৫ আশ্বিন  ১৪২৬  সোমবার ২৩ সেপ্টেম্বর ২০১৯ 

Menu Logo পুজো ২০১৯ মহানগর রাজ্য দেশ ওপার বাংলা বিদেশ খেলা বিনোদন লাইফস্টাইল এছাড়াও বাঁকা কথা ফটো গ্যালারি ভিডিও গ্যালারি ই-পেপার

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: নতুন মোটরযান আইনে কয়েক গুণ বেড়েছে জরিমানা। যার ফলে জোর বিপাকে বাইক আরোহীরা। একবার হেলমেট ছাড়া ধরা পড়লেই গুনতে হবে কড়কড়ে হাজার টাকা। সঙ্গে যদি কাগজপত্র ঠিক না থাকে, তাহলে জরিমানার পরিমাণ ১০ হাজারও ছাড়াতে হারে। ১ সেপ্টেম্বর দেশজুড়ে(পশ্চিমবঙ্গ ছাড়া) এই আইন চালু হওয়ার পর থেকেই যেন কয়েকগুণ বেড়ে গিয়েছে ট্রাফিক পুলিশের তৎপরতা। জোর ধরপাকড় চলছে দিল্লি, মুম্বই, গোয়ার রাস্তায়। অনেক সময়, অকারণে আরোহীদের হেনস্তা করার অভিযোগও উঠছে। তাই, জরিমানা থেকে বাঁচতে এবার অভিনব পন্থা নিলেন আরোহীরা।

[আরও পড়ুন: ফের দাদাগিরি, প্রকাশ্যেই দলীয় কর্মীকে চড় কষালেন কর্ণাটকের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী]

আসলে ভারতীয়রা বড্ড জোগাড়ে প্রকৃতির হয়। শত বিপদেও ঠিক নিস্তার পাওয়ার উপায় খুঁজে বার করে ভারতীয়রা। সম্প্রতি একটি ভাইরাল ভিডিও ঘিরে চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে নেটদুনিয়ায়। ভিডিওটি পোস্ট করেছেন পঙ্কজ নইন নামের একজন আইপিএস। তাতে দেখা যাচ্ছে, বেশ কয়েকজন বাইক আরোহী নিজেদের বাইকগুলি ঠেলে নিয়ে হেঁটে হেঁটে গন্তব্যে যাচ্ছেন। তাদের কারও মাথায় হেলমেট নেই। আসলে, সামনেই একটি ট্রাফিক পোস্ট ছিল। হেলমেটহীন ওই আরোহীরা ট্রাফিকের ঝামেলা এড়াতেই বাইক ঠেলে নিয়ে যাওয়ার পন্থা বের করেছেন। হেলমেট না পরে বাইক চালানোটা অপরাধ, কিন্তু, হেলমেট না পরেও বাইক ঠেলে নিয়ে যাওয়া যায় দিব্যি। ভিডিওটি ইতিমধ্যেই ভাইরাল হয়ে গিয়েছে। নেটিজেনদের দাবি, ঘটনাটি গোয়ার। তবে, ঠিক কোথায় এটি ঘটেছে তা জানা যায়নি। কিন্তু, তাতে কী এই ভিডিও দেখে হাসির রোল উঠছে নেটদুনিয়ায়।

[আরও পড়ুন: অবশেষে স্বস্তি চিদম্বরমের, আদালতে মঞ্জুর প্রাক্তন অর্থমন্ত্রীর আগাম জামিন]

উল্লেখ্য, ১ সেপ্টেম্বর থেকে চালু হয়েছে নয়া মোটরযান আইন। নতুন আইন অনুযায়ী, মদ্যপ অবস্থায় গাড়ি চালালে জরিমানা ২০০০ টাকা থেকে বাড়িয়ে ১০,০০০ টাকা করা হয়েছে। কোনও এমারজেন্সি গাড়িকে রাস্তা না ছাড়লে ৫০০০ টাকা জরিমানা দিতে হবে। এর আগে দিতে হত ১০০০ টাকা। বিনা হেলমেটে গাড়ি চালালে দিতে হবে ১০০০ টাকা জরিমানা। পাশাপাশি তিনমাসের জন্য লাইসেন্স বাজেয়াপ্ত করা হবে। বর্তমানে বিনা হেলমেটে গাড়ি চালালে দিতে হয় মাত্র ১০০ টাকা।

 

আরও পড়ুন

আরও পড়ুন

ট্রেন্ডিং