×

৮ ফাল্গুন  ১৪২৫  বৃহস্পতিবার ২১ ফেব্রুয়ারি ২০১৯ 

Menu Logo মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও বাঁকা কথা ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার
নিউজলেটার

৮ ফাল্গুন  ১৪২৫  বৃহস্পতিবার ২১ ফেব্রুয়ারি ২০১৯ 

BREAKING NEWS

সংবাদ প্রতিদিন ডিজটাল ডেস্ক: ধূমপান যে ক্যানসারের কারণ, তা আজকের দিনে কারোর অজানা নয়। সিগারেটের প্যাকেট থেকে শুরু করে অনেক জায়গাতেই দেখা যায় এই সতর্কবাণী। কিন্তু তা সত্ত্বেও অভ্যাস বদলায় কই? কিন্তু চেষ্টা তো করাই যায়। বিশ্ব তামাকমুক্ত দিবসে জেনে নিন তারই কয়েকটি উপায়।

১) বাড়িকে পরিষ্কার করুন:

যখনই আপনি সিদ্ধান্ত নেবেন, ধূমপান ছাড়বেন, বাড়ি পরিষ্কার করে ফেলুন। জামাকাপড়, কার্পেট, আসাবাবপত্র সব ধুয়ে ফেলুন। ধূমপানের কোনও গন্ধ যেন বাড়ির কোথাও থেকে না থাকে।

[ গলার কষ্ট রুখতে হোমিওপ্যাথই মূল ভরসা, কী বলছেন বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকরা? ]

২) ধূমপানের উপকরণ ফেলে দিন:

মনে কষ্ট হবে। কিন্তু তবুও ধূমপানের যাবতীয় উপাচার ছুঁড়ে ফেলে দিন। সিগারেটের প্যাকেট তো বটেই, অ্যাসট্রে বা লাইটারেরও যেন কোনও চিহ্ন না থাকে।

৩) রোজ শরীরচর্চা করুন:

শরীর সুস্থ রাখার একমাত্র উপায় শরীরচর্চা। তাই নিয়ম মেনে শরীরচর্চা করুন। দৌড় বা সাইক্লিং আপনার শরীরকে ফিট রাখতে সাহায্য করবে। ধূমপান ছাড়তে এগুলি আপনাকে সাহায্য করবে। সেই সঙ্গে আপনার শরীরকে দ্রুত সুস্থ করবে।

৪) মুখকে ব্যস্ত রাখুন:

যখনই সিগারেট ধরানোর জন্য মুখ উসখুশ করবে, সঙ্গে সঙ্গে মুখে কিছু দিয়ে দিন। হতে পারে মুখশুদ্ধির কোনও উপাদান বা চুইংগাম। মোটকথা মুখে কিছু রাখুন। তাহলে ধূমপানের ইচ্ছা থাকলেও উপায় থাকবে না। ধূমপান ছাড়ানোর সবচেয়ে উপযোগী হল ফল। সম্ভব হলে প্রতিদিন ফল খান। আঙুর অ্যান্টিটক্সিডেন্টের কাজ করে। এছাড়া ফল দেহের নিকোটিনের মাত্রাকেও কমিয়ে দেয়।

smoking-death

৫) স্বাস্থ্যকর খাবার খান:

ধূমপান ছাড়ার পর আপনার খিদে পাবে বেশি। তখন হাতের কাছে যা পাবেন, তা না খেয়ে কিছু স্বাস্থ্যকরী খাবার খান। দরকার হলে যেখানে যাচ্ছেন, সঙ্গে করে খাবার নিয়ে যান। এটি আপনার হাতকে যেমন ব্যস্ত রাখে, তেমনই মুখকেও ব্যস্ত রাখে।

৬) সঙ্গে রাখুন স্ট্রেস বল:

ধূমপান যখনই ছাড়ার কথা ভাববেন, সঙ্গে রাখুন স্ট্রেস বল। এটি আপনাকে রিল্যাক্স রাখবে। নিকোটিন থেকে আপনাকে দূরে রাখতে সাহায্য করবে। এটি আপনাকে নতুন ভালো অভ্যাস তৈরিতেও সাহায্য করবে।

৭) ক্যাফাইন কম খান:

নিকোটিন ক্যাফাইনের প্রভাবকে কমিয়ে রাখে। ফলে ধূমপান করা ছেড়ে দিলেই ক্যাফাইন আপনার শরীরে খারাপ প্রভাব ফেলতে শুরু করবে। ফলে যতটা সম্ভব কম কফি খান। ক্যাফাইনের প্রভাবে অনিদ্রা রোগ পর্যন্ত আপনার আসতে পারে।

[ ম্যাট্রিমনিয়াল সাইটে জীবনসঙ্গী খুঁজছেন? এই বিষয়গুলি মাথায় রাখছেন তো? ]

৮) হবি তৈরি করুন:

নতুন করে হবি তৈরি করুন। এমন কোনও হবি যা আপনাকে ধূমপান থেকে দূরে রাখতে পারে। সেটা হতে পারে বই পড়া, হতে পারে ছবি আঁকা, হতে পারে কবিতা লেখা। রান্নাও হতে পারে আপনার অন্যতম হবি। এর সাহায্যে আপনি ধূমপান থেকে দূরে থাকতে পারবেন।

৯) ধ্যান করুন

ধূমপান ছাড়ার জন্য সবার আগে দরকার মানসিক প্রস্তুতি। তার জন্য সবচেয়ে ভাল উপায় ধ্যান করা। এটি আপনার মনোসংযোগে সাহায্য করবে। সাধারণ কয়েকটি পদ্ধতি আপনার চিন্তাভাবনা সঠিক পথে চালিত করবে।

১০) প্রচুর জল খান

নিকোটিন দেহের বাইরে বের করতে সবচেয়ে বেশি সাহায্য করে জল। বেশি জল খেলে ফুসফুসও সতেজ থাকে।

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং