BREAKING NEWS

১৩  আষাঢ়  ১৪২৯  মঙ্গলবার ২৮ জুন ২০২২ 

READ IN APP

Advertisement

Advertisement

রামের মাহাত্ম্য বোঝাতে দুই দেশকে ছুঁয়ে ৮ হাজার কিমি ছুটবে ‘শ্রী রামায়ণ যাত্রা’ ট্রেন

Published by: Biswadip Dey |    Posted: May 6, 2022 12:36 pm|    Updated: May 6, 2022 12:36 pm

IRCTC To Run Its First Bharat Gaurav Tourist Train On Jun 21। Sangbad Pratidin

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ১৮ দিন। ৮ হাজার কিলোমিটার। রামায়ণের (Ramanaya) সঙ্গে সম্পৃক্ত নানা দর্শনীয় স্থানকে ছুঁয়ে দীর্ঘ সফর করবে প্রথম ভারত গৌরব ট্যুরিস্ট ট্রেন (Bharat Gaurav Tourist train)। যার আরেক নাম ‘শ্রী রামায়ণ যাত্রা’ ট্রেন। কেবল ভারত নয়, যাত্রীদের নিয়ে যাওয়া হবে নেপালেও (Nepal)। এমনই অভিনব এক ট্রেনের পরিকল্পনা করেছে ভারতীয় রেল। ইতিমধ্যেই ট্রেনটির সম্পূর্ণ সফরসূচি ও ভাড়ার কথা ঘোষণা করেছে IRCTC। জেনে নিন বিস্তারিত।

আগামী ২১ জুন শুরু হবে ট্রেনটির যাত্রা। প্রথম গন্তব্য রামের জন্মস্থান অযোধ্যা। পর্যটকরা সুযোগ পাবেন শ্রীরাম জন্মভূমি মন্দির ও হনুমান মন্দিরে যাওয়ার। পাশাপাশি রামের অনুজ ভরতের মন্দির, যা নন্দীগ্রামে অবস্থিত, সেই ভরত মন্দিরেও নিয়ে যাওয়া হবে পর্যটকদের।
এরপর ট্রেন যাবে বিহারের বক্সারে। মহর্ষি বিশ্বামিত্রের আশ্রম ঘুরে রামরেখা ঘাটে গঙ্গাস্নান সেরে পর্যটকরা এরপর পৌঁছে যাবেন সীতামারিতে। সীতামারি সীতার জন্মস্থান। সেখান থেকে সড়কপথে তাঁদের নিয়ে যাওয়া হবে নেপালের জনকপুরে। জনকপুরের রাম-জানকী মন্দির দর্শন করে সেখানকার হোটেলে একরাত কাটিয়ে পরের দিন ট্রেন এগিয়ে চলবে পরের গন্তব্যের দিকে।

[আরও পড়ুন: উত্তরপ্রদেশে থানার ভিতরেই মহিলাকে নগ্ন করে বেল্ট দিয়ে পেটাল পুলিশ! সাসপেন্ড দুই আধিকারিক]

সীতামারির পরে ট্রেন পৌঁছবে বারাণসীতে। কাশীতে সীতামন্দির দেখার পাশাপাশি প্রয়াগ, শ্রিংভেরপুর ও চিত্রকূটে পর্যটকদের নিয়ে যাওয়া হবে সড়কপথে। রাতে রাখা হবে হোটেলে।
এরপর ট্রেন যাবে নাসিকে। সেখানে ত্রম্বকেশ্বরের মন্দির ও পঞ্চবটী দেখার পরে এরপর পর্যটকদের গন্তব্য হাম্পি, কিষ্কিন্ধ্যা। সেখানে হনুমানের জন্মস্থান ও অন্যান্য ধর্মীয় স্থান ঘুরে দেখবেন তাঁরা।

এরপর কাঞ্চিপুরম। সেখানে পর্যটকদের নিয়ে যাওয়া হবে শিব কাঞ্চি, বিষ্ণু কাঞ্চি ও কামাক্ষী মন্দির। সবশেষে তেলেঙ্গানার ভদ্রচলমে পৌঁছবে ট্রেন। ‘দক্ষিণের অযোধ্যা’ বলা হয় এই স্থানকে। এরপর ট্রেন ফিরবে দিল্লিতে।

কী কী বিশেষ পরিষেবা পাবেন পর্যটকরা? রেলের তরফে জানানো হয়েছে, ট্রেনের প্রতিটি কোচে সিসিটিভি ও নিরাপত্তা রক্ষীদের মোতায়েন করা হবে। থাকবে প্যান্ট্রি কার ও অন্য আরও আকর্ষণ।

এই ট্রেনের টিকিট আপনি কাটতে পারবে আইআরসিটিসির অফিসিয়াল ওয়েসবাইটেই। টিকিটের দাম জনপ্রতি ৬২ হাজার ৩৭০ টাকা। সব মিলিয়ে ৬০০ জন যাত্রী যাত্রা করতে পারবেন ট্রেনটিতে। প্রথম ১০০ জন পাবেন ১০ শতাংশ ছাড়ের সুযোগ।

[আরও পড়ুন: বোরখা সরিয়ে সেলফি নিলেই বিপদ! মুসলিম মহিলাদের হুমকি চরমপন্থীদের হোয়াটসঅ্যাপ গ্রুপের]

Sangbad Pratidin News App: খবরের টাটকা আপডেট পেতে ডাউনলোড করুন সংবাদ প্রতিদিন অ্যাপ
নিয়মিত খবরে থাকতে লাইক করুন ফেসবুকে ও ফলো করুন টুইটারে