগ্রহায়ণ  ১৪২৬  শনিবার ৭ ডিসেম্বর ২০১৯ 

Menu Logo মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও বাঁকা কথা ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

২০ অগ্রহায়ণ  ১৪২৬  শনিবার ৭ ডিসেম্বর ২০১৯ 

BREAKING NEWS

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: এই উইকএন্ডটাও চলে গেল জীবনের ইতিহাসের খাতায়৷ অথচ কোথাও যাওয়া হয়ে উঠল না৷ আবার শুরু কাজে ভরা সপ্তাহ৷ প্রতিবারই মনে হয় কোথাও একটা যাই৷ কিন্তু, সময়ের অভাবে যাওয়া হয়ে ওঠে না আপনার৷ কাছে পিঠে দিঘা, শান্তিনিকেতন তো অনেক হয়েছে৷ এবারে যেন অন্য কিছু চাইছে মন৷

আপনার মনের খাতিরেই পুরুলিয়ার মাটিতে রয়েছে ইতিহাসের এই জীবন্ত নিদর্শন৷ দেউলঘাটার কংসাবতী নদীর তীরে আজও পাল ও সেন যুগের ঐতিহ্য বহন করে রয়েছে ১৫টি ঐতিহাসিক মন্দির৷

Temple_Deulghata_Purulia_21

কী দেখবেন –

  • ১৫টি মন্দিরের প্রত্যেকটিতে রয়েছে ইতিহাসের এক নতুন কাহিনি৷ যা আপনাকে স্মৃতি সরণিতে নিয়ে যেতে বাধ্য৷
  • ভগ্নপ্রায় হলেও প্রত্যেকটি মন্দিরের দেওয়ালে রয়েছে সে যুগের ইতিকথা৷
  • মন্দির দেখা শেষ হলে পুরুলিয়ার বিস্তীর্ণ সবুজ প্রান্তর অপেক্ষা করে থাকবে শুধু আপনার জন্য৷
  • ছোট ছোট পাহাড়গুলিতে উঠে পড়লে কোনও বিশাল শৃঙ্গ জয়ের থেকে কম আনন্দ পাবেন না৷

Deulghata_campsite_a_709x448

কীভাবে যাবেন –

পুরুলিয়া সদর থেকে ১৬ কিলোমিটার দূরে অবস্থিত দেউলঘাটা৷ কাছের স্টেশন জয়পুর৷ কলকাতা থেকে রূপসী বাংলা এক্সপ্রেস, হাওড়া-পুরুলিয়া এক্সপ্রেস ও আদ্রা প্যাসেঞ্জার ট্রেন ধরতে হবে৷ চার ঘণ্টা সময় লাগবে পৌঁছতে৷ সড়ক পথে গাড়ি বুক করে যেতে চাইলে তাতে ছয় ঘণ্টা সময় লাগবে৷

কোথায় থাকবেন –

সেরকমভাবে এখনও কোনও ঠিকঠাক থাকার জায়গা তৈরি হয়নি দেউলঘাটায়৷ তবে, পুরুলিয়া শহরে আপনি ভাল হোটেল পেয়ে যাবেন৷ দিনের শুরুতে গাড়ি বুক করে দেউলঘাটায় রওনা দিলেই হবে৷ আর হ্যাঁ, খাবার ও পানীয় জল অবশ্যই সঙ্গে করে নিয়ে যাবেন৷

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং