১০ ফাল্গুন  ১৪২৬  রবিবার ২৩ ফেব্রুয়ারি ২০২০ 

Menu Logo মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও বাঁকা কথা ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: ভালবাসার কোনও শর্ত হয় না। এই পৃথিবীতে কে যে কেন, কাকে ভালবাসে তার সত্যি কোনও ব্যাখ্যা হয় না। মনের মিল থাকলে তখন আর কোনও বাধাই যে বাধা নয়। সব প্রতিকূলতা পেরিয়ে এগিয়ে যাওয়ার হাতিয়ার বোধহয় শুধুই ভালবাসা। কিন্তু ভালবাসা কি শুধু দু’টি মানুষের মধ্যে হয়? দু’জন মানুষ যেমন একে-অপরকে চূড়ান্ত ভালবাসতে পারেন, তেমনই আবার একটি মানুষ এবং তাঁর পোষ্যের মধ্যে গড়ে ওঠে নিঃশর্ত ভালবাসার সম্পর্ক। তারা একে-অপরের উপর অভিমান করে, রাগ করে আবার ভালবাসে। এমনই এক ভালবাসার মুহূর্ত ভাইরাল হয়ে গিয়েছে নেটদুনিয়ায়। ওই ছবি দেখে মালিক এবং পোষ্যকে কুর্নিশ জানাচ্ছেন অধিকাংশ নেটিজেন।

বনদপ্তরের আধিকারিক সুশান্ত নন্দা গত শুক্রবার সোশ্যাল মিডিয়ায় একটি ভিডিও পোস্ট করেন। মাত্র সাত সেকেন্ডের ওই ভিডিওয় দেখা গিয়েছে একটি উট এক ব্যক্তি গলা জড়িয়ে দাঁড়িয়ে রয়েছেন। মরুভূমির জাহাজ কী ওই ব্যক্তির উপর হামলা চালাতে চাইছে, ছবি দেখে প্রথমে এ প্রশ্নই মনে জেগেছিল সকলের। কিন্তু ছবির ক্যাপশনে চোখ পড়তে বদলে গেল ভাবনা।

[আরও পড়ুন: ‘এ দেশে থাকতে না চাইলে পাকিস্তানে যাও’, পরামর্শ দিয়ে বিতর্কে মীরাটের পুলিশ সুপার]

ওই ক্যাপশনে থাকা তথ্য অনুযায়ী, ওই উটের মালিক দীর্ঘদিন বাড়িতে ছিলেন না। তাই পোষ্যের সঙ্গে দেখা হয়নি তাঁর। মুখে বলতে পারে না ঠিকই তবে মালিককে দেখতে না পেয়ে এতদিন মনখারাপ হয়েছে মরুভূমির জাহাজের। তাই তো মালিকের দেখা পেয়ে আবেগ চাপা দিতে পারেনি অবলা পোষ্য। সে মালিকের গলা জড়িয়ে ধরে। মালিককে যে মোটেও কাছছাড়া করতে চায় না সেকথা বোঝানোর আপ্রাণ চেষ্টা করে উট।

সোশ্যাল মিডিয়ায় এই ভিডিও ভাইরাল হতে বিশেষ সময় লাগেনি। উটের অমলিন ভালবাসার জোয়ারে ভাসছে নেটদুনিয়া। লাইক, কমেন্ট এবং শেয়ারের বন্যা। ওই ভিডিও দেখে অবাক হয়ে গিয়েছেন নেটিজেনরা। অনেকেই বলছেন, “ভালবাসার যে কোনও ভাষা হয় না, তাই প্রমাণ করল পোষ্য।”

হিংসা, হানাহানি বন্ধ করে প্রত্যেক মানুষেরও ভালবাসার মাধ্যমে জগত জয়ের চেষ্টা করা উচিত বলেও মত অনেকের। আবার কেউ কেউ বলছেন, “কীভাবে কাউকে ভালবাসতে হয় সেই শিক্ষা উটের কাছ থেকে সাধারণ মানুষের নেওয়া উচিত।”

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং