৯ আশ্বিন  ১৪২৭  রবিবার ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২০ 

Advertisement

OMG! নিজের গাড়ি ফেলে ভুলবশত এ কী নিয়ে চলে গেলেন ব্যবসায়ী?

Published by: Sangbad Pratidin Digital |    Posted: December 18, 2017 12:40 pm|    Updated: September 18, 2019 4:45 pm

An Images

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: মানুষ মাত্রেই ভুল হয়। কথার কথা নয়, এটা ঘোরতর বাস্তব। ভুল করে অন্যের জিনিস নিয়ে চলে যাওয়া কিংবা নিজের জিনিসটিই ফেলে আসা, দৈনন্দিন জীবনে এমনই তো আকছাড়ই ঘটে। সত্যি কথা বলতে, ভুল করে ছাতা ফেলে আসার গল্প তো প্রায় কিংবদন্তি হয়ে গিয়েছে। কিন্তু, তা বলে এমন ভুলও কেউ করতে পারে? নিজের বিলাসবহুল গাড়িতে চেপে বন্ধুকে নিয়ে হাসপাতালে গিয়েছিলেন চেন্নাইয়ের এক ব্যবসায়ী। কিন্তু, হাসপাতাল থেকে ফিরলেন ব্যাটারি চালিত অ্যাম্বুল্যান্সে! ওই ব্যক্তি হাসপাতালে গিয়ে গুরুতর অসুস্থ হয়ে পড়েছিলেন, এমনটা কিন্তু নয়। নেহাতই ভুলবশত ব্যাটারি চালিত অ্যাম্বুল্যান্সটিকে নিজের গাড়ি ভেবে বসেছিলেন তিনি!

[অপারেশনের আগে মুসলিম মহিলাকে ‘কৃষ্ণনাম’ জপের নির্দেশ, বিতর্কে চিকিৎসক]

ওই ব্যক্তির নাম মিথিল। পেশায় তিনি ব্যবসায়ী। রীতিমতো ধনী। নিজের বিলাসবহুল গাড়িতে চাপিয়ে বন্ধুকে চেন্নাইয়ের একটি হাসপাতালে ভরতি করাতে নিয়ে গিয়েছিলেন মিথিল। তাঁর বন্ধু ওই হাসপাতালে ভরতিও হয়ে যান।  কিন্তু, বিপত্তি ঘটে এরপর! ফেরার সময়ে ভুলবশত হাসপাতালে একটি ব্যাটারি চালিত অ্যাম্বুল্যান্সে চালিয়ে বাড়িতে ফেরেন মিথিল। প্রথমে অবশ্য ব্যাপারটি কেউ টের পায়নি। কিছুক্ষণ পর হাসপাতালে কর্মীরা খেয়াল করেন, পার্কিং লট থেকে একটি অ্যাম্বুল্যান্সে উধাও। অ্যাম্বুল্যান্সে চুরি হয়ে গিয়েছে ভেবে থানায় খবর দেন হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ। তবে পুলিশকে বিশেষ বেগ পেতে হয়নি। ঘণ্টাখানেক বাদে ওই ব্যবসায়ীর গাড়ির চালকই অ্যাম্বুল্যান্সেটি হাসপাতালে ফিরিয়ে দিয়ে যান। জানান, তাঁর মালিক ভুলবশত অ্যাম্বুল্যান্সটি নিয়ে বাড়ি চলে গিয়েছিলেন!

[বড়দিন পালন করা যাবে না স্কুলে, সতর্ক করল হিন্দু সংগঠন]

হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের দাবি, অ্যাম্বুল্যান্সের একটি কাঁচ ভেঙেছে। সেটি মেরামত করার জন্য টাকা দেওয়ার প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন মিথিল। তাই ওই ব্যবসায়ীর বিরুদ্ধে পুলিশে অভিযোগ দায়ের না করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ। যদিও ঘটনার পর ওই ব্যবসায়ীকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য ডেকে পাঠিয়েছে পুলিশ।

[তেত্রিশ বছর বাদে সুরক্ষার অভিভাবক পেল মেট্রো রেল]

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement

Advertisement