২৯ কার্তিক  ১৪২৬  শনিবার ১৬ নভেম্বর ২০১৯ 

BREAKING NEWS

Menu Logo মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও বাঁকা কথা ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

২৯ কার্তিক  ১৪২৬  শনিবার ১৬ নভেম্বর ২০১৯ 

BREAKING NEWS

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: আপনার বাড়ির সিংহাসনে গোপাল রয়েছে? নিত্যদিন নিশ্চয়ই গোপাল সেবা দেখেছেন? বেশিরভাগ হিন্দু পরিবারে ভগবানকে খেতে দেওয়ার পাশাপাশি ঘুমনোরও বন্দোবস্ত করে দেওয়া হয় সন্তানরূপী ছোট্ট গোপালকে। প্রচণ্ড শীতে তাকে পরিয়ে দেওয়া হয় গরম পোশাকও। কিন্তু দূষণ থেকে বাঁচাতে মাস্ক পরতে দেখেছেন কখনও? সেই ব্যতিক্রমী ঘটনারই সাক্ষী বারণসী। সেখানে দেবদেবীর মুখে পরানো হল মাস্ক। কিন্তু কেন? কারণ শুনলে আপনিও অবাক হয়ে যাবেন।

বারাণসীর মন্দিরে ঢুকলেই দেখবেন কালী হোক কিংবা দুর্গা এমনকী শিবলিঙ্গে পরানো রয়েছে মাস্ক। পুণ্যার্থী সে দৃশ্য দেখেই মন্দিরে ঢুকতে গিয়েও হোঁচট খাচ্ছেন। কিন্তু কেন এমন আজব ছবি দেখা গেল ওই মন্দিরগুলিতে? হরিশ মিশ্র নামে এক পুরোহিত বলছেন, “আমরা ভগবানকে আমাদের মতো অনুভূতিপ্রবণ বলেই মনে করি। আমরা শীতকালে ভগবানকে ওই ঋতু উপযোগী পোশাক পরাই। তাহলে পরিবেশের যখন পরিবেশের ভয়ংকর অবস্থা তখন আমাদেরও উচিত তাঁদের রক্ষা করা। তাই তো সাধারণ মানুষের মতোই কালী, দুর্গা এমনকী শিবলিঙ্গেও মাস্ক পরিয়ে রেখেছি।” তবে জিভ বের করা হওয়ায় মাস্ক পরাতে সমস্যা হচ্ছে মা কালীকে। তাই তাঁকে কীভাবে মাস্ক পরানো যায় আপাতত সেই নিয়েই ভাবনাচিন্তায় ব্যস্ত পুরোহিতরা। দেবদেবীদের দেখে মুখে মাস্ক পরতে শুরু করেছেন বহু পুণ্যার্থী।

[আরও পড়ুন: টিকটকে বেশি লাইক আদায়ের জন্য মাকে প্রায় মেরেই ফেলছিল ‘গুণধর’ ছেলে!]

সভ্যতার অগ্রগতির কথা মাথায় রেখে নির্বিচারে কাটা হচ্ছে গাছ। তার উপর আবার বারাণসীর আশেপাশে চলছে খড় পোড়ানোর পালা। সঙ্গে রয়েছে কালীপুজো এবং দিওয়ালির সময় বাজি পোড়ানোর জেরে তৈরি হয় ধোঁয়া। সব মিলিয়ে বাতাসেই ক্রমশই বাড়ছে দূষণের পরিমাণ। সাধারণ মানুষের সচেতনতার অভাবই মূলত দূষণের কারণ বলে দাবি পুরোহিতদের। এই ঘটনাই যেন আরও একবার মানুষের অসচেতনতা কতটা ভয়ংকর রূপ নিয়েছে, তা প্রমাণ করল। কিন্তু প্রশ্ন একটাই, এত কিছুর পরেও আর কবে সচেতন হব আমরা?

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং